Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৫ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

পাকিস্তানে হিউম্যান ট্রায়ালের অনুমোদন চীনা ভ্যাকসিনের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ আগস্ট, ২০২০, ১২:০০ এএম

মানব শরীরে করোনা ভ্যাকসিনের পরীক্ষা চালানোর জন্য চীনা প্রতিষ্ঠান ক্যানসিনোবায়োকে অনুমতি দিয়েছে পাকিস্তান। সোমবার এ তথ্য জানিয়েছে পাকিস্তানের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ হেল্থ (এনআইএইচ)। এদিকে, রাশিয়ায় তৈরি করোনা ভ্যাকসিন ‘স্পুটনিক ভি’ অনুমোদন দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মেক্সিকো। এ ভ্যাকসিন নিয়ে যাবতীয় সন্দেহ কাটাতে সবার প্রথমে এটি নিজের শরীরে গ্রহণ করবেন বলে জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট আন্দ্রে ম্যানুয়েল লোপেজ ওবরাডোর। পাশাপাশি, ভ্যাকসিনটি পেতে যোগাযোগ শুরু করেছে মস্কোয় অবস্থিত ভারতীয় দূতাবাস। অন্যদিকে, গতকাল ভারতে একদিনে রেকর্ড ৯ লাখ করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে।

জানা গেছে, চীনভিত্তিক ভ্যাকসিন গবেষক প্রতিষ্ঠান ক্যানসিনোবায়ো এবং বেইজিং ইনস্টিটিউট অফ বায়োটেকনোলজি’র নির্মিত কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের তৃতীয় পর্যায়ের ক্লিনিকাল ট্রায়াল বা পরীক্ষামূলক প্রয়োগের জন্য ড্রাগ রিগুলেটরি অথরিটি অফ পাকিস্তান-ড্র্যাপ’র কাছ থেকে আনুষ্ঠানিক অনুমোদন পেয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি সেখানে তৃতীয় ধাপের হিউম্যান ট্রায়াল চালাবে। এক বিবৃতিতে এনআইএইচ বলেছে যে, পাকিস্তানে এই প্রথম কোনও ভ্যাকসিনের তৃতীয় ধাপের ক্লিনিকাল ট্রায়াল হবে। ক্যান সিনো বায়ো’র এ ক্লিনিকাল ট্রায়ালটি ইতিমধ্যে চীন, রাশিয়া, চিলি, আর্জেন্টিনা পরিচালিত হচ্ছে এবং শিগগিরই সউদী আরবেও শুরু হতে যাচ্ছে। পাকিস্তান হেল্থ নিসার্চ কাউন্সিল (পিএইচআরসি) দেশটির ন্যাশনাল বায়োএথিক্স কমিটিকে (এনবিসি) এ গবেষণার জন্য নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে এবং ক্লিনিকাল ট্রায়ালকে বিশ^জনীন সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থাও অনুমোদন দিয়েছে বলে তারা জানিয়েছে।

এদিকে, রাশিয়ায় তৈরি হওয়া করোনা ভ্যাকসিন ‘স্পুটনিক ভি’ অনুমোদন দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিবেশী দেশ মেক্সিকো। তারা এই ভ্যাকসিনের প্রথম ব্যাচ উৎপাদন করবে বলে জানিয়েছে। যাবতীয় সন্দেহ কাটাতে সবার প্রথমে এ ভ্যাকসিন স্বেচ্ছায় গ্রহণ করবেন বলে জানিয়েছেন মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট আন্দ্রে ম্যানুয়েল লোপেজ ওবরাডোর। সোমবার নিয়মিত সাংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘আমিই প্রথম এ ভ্যাকসিন নেব।’ ভ্যাকসিনটি তৈরি করতে আস্ট্রাজেনেকা পিএলসি ওষুধ কোম্পানির সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়েছে মেক্সিকো ও আর্জেন্টিনা। এ বিষয়ে মেক্সিকোর ডেপুটি ফরেন মিনিস্টার মারঠা ডেলগাডো জানিয়েছেন, ‘দেশের জন্য এ মুহ‚র্তে ২০০ মিলিয়ন পর্যন্ত ডোজ প্রয়োজন। তৃতীয় ধাপের ট্রায়াল সফল হলে, আগামী বছর এপ্রিলেই প্রথম ব্যাচের ভ্যাকসিন বাজারে আসবে।’

‘স্পুটনিক ভি’র নিয়ে আগে আগ্রহ প্রকাশ করলেও এ বিষয়ে এই প্রথম দেশটির সাথে যোগাযোগ করেছে ভারত। ভ্যাকসিনটির প্রথম ব্যাচ উৎপাদন সম্পন্ন হতেই রাশিয়ার মেডিকেল রিসার্চ ইনস্টিটিউটের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে মস্কোয় অবস্থিত ভারতীয় দূতাবাস। ভারত সরকারের একজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা এই তথ্য জানিয়েছেন। সূত্রের খবর, ‘ভারতও ভ্যাকসিন আবিষ্কার নিয়ে নিজেদের মতো প্রস্তুতি নিয়ে চলেছে। তবে মস্কোতে অবস্থিত ভারতীয় দূতাবাস রাশিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ করেছে এ বিষয়ে। আমরা অপেক্ষা করছি এ ভ্যাকসিনের সুরক্ষা এবং কার্যকারিতার বিষয়টি নিয়ে।’

জানা গিয়েছে, আগস্টের ১২ তারিখ থেকে শুরু হওয়ার কথা ছিল স্পুটনিক ভি-এর তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়ালের। রাশিয়ার প্রায় ২ হাজার জনের দেহে এ পরীক্ষা চালানো হবে। এছাড়াও সংযুক্ত আরব-আমিরাত এবং ব্রাজিল-মেক্সিকোতে তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়াল শুরু হওয়ার কথা। প্রথম এবং দ্বিতীয় পর্যায়ে কতটা সফল হয়েছে এ ভ্যাকসিন তার একটি রিপোর্টও প্রকাশ করবে গামালেয়া রিসার্চ সেন্টার।

অন্যদিকে, ভারতে গত একদিনে প্রায় নয় লাখ করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে। গতকাল ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ মেডিক্যাল রিসার্চ (আইসিএমআর) জানিয়েছে, ‘গত ২৪ ঘণ্টায় আট লাখ ৯৯ হাজার ৮৬৪ জনের করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে।’ এ নিয়ে দেশটিতে এখন পর্যন্ত মোট করোনা পরীক্ষা তিন কোটি নয় লাখ ছাড়ালো। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১৯ লাখ ৭৭ হাজারের বেশি মানুষ সুস্থ হয়ে উঠেছে। এতে ভারতে সুস্থতার হার দাঁড়িয়েছে ৭৩ দশমিক ১৮ শতাংশ। সূত্র : রয়টার্স, ডন, দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পাকিস্তান

২৯ নভেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন