Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ০৩ মাঘ ১৪২৭, ০২ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

তথ্যপ্রযুক্তি খাতে বিনিয়োগ করতে পারে জাপান

কূটনৈতিক সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৮ আগস্ট, ২০২০, ১২:১৬ এএম

পাঁচ কারণে জাপানের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশের তথ্যপ্রযুক্তি খাতে বিনিয়োগের সুযোগ নিতে পারে বলে মন্তব্য করেছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। বাংলাদেশের তথ্যপ্রযুক্তি খাতের সম্ভাবনা নিয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার টোকিওতে বাংলাদেশ দূতাবাস ও ফুজিতসু রিসার্চ ইনস্টিটিউট যৌথভাবে একটি অনলাইন সেমিনারের আয়োজন করে। ওই সেমিনারে প্রতিমন্ত্রী এমন মন্তব্য করেন।
সেমিনারে বাংলাদেশের তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এবং এই বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলম, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব জাফর উদ্দিন, বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক অথরিটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক হোসনে আরা বেগম, টোকিও দূতাবাসের চার্জ দ্য অ্যাফেয়ারস ড. শাহিদা আকতারসহ সংশ্লিষ্টরা অংশ নেন। এ ছাড়া সেমিনারে বাংলাদেশের ৫০টি আইটি প্রতিষ্ঠান এবং জাপানের বিভিন্ন ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানের শতাধিক প্রতিনিধি অংশগ্রহণ করেন। ওয়েবিনারে মূলপ্রবন্ধ উপস্থাপন করেন প্রতিমন্ত্রী জনাব জুনাইদ আহমেদ পলক। তিনি বাংলাদেশের তথ্যপ্রযুক্তিখাতের সম্ভাবনা ও অবারিত সুযোগ সুবিধাগুলো সবার কাছে তুলে ধরেন। তথ্যপ্রযুক্তি খাতে বিনিয়োগের পথ সুগম করতে বাংলাদেশ সরকারের গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপ যেমন হাইটেক পার্ক, কর সুবিধা, ওয়ান স্টপ সার্ভিস ইত্যাদি বর্ণনা করেন।
প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, পাঁচ কারণে জাপানের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশের তথ্যপ্রযুক্তিখাতে বিনিয়োগের সুযোগ নিতে পারে। এগুলো হচ্ছে, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের জন্য সরকারি সহযোগিতা এবং ব্যবসাবান্ধব পরিবেশ। দ্রæত বর্ধনশীল অবকাঠামো উন্নয়ন, যেখানে ২৮টি আন্তর্জাতিকমানের হাইটেক পার্ক প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। ব্যবসায় পরিচলানায় খরচ কম। ৫ বিলিয়ন ডলারের সমপরিমাণ বাজার সৃষ্টির সম্ভাবনা। দক্ষ এবং উন্নতমানের জনশক্তি, যেখানে জনসংখ্যার ৫০ শতাংশই ২৫ বছর বয়সের নীচে।
অনলাইন এই আলোচনায় আরও অংশ নেন জাপান এক্সটারনাল ট্রেড অরগানাজেশনের (জেট্রো) বাংলাদেশ প্রতিনিধি জনাব ইউজি আন্দো, জাপান ইন্টারন্যাশনাল কোঅপারেশন এজেন্সির (জাইকা) উপপরিচালক মিজ সিইকো ইয়ামাবে, জাপান ইনফরমেশন টেকনোলজি সার্ভিস ইন্ডাস্ট্রিজ অ্যাসোসিয়েশনের (জিসা) মাসাইউকি ওসুকা, বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অফ সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিস (বেসিস)-এর আলমাস কবির এবং ফুজিতসু রিসার্চ ইনস্টিটিউটের পক্ষে মাইদুল ইসলাম।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: তথ্যপ্রযুক্তি

১০ অক্টোবর, ২০১৮
৫ অক্টোবর, ২০১৮

আরও
আরও পড়ুন