Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৪ আশ্বিন ১৪২৬, ১৯ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

দুই স্থানে অগ্নিকান্ডে নিহত ১ অগ্নিদগ্ধ ২ ৩০ লক্ষাধিক টাকার মালামাল ভস্মীভূত

প্রকাশের সময় : ৮ আগস্ট, ২০১৬, ১২:০০ এএম

অভ্যন্তরীণ ডেস্ক : দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে পেট্রলের দোকানে ও নীলফামারী সদর উপজেলার পুরাতন রেল স্টেশন পাড়ায় অগ্নিকা-ের ঘটনায় নিহত হয়েছে ১ জন ও অগ্নিদগ্ধ হয়েছে ২ জন। এ সংক্রান্ত আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো প্রতিবেদন-
ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে পেট্রলের দোকানে ভয়াবহ অগ্নিকা-ের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় অগ্নিদগ্ধ হয়ে ১ জন নিহত ও ৩০ জন আহত হয়েছে। এদের মধ্যে দুইজনের অবস্থা গুরুতর। একই ঘটনায় হাঁস-মুরগিসহ ৩টি গরু অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা গেছে। অগ্নিদগ্ধ হয়ে নিহত হয়েছেন মাদিলাহাট বাজারের দোকানদার বাবলুর মেয়ে মনিরা (১৫)। গুরুতর অগ্নিদগ্ধ হয়েছেন বাবলুর স্ত্রী রুপিয়া বেগম (৪৫) ও তার ছেলে রনি (১৭)। গত শনিবার সন্ধ্যা ৭টায় উপজেলার বেতদীঘি ইউনিয়নের মাদিলাহাট বাজারে এ ঘটনা ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সন্ধ্যায় বাবলুর পেট্রলের দোকানে বিদ্যুৎ না থাকায় মোমবাতি জ্বালিয়ে পেট্রল বেচাকেনার সময় পেট্রলে অগ্নিসংযোগ ঘটে। এর কিছুক্ষণের মধ্যে পেট্রলের আগুন ছড়িয়ে পড়ে বাবলুর দোকান ও দোকানসংলগ্ন বাড়িতে এবং আশপাশের কয়েকটি দোকান ও বাড়িতে। মুহূর্তেই আগুন মাদিলাহাট বাজারের কিছু অংশজুড়ে ছড়িয়ে পড়ে। আগুনের ভয়াবহতায় এদিক-ওদিক ছোটাছুটি করতে থাকে বাজারের সাধারণ মানুষ। এতে প্রায় ৩০ জন আহত হয়। অগ্নিদগ্ধ হয়ে গুরুতর আহত হয় বাবলুর স্ত্রী রুপিয়া বেগম ও বাবলুর ছেলে রনি (১৭) ও মেয়ে মনিরা (১৫)। আধা ঘণ্টা পর ফুলবাড়ী ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের একটি ইউনিট ২ ঘণ্টা প্রচেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে এবং আহতদের উদ্ধার করে ফুলবাড়ী হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে তাদের অবস্থার অবনতি হলে রংপুর বার্ন ইউনিটে প্রেরণ করা হয়। পরে অবস্থার অবনতি ঘটলে আগুনে পুড়ে যাওয়া দুই ভাই-বোনকে রংপুর থেকে তাৎক্ষণিক ঢাকায় পাঠানো হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতকাল রোববার সকালে বাবলুর মেয়ে মনিরার (১৫) মৃত্যু হয়। আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার আগেই অগ্নিদগ্ধ হয়ে বাবুলের বাড়িতে থাকা হাঁস- মুরগিসহ ৩টি গরু মারা যায়। অগ্নিকা-ে পুড়ে যায় মাদিলাহাট বাজারের খেতাব উদ্দিন, ভ্ট্টুুমিয়া ও আব্দুল খালেকের বাড়িসহ জুয়েলের দোকান।
নীলফামারী জেলা সংবাদদাতা জানান, নীলফামারী সদর উপজেলার পুরাতন রেল স্টেশন পাড়ায় গতকাল রোববার দুপুরে এক অগ্নিকা-ে ১৫টি পরিবারের প্রায় ৩০ লাখ টাকার মালামাল পুড়ে ছাই হয়েছে। দুপুর ১২টায় ওই গ্রামের সিকদারের বাড়ি থেকে বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়ে দ্রুত চারদিকে ছড়িয়ে পড়ে। এতে ওই গ্রামের ১৫টি পরিবারের ২০টি ঘর, নগদ অর্থ, ধান, পাটসহ বাড়ির সম্পূর্ণ মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে যায়। খবর পেয়ে নীলফামারী দমকল বাহিনীর দুটি ইউনিট এক ঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন