Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ৪ কার্তিক ১৪২৭, ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

মঠবাড়িয়ায় ২ ভাসুরের বিরুদ্ধে ১ বছর ধরে ধর্ষণের অভিযোগে গৃহবধূর মামলা দায়ের

মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৬:৪৮ পিএম

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার টিকিকাটা ইউনিয়নের এক গৃহবধূ (১৯) শনিবার দুপুরে তার ২ ভাসুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের করেছে। আসামীরা হলেন ২ সহোদর হাসান (২৭) ও রুবেল (২৪)।
ওই গৃহবধূর নানা জানান, এক বছর আগে মঠবাড়িয়া উপজেলার টিকিকাটা ইউনিয়নের এক গ্রামে তার নাতনির বিয়ে হয়। বিয়ের কয়েকদিন পর তার বড় ভাসুর বাসায় একা পেয়ে তার নাতনিকে ধর্ষণ করে। বিষয়টি লোকলজ্জার ভয়ে তার নাতনি গোপন রাখে। এর কিছুদিন পর তার মেজো ভাসুরও ওই গৃহবধূকে একা পেয়ে ধর্ষণ করে।
গ্রামবাসীরা জানায়, সোহেল (২২) বছর খানেক আগে ওই মেয়েকে বিয়ে করে। বিয়ের আগে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। তার বড় দুই ভাই অবিবাহিত।
ভকটিম জানান, লোকলজ্জার ভয়ে তিনি এতদিন কাউকে কিছু জানান নি। কিন্তু নিপীড়নের মাত্রা অতিরিক্ত বেড়ে যাওয়ায় ওই মেয়ে তার নানাকে বিষয়টি জানান। এরপর পরিবারের সঙ্গে আলোচনা করে মামলার সিদ্ধান্ত নেন।
মামলা হওয়ার পর ওই গৃহবধূর শ্বশুর বাড়ির লোকজন পালিয়েছেন। এ কারণে তাদের বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি। এমনকি তাদের গ্রামের বাড়িতে গিয়েও কাউকে পাওয়া যায়নি।
মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আ.জ.ম. মাসুদুজ্জামান মিলু মামলার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, আসামিদের গ্রেফতার করে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ওই গৃহবধূ পুলিশ হেফাজতে রয়েছে। আগামীকাল তার ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর সিভিল সার্জন কার্যালয়ে পাঠানো হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন