Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ১০ কার্তিক ১৪২৭, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

দোষীদের আইনের আওতায় আনার ঘোষণা

দেশজুড়ে ধর্ষণের বিরুদ্ধে পুলিশের সমাবেশ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০০ এএম

ঢাকা মহানগরীর ৫০টি থানার ৩০২টি বিটসহ দেশের ৬ হাজার ৯১২টি বিট পুলিশিং এলাকায় একযোগে ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সকালে বাংলাদেশ পুলিশের উদ্যোগে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। অনুষ্ঠানটি সরাসরি সম্প্রচার করা হয় বাংলাদেশ পুলিশের বিট পুলিশিং কেন্দ্রের ৬৯১২টি ফেসবুক পেইজে। সমাবেশে জানানো হয়, নারী ও শিশু নির্যাতনসহ যে কোনো প্রকার অপরাধের বিরুদ্ধে পুলিশ সোচ্চার রয়েছে। সাধারণ মানুষের সহযোগিতা ও সমর্থনে এ ধরণের অপরাধ নির্মূলে প্রয়োজনীয় আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করতে বদ্ধপরিকর পুলিশ।

গতকাল পুলিশ সদর দফতর থেকে জানানো হয়, সারাদেশে সমাবেশে লাখ লাখ নারী ও পুরুষ স্বশরীরে উপস্থিত ছিলেন এবং কোটি দর্শক ও সাধারণ মানুষ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এই সমাবেশ দেখেছেন। নিঃসন্দেহে ধর্ষণসহ নারী ও শিশু নির্যাতন বিরোধী সচেতনতা সৃষ্টিতে এটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভ‚মিকা পালন করবে।

পুলিশের এআইজি মিডিয়া মো. সোহেল রানা জানান, ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন বিরোধী সমাবেশে পুলিশসহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, জনপ্রতিনিধি, নারী ও শিশু অধিকার কর্মী, স্থানীয় নারী ও স্কুল-কলেজের ছাত্রী উপস্থিত ছিলেন। সমাবেশে ধর্ষণসহ যে কোনো প্রকার নারী ও শিশু নির্যাতন রোধে সমাজের সকল স্তরের মানুষের মধ্যে ব্যাপক গণজাগরণ সৃষ্টি করার জন্য সবাইকে আহŸান জানানো হয়।

এদিকে, সারা দেশের ন্যায় ঢাকা মহানগর পুলিশের ৫০টি থানার ৩০২টি বিট পুলিশিং এলাকায় একযোগে ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সকালে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ডিএমপির সকল বিট এলাকায় এ কর্মসূচি পালন করা হয়।

গতকাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র (টিএসসি) এলাকায় সমাবেশে পুলিশের রমনা বিভাগের ডিসি সাজ্জাদুর রহমান বলেন, ধর্ষকদের গ্রেফতার করা হচ্ছে। ধর্ষণ প্রতিরোধে পুলিশ তৎপর আছে। তবে তা ঠেকাতে সামাজিক সচেতনতা দরকার। সমাবেশে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর আবদুর রহিম বলেন, নির্যাতিত মা বোনদের পাশে আমরা আছি। ইতিমধ্যে আইন সংশোধন করে সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদন্ড করা হয়েছে। একটি মামলায় এরই মধ্যে ৫

জনের ফাঁসিও হয়েছে। এতে আমাদের মধ্যে আশার সঞ্চার করেছে। শিক্ষক হিসেবে আমরা বিবৃতি, বক্তব্যের মাধ্যমে জনমত সৃষ্টিতে কাজ করব।

নোয়াখালী ব্যুরো জানায়, বাংলাদেশ পুলিশ চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি মো. আনোয়ার হোসেন বলেছেন, পুলিশকে সব শ্রেণি পেশার মানুষের সাথে সম্পর্কের আরও উন্নয়ন ঘটাতে হবে। জনগণকেও আরও সচেতন হতে হবে। পুলিশ বাহিনীকে আরও এক্টিভ হয়ে তাদেরকে রিডিং রোলটা বের করতে হবে। গতকাল শনিবার দুপুরে নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ মডেল থানার আয়োজনে একলাশপুর ইউনিয়নে নারী ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশ শেষে গণমাধ্যম কর্মীদের সাথে কথা বলেন ডিআইজি।

তিনি বলেন, এ ধরনের বিভৎস ঘটনা যেন আর না ঘটে এজন্য সকলকে সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে এবং সচেতন মহলও পুলিশকে সহযোগিতা করতে হবে। ডিআইজি বলেন, একলাশপুর ইউনিয়নে জয়কৃষ্ণপুর গ্রামের খাল পাড়ে চাঞ্চল্যকর গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের ঘটনাটি ৩২দিনেও জানতে পারিনি। চেষ্টা করেছি, এঘটনাটি বের করতে। ঘটনার ভিটটিম তার বাড়ির সবচেয়ে নিকটবর্তী তার চাচার যে ঘর, সে চাচাও ঘটনাটি জানতে পারেনি। ভিকটিম এবং তার স্বামী যে ঘরে উপস্থিত ছিলেন তাদের দু’জনের একজনও যদি ঘটনাটি জানাতেন তাহলে আমাদের পক্ষে জানা এবং ব্যবস্থা গ্রহণ করা সহজ হতো। নির্যাতিতা ঘটনাটি স্থানীয় মেম্বার মোজাম্মেল হোসেন সোহাগকে জানিয়ে ছিলেন এবং বিচার চেয়েছিলেন। কিন্তু মেম্বারও পুলিশকে ঘটনাটি জানায়নি। কোন ঘটনা ঘটলে যে কোন মাধ্যমে ঘটনাটি পুলিশের নজরে আসতে হবে অথবা পুলিশকে জানাতে হবে। কিন্তু এক্ষেত্রে তা হয়নি।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অপরাধ) দীপক জ্যোতি খীসা, বেগমগঞ্জ সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহজাহান শেখ প্রমূখ।

বরিশাল ব্যুরো জানায়, নারী নির্যাতন বন্ধে শুধুমাত্র আইনের ওপর নির্ভরশীল না হয়ে সামাজিক ও পারিবারিক সচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে। সামাজিক ও নৈতিক অবক্ষয় প্রতিরোধে প্রশাসনের সঙ্গে সমাজস চেতন সকল নাগরিককে এগিয়ে আসতে হবে। গতকাল বরিশালে অনুষ্ঠিত ‘নারী ধর্ষণ ও নির্যাতনের বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশে’ বক্তারা এ অভিমত দিয়েছেন। নগরীর টাউন হলে অনুষ্ঠিত বরিশাল কোতোয়ালী মডেল থানা আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন পুলিশ কমিশনার মো. শাহাবুদ্দিন খান।

এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএম কলেজের প্রিন্সিপাল ড. মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া, বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী অধ্যাপক ক্যামেলিয়া খান, জেলা পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট একেএম জাহাঙ্গীর, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব এসএম ইকবাল।

ঝালকাঠি : ঝালকাঠিতে একযোগে ৫০টি বিটে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশগুলোতে ঝালকাঠির পুলিশ সুপার ফাতিহা ইয়াসমিন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কাজী ছোয়াইব, চার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও উপপরিদর্শকরা বক্তব্য রাখেন।

মৌলভীবাজার : সদর উপজেলার একাটুনা ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তনে নারী ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী বিট সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ। মৌলভীবাজার মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. ইয়াছিনুল হক এর সভাপতিত্বে ও ওসি তদন্ত পরিমল চন্দ্র দে অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন।

নওগাঁ : নওগাঁ সরকারি কলেজ মিলনায়তনে নওগাঁ সদর মডেল থানার পৌর বিট নং-১ এর আয়োজনে “ নারী নির্যাতন ও সহিংসতা বিরোধ বিট পুলিশিং সমাবেশে” প্রধান অতিথি ছিলেন রাজশাহী রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি টি এম মোজাহিদুল ইসলাম। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রকিবুল আকতার, সরকারী কলেজের প্রিন্সিপাল (অব.) প্রফেসর শরিফুল ইসলাম খান প্রমুখ ।

শেরপুর : শেরপুরে নারী ধর্ষণ ও নির্যাতনবিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম পিপিএম।

পটুয়াখালী : পটুয়াখালীতে বিট পুলিশিং সমাবেশ পুলিশ হংপার মোহাম্মদ মইনুল হাসান পিপিএম এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন কাজী কানিজ সুলতানা এমপি। সাংবাদিক মুজাহিদুল ইসলামের সঞ্চালনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আক্তার মোর্শেদ।

নেত্রকোণা : অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) ফখরুজ্জামান জুয়েলের সভাপতিত্বে পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোরশোদা খাতুনের সঞ্চালনায় সমাবেশে বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সমাজ কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী বীরমুক্তিযোদ্ধা আশরাফ আলী খান খসরু এমপি। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য হাবিবা রহমান খান শেফালী। সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক কাজি মো. আবদুর রহমান, নেত্রকোণা ইন সার্ভিস ট্রেনিং সেন্টারের পুলিশ সুপার জান্নাত আফরোজ, প্রমুখ।

বালাগঞ্জ (সিলেট) : ওসমানীনগর থানা পুলিশের উদ্যোগে উদ্যোগে র‌্যালি, আলোচনা সভা ও বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন সিলেট জেলা পুলিশ সুপার ফরিদ উদ্দিন পিপিএম, বক্তব্য রাখেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ওসমানীনগর সার্কেল) রফিকুল ইসলাম, ওসমানীনগর থানার ওসি শ্যামল বণিক।

আনোয়ারা (চট্টগ্রাম) : চাতরী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. ইয়াছিন হিরুর সভাপতিত্বে ও আনোয়ারা থানার উপ-সহকারী পুলিশ পরিদর্শক এমরান হোসেনের সঞ্চালনায় বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(তদন্ত) দিদারুল ইসলাম।

বামনা (বরগুনা) : বামনা সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান চৌধুরী কামরুজ্জান সগীরের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান সাইতুল ইসলাম লিটু। বক্তব্য রাখেন বামনা থানার অফিসার ইনচার্জ মো. হাবিবুর রহমান, প্রমুখ।

বড়াইগ্রাম (নাটোর) : নাটোরের বড়াইগ্রামে নবাগত অফিসার ইনচার্জ আনোয়ারুল হকের সভাপতিত্বে বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মীর আসাদুজ্জামান।

ভান্ডারিয়া (পিরোজপুর) : গৌরীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যার মজিবুর রহমান চৌধুরীর সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন সহকারী পুলিশ সুপার হাসান মোস্তফা স্বপন। বক্তব্য রাখেন ভান্ডারিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ এস.এম. মাকসুদুর রহমান, প্রমুখ।

চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) : চিরিরবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত অফিসার (ওসি) সুব্রত কুমার সরকারের সভাপতিত্বে বিট পুলিশিংয়ের সমাবেশে প্রধানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দিনাজপুর জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) শচিন চাকমা।

গলাচিপা (পটুয়াখালী) : পটুয়াখালীর গলাচিপায় বিট পুলিশিং সমাবেশে অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. মনিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মু. শাহীন শাহ্।

ঈশ^রগঞ্জ(ময়মনসিংহ) : ঈশ্বরগঞ্জ পৌরসভা বিট পুলিশ এর আয়োজনে ডাক বাংলা চত্বরে ওসি মোখলেছুর রহমান আকন্দ এর সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান মাহমুদ হাসান সুমন।

কাপ্তাই (রাঙ্গামাটি) : কাপ্তাই উচ্চ বিদ্যালয়ে ওসি নাসির উদ্দীন এর সভাপতিত্বে নারী ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন সংসদ সদস্য দীপংকর তালুকদার ।

কেরানীগঞ্জ(ঢাকা) : ঢাকার কেরানীগঞ্জে মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ কাজী মাইনুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(অপরাধ দক্ষিণ) হুমায়ন কবীর।

মির্জাগঞ্জ (পটুয়াখালী) : নারী ধর্ষণ ও নির্যাতন বিরোধী সমাবেশে মির্জাগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এম আর শওকত আনোয়ারের সভাপত্বিতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান খান মো. আবু বকর সিদ্দিকী।

নাগেশ্বরী (কুড়িগ্রাম) : কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে রায়গঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যান আ.স.ম আব্দুল্লাহ ওয়ালিদ মাসুমের সভাপতিত্বে এবং শিক্ষক আমিনুর ইসলামের সঞ্চালণায় এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন নাগেশ্বরী থানার ভারপ্রাপ্ত ওসি পলাশ চন্দ্র মন্ডল।

নাঙ্গলকোট (কুমিল্লা) : বাঙ্গড্ডা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান শাহজাহান মজুমদারের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন নাঙ্গলকোট থানা পুলিশ উপ পরিদর্শক আনোয়ার হোসেন খন্দকার।

নবাবগঞ্জ (দিনাজপুর) : উপজেলার গোলাপগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদে ইউপি চেয়ারম্যান রাশেদুল কবির রাজুর সভাপতিত্বে আলোচনা বক্তব্য রাখেন নবাবগঞ্জ থানা পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত মো. শামছুল ।

পার্বতীপুর (দিনাজপুর) : পার্বতীপুরে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন রোধে এক আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন মডেল থানার ওসি মোখলেছুর রহমান।

রাণীশংকৈল (ঠাকুরগাঁও) : রাণীশংকৈল উপজেলায় ১০ টি পয়েন্টে একই সময় সমাবেশের আয়োজন করা হয়েছে। মহিলা ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ তফিল উদ্দীনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন সহকারী পুলিশ সুপার তোফাজ্জল হোসেন।

সরিষাবাড়ী (জামালপুর) : সরিষাবাড়ী থানার এএসআই আবু সামার উপস্থাপনায় সমাবেশে প্রধান আলোচক ছিলেন এস আই মাসুদুর।

শিবগঞ্জ (চাঁপাইনবাবগঞ্জ) : শিবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ শামসুল আলম শাহের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ (সদর সার্কেল) ইকবাল হোছাইন। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাকিব আল-রাব্বি।

সুন্দরগঞ্জ (গাইবান্ধা) : গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে বিট পুলিশিং সমাবেশে মেয়র আব্দুল্লাহ আল- মামুনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন স্থানীয় সাংসদ ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (হেডকোয়ার্টার) আবু খায়ের।

উলিপুর (কুড়িগ্রাম) : কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশের আয়োজনে উপজেলা অডিটোরিয়াম হলে অনুষ্ঠিত সভায় সভাপতিত্ব করেন, উলিপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মোয়াজ্জেম হোসেন। বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা গোলাম হোসেন মন্টু।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ধর্ষণ

২৩ অক্টোবর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ