Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৬ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

স্বামী বলছেন আত্মহত্যা ভাইয়ের দাবি খুন

খিলক্ষেতে গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১০ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০২ এএম

 রাজধানীর খিলক্ষেতে নিকুঞ্জের একটি বাসায় রোফিকা রুমা ইতি (২৬) নামের এক তরুণীর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সকালে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ইতির পরিবারের দাবি, তাকে হত্যা করা হয়েছে। তবে তার স্বামীর দাবি গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে ইতি। 

নিহত ইতি বগুড়া শিবগঞ্জ উপজেলার গণকপাড়া গ্রামের মৃত রফিকুল ইসলামের মেয়ে। স্বামী জামাল হোসেন ও ছেলে এহসান হোসেন ইজাজকে (৪) সাথে নিয়ে নিকুঞ্জ-২ জামতলা টানপাড়া মতিউর রহমানের দোতলা বাড়ির নিচ তলায় ভাড়া থাকতেন তিনি। সাড়ে ৫ বছর আগে বিয়ে হয় তাদের। স্বামী জামাল একটি প্রাইভেট কোম্পানিতে চাকরি করেন।
স্বামী জামাল হোসেন বলেন, গত বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০ টার দিকে রাতের খাবার খাওয়ার পর ছোট বিষয় নিয়ে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে ইতি বাসা থেকে বেরিয়ে যেতে চায়। তবে স্বামী জামাল তাকে বাধা দেয়। এরপর রাত ২টার দিকে জামাল ঘুমিয়ে পড়ে। রাত সাড়ে ৩টার দিকে হঠাৎ ঘুম ভেঙে গেলে সে বিছনায় ইতিকে দেখতে পায় না। পরে বারান্দায় গিয়ে গ্রিলের সাথে হিজাব দিয়ে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় দেখে তাকে। সঙ্গে সঙ্গে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যালে নিয়ে গেলে সেখানে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
ইতির বড় ভাই হুমায়ুন কবির রোজ বলেন, আমার বোন মানসিকভাবে খুবই শক্ত ছিল। স্বামীর বাড়ির পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে সে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। তবে বারান্দায় গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় তার লাশ হাটুগেড়ে ফ্লোরে বসা ছিল, তাদের পারিবারিক কিছু সমস্যা হচ্ছিল। ইতি আত্মহত্যা করেছে তা বিশ্বাসযোগ্য নয়। বিষয়টি রহস্যজনক, তাকে হত্যা করা হয়েছে।
তিনি আরো বলেন, শাশুড়ি তাদের পরিবারের উপরে প্রভাব বিস্তার করত। এ জন্য ইতির পরিবারে একটা ঝামেলা হতো। ঘটনার আগের দিনও আমি বোনের সঙ্গে কথা বলেছি। তার মধ্যে কোনো হতাশা ছিল না। লাইফটাকে খুব ইনজয় করছিল। সে কোনোভাবেই আত্মহত্যা করতে পারে না।
খিলক্ষেত থানার এসআই আব্দুস ছামাদ জানান, সুরতহালে তার শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। তার গলায় অর্ধচনন্দ্রাকৃতির দাগ পাওয়া গেছে। ময়না তদন্তের পরই মৃত্যুর কারণ নিশ্চিত হওয়া যাবে। ঢামেক হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. সোহেল মাহমুদ বলেন, মৃত ইতি গলাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থান থেকে আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। সেগুলো প্যাথলজিক্যাল ও রাসাইনিক পরীক্ষা জন্য রাখা হয়েছে। সেই রিপোর্ট পাওয়ার পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে।

 



 

Show all comments
  • Md Nurul Islam ১০ অক্টোবর, ২০২০, ২:৪৫ পিএম says : 0
    sad
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আত্মহত্যা

২ ডিসেম্বর, ২০২০
২৫ নভেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ