Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ৪ কার্তিক ১৪২৭, ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

ভিদালের বিদায়ে মেসি-সুয়ারেজের আবেগী বার্তা

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৩:২৬ পিএম

২০১৮ সালে বায়ার্ন মিউনিখ ছেড়ে বার্সেলোনায় যোগ দিয়েছিলেন চিলির ফুটবলার আর্তুরো ভিদাল। ক্যাম্প ন্যুতে দুই বছরের বেশি সময় স্থায়ী হতে পারেননি এই ডিফেন্ডার। তবে এই সময়ের মধ্যে বার্সা অধিনায়ক লিওনেল মেসি ও লুইস সুয়ারেজের খুব ভালো বন্ধু হয়ে উঠেছিলেন ভিদাল।

এবার এই চিলিয়ানের কাতালান ক্লাব ছাড়ার সময় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আবেগঘন বার্তা দিয়েছেন মেসি ও সুয়ারেজ।

সামাজিক মাধ্যম ইনস্টাগ্রামে ভিদালকে বিদায় জানিয়ে মেসি লিখেছেন, “আমরা শুধু মুখোমুখি লড়াইয়ে একে অপরকে চিনতাম এবং তোমাকে সবসময়ই একজন ফেনোমেনন হিসেবে দেখেছি।

তবে আমি খুব ভাগ্যবান যে তোমাকে ব্যক্তিগতভাবে জানার সুযোগ পেয়েছি এবং তুমি আমাকে আরও অবাক করে দিয়েছ। ”
ইন্টার মিলানে যোগ দেওয়া ভিদালকে কাতালান ড্রেসিং রুমে মিস করবেন জানিয়ে মেসি আরও যোগ করেন, “দুই বছর এক সঙ্গে থাকা অনেক এবং নজর কাড়ার জন্য অনেক কিছুই করেছ। ড্রেসিং রুম তোমাকে মিস করবে, আর্তুরো। নতুন ক্লাব ও নতুন যুগে তোমাকে শুভ কামনা। আমরা অবশ্যই আবার দেখা করব। ”

মেসির এমন আবেগী বার্তার উত্তর দিয়েছেন ভিদালও। এই চিলিয়ান লিখেন, “ধন্যবাদ, এলিয়েন। ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড়ের সঙ্গে খেলতে পারা আমার জন্য সম্মানের এবং অবশ্যই তোমার বন্ধুত্বের জন্য ধন্যবাদ। আমি এরমধ্যেই তোমাকে মিস করা শুরু করে দিয়েছি। শিগগিরই আবার দেখা হবে। ”

এদিকে সুয়ারেজও ভিদালকে বিদায় জানিয়ে ইনস্টাগ্রামে লিখেছেন, “প্রতিপক্ষ হিসাবে তোমাকে পাওয়া মেনে নেওয়া যায় না। কারণ তুমি একজন খেলোয়াড় হিসেবে কতটা দুর্দান্ত সেটি আমার জানা। তবে একজন সতীর্থ, বন্ধু হিসাবে এবং একজন ব্যক্তি হিসাবে জানার পর বুঝেছি, তুমি আরও বড়!”

ভিদালও উরুগুইয়ান তারকার মেসেজের উত্তরে তাকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন, “ধন্যবাদ পিসতোলেরো (সুয়ারেজের ডাক নাম)। তুমি একজন কিংবদন্তি, সুপারস্টার এবং আমার জন্য ইতিহাসের অন্যতম সেরা গোলদাতার সঙ্গে খেলতে পারা সম্মানের। ”

বার্সার হয়ে ৬৬ ম্যাচে মাঠে নেমেছিলেন ভিদাল। এর মধ্যে করেছেন ১১ গোল। আসন্ন মৌসুমের শুরুতে বার্সার নতুন কোচ রোনাল্ড কোমান দায়িত্ব নিয়ে ভিদালকে নতুন ক্লাব খুঁজতে বলেছেন। এই চিলিয়ান কোমানের পরিকল্পনায় নেই বলে জানিয়েছিলেন কোমান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফুটবল


আরও
আরও পড়ুন