Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ৪ কার্তিক ১৪২৭, ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

জিজ্ঞাসাবাদে তলব শীর্ষ নায়িকাদের

মাদককান্ডে বলিউডে তোলপাড়

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১২:০১ এএম

 

বলিউডের জনপ্রিয় নায়ক সুশান্তর আত্মহত্যা নিয়ে যে তোলপাড় শুরু হয়েছে তার আঁচ লাগতে শুরু করেছে অনেক নামী-দামি তারকার গায়েও। ওই ঘটনায় মাদকের যোগ নিয়ে কেঁচো খুঁড়তে সাপ বেরিয়ে আসার জোগাড় হয়েছে। নিয়েছে চাঞ্চল্যকর মোড়। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো (এনসিবি) ডেকে পাঠিয়েছে দীপিকা পাড়ুকোনসহ চার অভিনেত্রীকে। দীপিকা ছাড়া তলব করা হলো সারা আলি খান, শ্রদ্ধা কাপুর এবং রাকুল প্রীত সিংহকে। এছাড়াও ডাক পড়েছে দীপিকার ম্যানেজার কারিশমা প্রকাশ আর ফ্যাশন ডিজাইনার সিমন খাম্বাটাকেও। গতকাল থেকে ৩ দিন তাদের দফতরে উপস্থিত হওয়ার নির্দেশ দিয়েছে এনসিবি। আগামীকাল শনিবার এনসিবির দফতরে হাজিরা দিতে গতকালই মুম্বাই এসে পৌঁছেছেন সারা আলি খান। সঙ্গে ছিলেন তার মা অমৃতা সিংহ। অন্যদিকে এ দিনই ম্যানেজার কারিশমাকে নিয়ে মুম্বাই ফেরার কথা দীপিকা পাড়ুকোনেরও। পরিচালক শকুন বাত্রার ছবির শুটিং ছেড়ে গোয়া গিয়েছিলেন তিনি। সারাও গোয়ায় গিয়েছিলেন পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাতে। বুধবারই মাদক যোগে সারা এবং দীপিকাকে সমন পাঠায় নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো (এনসিবি)। তাই এই তড়িঘড়ি ‘প্ল্যান চেঞ্জ’ দীপিকা-সারার।

দীপিকার পর দিয়া মির্জাকেও সমন পাঠানোর কথা শোনা গেছে। দ্রæত জিজ্ঞাসাবাদের জন্য মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ ব্যুরোতে ডাকা হবে দিয়াকে। মাদক পাচারকারী অঙ্কুশ আর অনুজ কেশওয়ানিকে জেরার সময়ই দিয়ার নাম উঠে এসেছে। দিয়ার ম্যানেজার অনুজের প্রেমিকা। গত বছর থেকে তিনিই নিয়মিত দিয়াকে মাদক পৌঁছে দিতেন। এমনকি দু’বার মাদক পাচারকারীদের সঙ্গে দেখাও করেছিলেন দিয়ার ব্যবস্থাপক। ইতোমধ্যে তাকে সমন পাঠানো হয়েছে।

এনসিবি সূত্রে জানা যাচ্ছে, আজ শুক্রবারই এনসিবি দফতরে হাজিরা দেবেন দীপিকা। দীপিকা ছাড়াও রাকুল প্রীত সিংহও আজই এনসিবি দফতরে হাজির হবেন। শ্রদ্ধা এবং সারাকে ডাকা হয়েছে আগামীকাল শনিবার। গতকাল সকাল ১০টা নাগাদ এনসিবি’র দফতরে ঢুকতে দেখা যায় নামজাদা ফ্যাশন ডিজাইনার সিমন খাম্বাটাকে। মাদককাÐে নাম জড়িয়ে গিয়েছে তারও। এর খানিক পরেই সেখানে পৌঁছেন সুশান্তের প্রাক্তন ট্যালেন্ট ম্যানেজার শ্রæতি মোদি। বলিউডের মাদককাÐে এই প্রথম জিজ্ঞাসাবাদের জন্য এনসিবি দফতরে পৌঁছেন সিমন, যদিও শ্রæতিকে এর আগে বেশ কয়েক বার জেরা করেছে ভারতের ওই কেন্দ্রীয় সংস্থা। সব মিলিয়ে থমথমে বলিউড। তারকাদের ইনস্টাগ্রাম থেকে ফেসবুক, স্ন্যাপচ্যাট থেকে টিন্ডার কার্যত চুপ।

শুধু বড় পর্দার অভিনেতারাই নন, বলিউডের মাদক যোগে চাপে ছোট পর্দার তারকারাও। করমজিৎ নামে যে মাদক পাচারকারীকে কিছু দিন আগে গ্রেফতার করেছিল এনসিবি, তার বয়ানেই উঠে এসেছে মোট কুড়ি জন টেলিস্টারের নাম। তাদের মধ্যে রয়েছেন সেলিব্রিটি কাপল আবিগালি পাÐে এবং সনম জোহর। এনসিবি সূত্রে জানা যাচ্ছে, জেরা করা হচ্ছে তাদেরও। এ দিনও জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাদের দফতরে ডেকেছে এনসিবি। তালিকায় রয়েছে আরো বেশ কিছু অভিনেতার নাম।

এনসিবি সূত্রে খবর, রাকুল প্রীত সিং এবং সারার নাম প্রথমবার এনসিবি’র কাছে ‘ফাঁস’ করেন রিয়া চক্রবর্তী। সিমনের নামও প্রকাশ করেন তিনি। বলি ইন্ডাস্ট্রি সূত্রে খবর, এ রাকুল, সারা এবং রিয়া কিন্তু একসময় খুব ভালো বন্ধু ছিলেন। বহুবার একসঙ্গে ক্যামেরাবন্দি হয়েছেন ওরা। মাঝেমধ্যেই সুশান্তের লোনাভালার ফার্মহাউজে পার্টি থেকে শুরু করে একসঙ্গে ঘুরতে যাওয়া... চলত সব। বলিউডের একাংশ বলছে, ওই পার্টিই ছিল নাকি ‘ড্রাগের আখড়া’। মদ-গাঁজা তো ছিলই, একই সঙ্গে চলত নানা নিষিদ্ধ মাদক। সত্যিই কি তাই? খতিয়ে দেখছে এনসিবি।
শ্রদ্ধার নাম কিন্তু রিয়া নেননি। তার প্রসঙ্গে টেনে আনেন সুশান্তের সাবেক ট্যালেন্ট ম্যানেজার জয়া সাহা। সেই জয়া সাহা যিনি রিয়াকে লিখেছিলেন, ‘সুশান্তের চায়ে কয়েক ফোঁটা মিশিয়ে দাও, ফল পাবে’। জানা গিয়েছিল, জয়া সিবিডি অয়েল মেশানোর কথা বলছিলেন রিয়াকে। সিবিডি অয়েল আসলে গাঁজা থেকে নিঃসৃত এক ধরনের তেল জাতীয় পদার্থ। জয়া জেরায় জানিয়েছেন, শুধু সুশান্ত বা রিয়াই নন, বলিউডের অনেক স্টারকে ওই ‘সিবিডি অয়েল’ কিনে দিয়েছিলেন তিনি। যাদের মধ্যে একজন হলেন শ্রদ্ধা কাপুর।

আর দীপিকা? সূত্রের খবর, সেখানেও পরোক্ষে জয়ারই ‘হাত’। দীপিকার ম্যানেজার কারিশমা প্রকাশ আবার জয়ার খুব ভালো বন্ধু। একটি হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট এনসিবি’র হাতে আসে গত সোমবার। চ্যাটটি পুরনো। ২০১৭ নাগাদ সেই চ্যাটেই দেখা যায়, ‘ডি’ এবং ‘কে’ নামে দুই ব্যক্তির মধ্যে মাদক প্রসঙ্গে একাধিক বার কথা চালাচালি হয়েছে। বলিউডের একাংশের দাবি, এই ‘ডি’ হলেন দীপিকা আর ‘কে’ হলেন কারিশমা। এনসিবির নজরে রয়েছে বছর তিনেক আগে দীপিকাসহ বলিউডের বেশ কয়েক জন নামজাদা অভিনেতার ক্লাব ‘কোকো’-তে একটি পার্টির ঘটনা। বলিউডের অন্দরের খবর, ওই পার্টির জন্যই ‘কে’-র কাছে গাঁজার খবর জানতে চাইছিলেন ‘ডি’।

কারিশমা কাজ করেন ‘কওয়ান ট্যালেন্ট ম্যানেজমেন্ট এজেন্সি’-তে। ‘কওয়ান ট্যালেন্ট ম্যানেজমেন্ট এজেন্সির কর্ণধার মধু মন্টেনাকে গতকাল জেরা করেছে এনসিবি। এ এজেন্সির নামেই দিন দুয়েক আগে বিস্ফোরক অভিযোগ এনেছিলেন কঙ্গনা রানাউত। কঙ্গনা টুইটারে লেখেন, এ সংস্থারই সেক্রেটারি অনির্বাণ এক উঠতি অভিনেত্রীকে ধর্ষণ করেছিলেন। এত অভিযোগের মাঝে একেবারে চুপ বলিউডের প্রথম সারির অভিনেতা শাহরুখ, সালমান, অমিতাভরা। মুখ খোলেননি রণবীর সিংহও। কী হতে চলেছে কেউ জানেন না। কাঁপছে বলিউড। সূত্র : ভারতীয় গণমাধ্যম।

 

 



 

Show all comments
  • সবুজ বসু ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৩:৫৯ এএম says : 0
    সুশান্তের মৃত্যুর তদন্ত এখন গাধার গর্ভে
    Total Reply(0) Reply
  • Bithi Mallik ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৩:৫৯ এএম says : 0
    সব এক, নেশাখোরের দল।।
    Total Reply(0) Reply
  • Pradipta Ghosh ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৩:৫৯ এএম says : 0
    কান টেনেছে এখন অনেক বড়ো বড়ো মাথা বেরিয়ে আসবে
    Total Reply(0) Reply
  • New Light ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৪:০০ এএম says : 0
    কেচো খুড়তে কেউটে বের হবে মনে হয়।
    Total Reply(0) Reply
  • হাদী উজ্জামান ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৬:৫১ এএম says : 0
    এসব ফালতু নিউজ ইনকিলাবে না করলে কি হয়!
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মাদক

১০ অক্টোবর, ২০২০
৮ অক্টোবর, ২০২০
১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ