Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ৫ কার্তিক ১৪২৭, ০৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

দক্ষিণাঞ্চলে করোনা সংক্রমন বাড়লেও কোন মৃত্যু সংবাদ নেই

বরিশাল ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৪:২২ পিএম

দক্ষিণাঞ্চলে গত ২৪ ঘন্টায় আরো ৩০ জন করোনা সংক্রমণের শিকার হলেও এসময়ে নুতন কারো মৃত্যু সংবাদ পাওয়া যায়নি। তবে আক্রান্তের সংখ্যাটা আগের দিনের চেয়ে ৪ জন বেশী। এসময়ে বরিশাল ও পিরোজপুর জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়লেও পটুয়াখালী, ভোলা ও বরগুনা জেলায় সামান্য কমেছে। ঝালকাঠীর পরিস্থিতি স্থিতিশীল। আর গত ২৪ ঘন্টায় সুস্থতার সাংখ্যা আগের দিনের ৭১ থেকে ৫৮’তে হ্রাস পেয়ে সর্বমোট সংখ্যা দাড়িয়েছে ৭ হাজার ১২৩ জনে। তবে দক্ষিণাঞ্চলে সুস্থতার হার জাতীয় পর্যায়ের চেয়ে বেশী, ৮৭.০৩ %।
বরিশাল শের এ বাংলা মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে মঙ্গলবার সকালের পূর্ববর্তি ২৪ ঘন্টায় ২১৯ জনের নমুনা পরিক্ষায় ২৭ জনের এবং ভোলা জেলা হাসপাতালের ল্যাবে আরো ১৯ জনের পরিক্ষায় দুজনের দেহে করোনা পজিটিভ সনাক্ত হয়েছে। সর্বশেষ হিসেবনুযায়ী দক্ষিণাঞ্চলে এখনো সনাক্তের হার ১৭.৫৮%। যা জাতীয় হারের চেয়ে বেশী।
মঙ্গলবার সকালের পূর্ববর্তি ২৪ ঘন্টায় দক্ষিণাঞ্চলে নতুনকরে ৩০ জনের দেহে করোনা সনাক্তের ফলে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাড়িয়েছে ৮,১৮৫ জনে। নতুন আক্রান্ত ৩০ জনের মধ্যে বরিশালেই ১৪ জন। যা আগের দিনের চেয়ে ৩ জন বেশী। করোনার হটস্পট বরিশালে এ পর্যন্ত ৩,৪১৯ জনের মধ্যে ৬৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। যার সিংহভাগই বরিশাল মহানগরীতে। এ মহানগরীতে স্বাস্থ্য সুরক্ষা ও স্বাস্থ্যবিধি বলতে সব কিছুই অনেক আগে বিলুপ্ত হয়েছে। পিরোজপুরে আগেরদিন কোন আক্রান্ত না থাকলেও মঙ্গলবার নতুনকরে ৪ জনের আক্রান্তের খবর দিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ। ফলে জেলাটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাড়িয়েছে ১,০৫৯ জনে। এ পর্যন্ত মারা গেছেন ২৩ জন।
পটুয়াখালীতে আক্রান্তের সংখ্যা আগের দিনের ৭ থেকে ৬ জনে হ্রাস পেয়েছে মঙ্গলবারে। জেলাটিতে এপর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১,৩৯৬ জনের মধ্যে ৩৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। ভোলাতেও আক্রান্তের সংখ্যাটা আগের দিনের ৪ থেকে ৩ জনে হ্রাস পেয়েছে। এ দ্বীপ জেলায় ৭১৭ জন আক্রান্তের মধ্যে ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। বরগুনাতেও আক্রান্তের সংখ্যা আগের দিনের ৩ থেকে মঙ্গলবার সকালে দুজনে হ্রাস পেয়েছে। জেলাটিতে এপর্যন্ত ৯০৪ জন আক্রান্তের মধ্যে ২০ জনের মৃত্যু ঘটেছে। ঝালকাঠীতে গত দুদিন আক্রান্তের সংখ্যা একজন করে স্থির রয়েছে। ছোট এ জেলাটিতে এ পর্যন্ত ৬৯০ জন আক্রান্তের মধ্যে ১৬ জনের মৃত্যু ঘটেছে।
বরিশাল শের এ বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে মঙ্গলবার সকালে ১৫ জন চিকিৎসাধীন ছিলেন। আগের দিন সকালে সংখ্যাটা ছিল ১৬। হাসপাতালটির আইসোলেশন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন ছিলেন ২৩ জন। আগেরদিন সকালে ছিলেন ৩০ জন। আর আইসিইউ’তে চিকিৎসাধীন ছিলেন ৮ জন। আগের দিন সকালেও সংখ্যাটা একই ছিল।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন