Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৫ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

কে হচ্ছেন আমীর

হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ

আসলাম পারভেজ, হাটহাজারী (চট্টগ্রাম) থেকে | প্রকাশের সময় : ৬ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০৪ এএম

বিশ্ব জুড়ে মুসলিম তৌহিদী জনতা ও দেশের আলেম উলামাদের মাঝে শুরু হয়েছে কে হচ্ছেন হেফাজত ইসলামের আমীর। বিষয়টি নিয়ে চট্টগ্রামের হাটহাজারী মাদরাসার ছাত্র থেকে শুরু করে সারা দেশের তৌহিদী জনতার মুখে মুখে আলোচনা ও সমালোচনা শুরু হয়। গঠনতন্ত্র অনুযায়ী বেফাক এর চেয়ারম্যান যিনি হবেন তিনি আল হাইআতুল উলয়ার চেয়ারম্যান হওয়ার কথা। দেশের প্রবীণ আলেম আল্লামা শাহ আহমদ শফীর মৃত্যুর পর বর্তমানে অরাজনৈতিক সংগঠন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের কান্ডারী কে হবেন তা নিয়ে বিভিন্ন মহলে আলোচনা শুরু হয়েছে। আল্লামা শফীর মৃত্যুর পর কে হচ্ছেন হেফাজতের আমির? বর্তমানে এমন প্রশ্নের উত্তর জানতে হাজারো কৌতুহল ভিড় করছে কওমী মহলে। চট্টগ্রাম নাকি রাজধানী ঢাকা থেকে হেফাজতের আমীর নির্বাচিত হবেন, তা নিয়েও সংগঠনের ভেতরে চলছে নানা জল্পনা কল্পনা।
গুরুত্বপূর্ণ এসব প্রতিষ্ঠান ও শুরা কমিটির দিকে এখন সবার চোখ। কেউ কেউ বলছেন, বর্তমান সিনিয়র সহ-সভাপতি মাওলানা মুহিব্বুল্লাহ বাবুনগরী আবার কেউ কেউ বলছেন হেফাজতের সবচেয়ে বেশি সরব কার্যক্রম ছিলো চট্টগ্রাম ও ঢাকা কেন্দ্রীক ঢাকা মহানগর হেফাজতের সভাপতি বারিধারা মাদরাসার মহাপরিচালক মাওলানা নূর হোসাইন কাসেমির নামও হেফাজতের আমীর নির্বাচিত হওয়ার সম্ভাবনার তালিকায় রয়েছে। এছাড়াও আলোচনায় আছেন হেফাজতের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি মাওলানা তাজুল ইসলাম, জমিয়ত নেতা মুফতি মোহাম্মদ ওয়াক্কাস। তবে সংশ্লিষ্টদের ধারণা, কাউন্সিলে সংগঠনের বর্তমান মহাসচিব মাওলানা জুনাইদ বাবুনগরী হেফাজতের নতুন আমীর হয়েও যেতে পারেন বলে শুনা যাচ্ছে। এক্ষেত্রে মহাসচিব পদটি শূন্য হলেও এই পদে নাম শুনা যাচ্ছে মামুনুল হকের। তবে মাওলানা মামুনুল হক অন্য একটি ইসলামী রাজনৈতিক দলের শীর্ষ নেতা হিসেবে থাকার ফলে তিনি অরাজনৈতিক সংগঠন হেফাজতে ইসলামের মহাসচিব হওয়ারও দূরভীসন্ধিও রয়েছে অনেকের মনে।
জানা যায়, আল্লামা শাহ আহমদ শফীর মৃত্যুর পর গত ১৯ সেপ্টেম্বর দাফন শেষে আছর নামাজের পর মাদরাসার মজলিসে সুরার বৈঠকে সর্বসম্মতিক্রমে মাদরাসা পরিচালনার জন্য মাদরাসার শিক্ষক মুফতি আবদুস সালাম, মাওলানা শেখ আহমদ সাহেব ও মাওলানা ইয়াহইয়াসহ তিন সদস্য বিশিষ্ট মজলিসে আমেলা গঠন করা হয় একই বৈঠকে হেফাজাতে ইসলামের মহাসচিব আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীকে শাইখুল হাদীস ও নাযেমে তালিমাত বা শিক্ষা সচিব মনোনীত করা হয়। এছাড়াও মাওলানা হাফেজ শোয়াইবকে সহকারী শিক্ষা পরিচালক হিসেবে নিযুক্ত করা হয়েছে। হেফাজত ইসলামের পরবর্তী আমির কে হবেন এ প্রসঙ্গে হেফাজাতে ইসলামের মহাসচিব আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী বলেন, হেফাজত ইসলামের পরবর্তী আমির কে হবেন এটা আল্লাহ তায়ালা জানেন। তবে আমরা চেষ্টা করব উনার (আল্লামা শফী) আদর্শ বাস্তবায়ন করতে। সেটা হাটহাজারী মাদরাসা ও হেফাজতে ইসলামের ব্যাপারেও। আল্লামা শাহ আহমদ শফীর মতো মানুষ আর পাওয়া যাবে না। এখন আমার দায়িত্ব হলো কাউন্সিল ডাকা। কাউন্সিল যে সিদ্ধান্ত নেবেন সেটাই চূড়ান্ত হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: হেফাজতে ইসলাম

২২ নভেম্বর, ২০২০
১৬ নভেম্বর, ২০২০
১৫ নভেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন