Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৮ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

চাঁদাবাজীর অভিযোগে বিরুলিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাময়িক বহিস্কার

স্টাফ রিপোর্টার, সাভার | প্রকাশের সময় : ১৭ অক্টোবর, ২০২০, ৬:৫১ পিএম

অন্যের জমিতে অনধিকার প্রবেশ, চাঁদা দাবি, চাঁদা আদায়, পথরোধ ও মারপিটের অভিযোগে মামলার ঘটনায় সাভারের বিরুলিয়া ইউনিয়নের নির্বাচিত চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান সুজনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে স্থানীয় সরকার বিভাগের।
শনিবার বিকেলে স্থানীয় সরকার বিভাগের একটি প্রজ্ঞাপন পত্র হাতে পাওয়ায় বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায়। সাইদুর রহমান সুজন চাঁদাবাজির অভিযোগে গ্রেফতার হয়ে সদ্য জেল খেটেছেন ও বর্তমানে তিনি জামিনে রয়েছেন।
এর আগে ঢাকা জেলা প্রশাসক ইউপি চেয়ারম্যান সুজনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থাা গ্রহনের সুপারিশ করেন। পরে ১৪অক্টোবর স্থানীয় সরকার বিভারে উপসচিব মোহাম্মদ ইফতেখার আহমেদ চৌধুরী স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপন তাকে সাময়ীক বরখাস্ত করা হয়।
নোটিশে বলা বলা হয়েছে, বিরুলিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান সুজনের বিরুদ্ধে গত ২৯ সেপ্টেম্বর সাভার থানায় মামলা দায়ের হয়। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ অন্যের জমিতে অনধিকার প্রবেশ, চাঁদা দাবি, চাঁদা আদায়, পথরোধ, মারপিট ও হুমকি প্রদান। এসব কারনে ঢাকা জেলা প্রশাসকের সুপারিশে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। একই সাথে স্থানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) আইন ২০০৯ এর ৩৪ (১) ধারায় বিরুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান সুজনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হলো।
প্রসঙ্গত, ঢাকার শান্তিনগরের আশরাফুল ইসলাম বিরুলিয়া ইউনিয়নের কাকাবো এলাকায় একটি ভবন নির্মান করছেন। ভবন নির্মানের শুরু থেকেই বিরুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ নেতা সাইদুর রহমান সুজন তার কাছে চাঁদা দাবী করে আসছিল। গত ২৯ সেপ্টেম্বর সুজন দলবল নিয়ে নির্মানাধীন ওই ভবনে গিয়ে ৫লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করেন। এসময় নানান ভয়ভীতির মুখে ভবন মালিক এক লক্ষ টাকা দিতে বাধ্য হন। পরে আরো টাকার জন্য চাপ সৃষ্টি করলে বাধ্য হয়ে ভবন মালিক সাভার মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ওইদিন রাতেই পুলিশ চেয়ারম্যানকে গ্রেফতার করে। পরে দুদিন হাজতবাস থাকার পর সে জামিনে আসেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন