Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৮ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

নিউজিল্যান্ডের নির্বাচনে জাসিন্দা আর্ডার্নের বিপুল বিজয়

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ অক্টোবর, ২০২০, ৪:৩৮ পিএম | আপডেট : ৫:২৪ পিএম, ১৭ অক্টোবর, ২০২০

প্রধানমন্ত্রী জাসিন্দা আর্ডার্ন নিউজিল্যান্ডে আজকের নির্বাচনে ফের বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়েছেন। সম্ভবত কয়েক দশকের মধ্যে এই প্রথম দেশটিতে একক-দলীয় সরকার গঠন হতে যাচ্ছে। বিরোধীরা স্বীকার করে নিয়েছে যে, এখনও পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী জাসিন্দা আর্ডার্নের দল জিতেছে। বিরোধী দলীয় নেতা জুডিথ কলিন্সও নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্দা আর্ডার্নকে ফোনে অভিনন্দন জানিয়েছেন।
নিউজিল্যান্ডের বিরোধী ন্যাশনাল পার্টির নেতা জুডিথ কলিন্স সমর্থকদের বলেন যে, লেবার পার্টি নির্বাচনে ‘অসাধারণ ফলাফল অর্জন করেছে এবং প্রধানমন্ত্রী জ্যাসিন্দা আর্ডার্নকে টেলিফোনে অভিনন্দন জানান তিনি। তিনি আরও বলেন যে, জাসিন্দা আর্ডার্ন প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন যে, ন্যাশনাল পার্টি শক্তিশালী বিরোধী হবে, আমরা সরকারের ব্যর্থ প্রতিশ্রুতির জন্য দায়বদ্ধ থাকব।
এদিকে মহামারি করোনাভাইরাস মোকাবেলায় তার দারুণ সফলতার জন্যই জনগণ ফের জাসন্দাকে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বিছে নিয়েছেন বলে বিশ্লেষকরা দাবি করছেন। এর মধ্য দিয়ে তার সংস্কার এজেন্ডা বাস্তবায়নের সুযোগ পেয়ে গেলেন তিনি।
দুই তৃতীয়াংশ ভোট গণনা হয়েছে। যার মধ্যে ৪৯ দশমিক দুই শতাংশ ভোট পেয়েছে আর্ডার্নের লেবার পার্টি। অর্থাৎ দেশটির পার্লামেন্টের ১২০ আসনের মধ্যে ৬৪টিতে তার দল জয়ী হওয়ার আভাস দিচ্ছে।
১৯৯৬ সালে সমানুপাতিক ভোটিং ব্যবস্থা গ্রহণের পর নিউজিল্যান্ডে এই প্রথম কোনো দল এত বেশি আসনে জয়ী হতে যাচ্ছে।
ওয়েলিংটনের ভিক্টোরিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজনৈতিক ভাষ্যকার ব্রিইস এডওয়ার্ডস বলেন, এটা একটি ঐতিহাসিক পালাবদল। এর মধ্য দিয়ে নতুন কোনো ভিত্তি তৈরি হয়েছে।
শনিবারের এ নির্বাচন সেপ্টেম্বরেই হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু কোভিড-১৯ এর নতুন প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়ায় ভোট এক মাস পিছিয়ে দেয়া হয়।
নিউজিল্যান্ডের এখনকার নির্বাচনী ব্যবস্থায় কোনো দলের পক্ষে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন দুরূহ। কিন্তু আর্ডার্নের এখন যে জনপ্রিয়তা তাতে তার দল সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়ে যেতে পারে বলেও অনেকে মনে করছেন।
নিউজিল্যান্ডে নতুন পার্লামেন্ট বেছে নেয়ার ভোট শনিবার স্থানীয় সময় সকাল ৯টায় শুরু হয়ে চলে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত।
এর আগে ৩ অক্টোবর থেকে আগাম ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছিল। সেখানেও ১০ লাখের বেশি মানুষ তাদের রায় জানিয়েছেন।
প্রতিনিধি বেছে নেয়ার পাশাপাশি শনিবার নিউজিল্যান্ডের ভোটারদেরকে স্বেচ্ছামৃত্যুর বৈধতা দেয়া এবং গাঁজা বৈধ ও নিয়ন্ত্রণ সংক্রান্ত দুটো গণভোটেও অংশ নিতে হয়েছে। সূত্র : এএফপি, রয়টার্স ও জং।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ