Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ২২ জানুয়ারি ২০২১, ০৮ মাঘ ১৪২৭, ০৮ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

নিত্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধিতে দক্ষিণাঞ্চলের মানুষ খুব কষ্টে আছেন

বরিশাল ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৪:১৬ পিএম

করোনা ক্রান্তিকালের মধ্যে নিত্যপণ্যের মূল্য বৃদ্ধিতে দক্ষিনাঞ্চলের সাধারন মানুষের দূর্ভোগ এখন সীমাহীন পর্যায়ে। পেয়াঁজ,আদা, গোলআলু সহ সব ধরনের শাক-সবজির দাম সাম্প্রতিক সময়ের সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌছেছে। চালের দাম গত তিন মাসে কেজি প্রতি ৫-৭ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে। গত একমাসে দাম বেড়েছে প্রতি কেজিতে ২-৩ টাকা।
দেশী পেয়াঁজ ইতোমধ্যে হাফ সেঞ্চুরী অতিক্রম করার সাথে আদা ডবল সেঞ্চুরীতে পৌছেছে। বরিশালের পাইকারী বাজারেই মঙ্গলবার প্রতিকেজি দেশী পেয়াজ বিক্রী হয়েছে ৪৫-৪৭ টাকা কেজি। আমাদানীকৃত পেয়াজ ছিল ৪০ টাকা। যা ঠিক একমাস আগে কেজি প্রতি ১৫ টাকা কমে বিক্রী হয়েছে। খুচরা বাজারে মঙ্গলবারে দেশী পেয়াঁজ ৫০-৫২ টাকা। আর আমদানীকৃত পেয়াঁজ বিক্রী হয়েছে ৪৫ টাকা কেজি দরে। আদার খবর আরো খারাপ। প্রতি কেজী আদা মঙ্গলবার ২শ টাকা কেজি দরে পাইকারী, আর খুচরা ২২০ টাকা কেজি দরে বিক্রী হচ্ছে। খুচরা বাজারে প্রতিকেজি গোল আলু বিক্রী হচ্ছে ৩৫Ñ৩৭ টাকা ।
এদিকে গত মাসের প্রবল বর্ষন আর প্লাবনে দক্ষিণ ও দক্ষিণÑপশ্চিমাঞ্চলের সবজি বাগান বিনষ্ট হবার কারনে বাজারে শাক-সবজির সংকটের সাথে দামও বেড়েছে। ৫০ টাকা কেজির নিচে খুচরা বাজারে কোন সবজি মিলছে না। লালশাক,পুইশাক, লাউশাক-এর ছোট একটি আঁটির দাম এখন সর্বনি¤œ ৪০ টাকা।
গত নভেম্বরে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ এর পরে মে মাসে আরো প্রবল ঝড় ‘আম্পান’এ ভর করে প্রবল বর্ষনে দক্ষিণাঞ্চলে মাঠে থাকা শাক-সবজি সহ রবি ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়। সে ক্ষত কাটিয়ে ওঠার আগেই গত মাসে ভাদ্রের বড় অমাবশ্যায় ভর করে সৃষ্ট লঘুচাপের প্রভাবে ফুসে ওঠা সাগরের জোয়ারে সাথে উজানের ঢল আর প্রবল বর্ষনে দক্ষিণাঞ্চলের মাঠে থাকা সব ধরনের শাক-সবজি বিনষ্ট হয়েছে।
ফলে বাজারে সব ধরনের শাক-সবজির সংকটের সাথে দামও উর্ধমুখি। অন্যন্য বছর বাজারে সবজির দাম বাড়লেও গোলআলুর ওপর নির্ভরশীল থাকত নি¤œবিত্ত ও নি¤œ-মধ্যবিত্ত পরিবারগুলো। কিন্তু এবার তাও সম্ভব হচ্ছেনা আলুর মূল্যবৃদ্ধির কারনে। ফলে নি¤œবিত্তের কোন বিকল্প পথও নেই।
এদিকে এসব নিত্যপণ্যের সাথে দক্ষিষণাঞ্চলের বাজারে সব ধরনের ডালের দামও বেড়েছে। মুসুর ও মুগ ডাল ১২০-১২৫ টাকা কেজি দরে বিক্রী হচ্ছে। চিনি ও ভোজ্যতেল সহ অন্যান্য কিছু নিত্যপণ্যের দামও প্রতি কিজিতে ২-৫ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মূল্যবৃদ্ধি

১১ জানুয়ারি, ২০২১
১৭ অক্টোবর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ