Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১১ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

উন্নাওয়ের মতো হাথরাসেও ধর্ষকদের সমর্থনে বিজেপি’র সভা!

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৪ অক্টোবর, ২০২০, ৪:৩২ পিএম

হাথরাসে দলিত নারীকে ধর্ষণ ও খুনের ঘটনায় বিক্ষোভে উত্তাল সারা ভারত। অথচ, গণধর্ষণে অভিযুক্তদের সমর্থনে বড়সড় সভার আয়োজন করলেন স্থানীয় বিজেপি নেতা রাজবীর সিং পেহেলবান। যিনি কিনা একটা সময় বিজেপির হয়ে বিধায়কও হয়েছেন। এর আগে আলোচিত

উন্নাও কাণ্ডেও, ধর্ষণ এবং খুনের মতো নৃশংস অপরাধের অভিযুক্তদের সমর্থনেও মিছিল বের করেছিল বিজেপি।

হাথরাসের ঘটনায় উচ্চবর্ণের চার অভিযুক্তকে ইতিমধ্যেই গ্রেপ্তার করেছে উত্তরপ্রদেশ পুলিশ। এরা সকলেই তথাকথিত ‘উচ্চবর্ণে’র নাগরিক। রাজবীর সিং পেহেলবান নামের স্থানীয় ওই বিজেপি নেতার দাবি, উচ্চবর্ণের এই চার যুবককে মিথ্যা অভিযোগে ফাঁসানো হচ্ছে। উত্তরপ্রদেশ সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে। ওই বিজেপি নেতা বলছেন, ব্যক্তিগত উদ্যোগে তিনি এই সভার আয়োজন করেছেন। যেখানে হাজির ছিল সমাজের তথাকথিত উচ্চবর্ণের বহু মানুষ। এমনকী গ্রেপ্তার হওয়া চার অভিযুক্তের পরিবারও ওই বৈঠকে হাজির ছিল। মজার কথা হল, এই সভাটির আয়োজন করা হয়েছিল ওই বিজেপি নেতারই বাড়িতে।

ক্যামেরার সামনেই আয়োজকরা দাবি করেছেন, তারা পুলিশকে জানিয়েই এই বৈঠক করেছেন। উচ্চবর্ণের চার অভিযুক্তকে ফাঁসানো হয়েছে। তাঁদের বিরুদ্ধে হওয়া অভিযোগের কোনও ভিত্তি নেই। সরকারের উপর চাপ সৃষ্টির চেষ্টা হচ্ছে। এই ঘটনার নিরপেক্ষ তদন্তের প্রয়োজন। মজার কথা হল, হাথরাসের স্থানীয় প্রশাসন শনিবার পর্যন্ত করোনার অজুহাতে ওই গ্রামে সংবাদমাধ্যমকে পর্যন্ত ঢুকতে দিচ্ছিল না। আজ এত বড় সভার অনুমতি দেয়া হল কেন? তাও আবার অভিযুক্তদের সমর্থনে? ওই এলাকার জয়েন্ট ম্যাজিস্ট্রেট প্রেমপ্রকাশ মীনা অবশ্য দাবি করেছেন, এই বৈঠক সম্পর্কে কিছুই জানেন না তিনি। উল্লেখ্য, হাথরাসের ধর্ষকদের সমর্থনে মিছিল বা সভা এই প্রথম নয়। এর আগে গত শুক্রবার সবর্ণ-সমাজের বহু মানুষ ওই এলাকায় অভিযুক্তদের সমর্থনে জমায়েত করার চেষ্টা করেছিলেন। তাছাড়া যে বিজেপি নেতা আজ সভার আয়োজন করেছেন, তিনিই আগে বয়ান দিয়েছিলেন, যে ওই নির্যাতিতাকে নাকি তার মা এবং ভাই-ই খুন করেছে। সূত্র: হিন্দুস্থান টাইমস।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত

২৭ নভেম্বর, ২০২০
২৬ নভেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ