Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ১০ কার্তিক ১৪২৭, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

যে কোনো পরিস্থিতিতে দায়িত্ব ভুলে যাবেন না

চিকিৎসকদের প্রতি প্রধানমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০০ এএম

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, মানবতার সেবাই একজন চিকিৎসকের প্রথম ও প্রধান কাজ। আশা করি যে কোনো পরিস্থিতিতে আপনারা (চিকিৎসক) আপনাদের দায়িত্ব ভুলে যাবেন না। গতকাল শনিবার বাংলাদেশ অ্যানাস্থেসিওলজিস্টস সোসাইটি আয়োজিত ক্রিটিকাল কেয়ার-২০২০ শীর্ষক প্রথম আন্তর্জাতিক ই-সম্মেলনে এ আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

ভার্চুয়াল এ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার রেকর্ডেড বক্তব্যে বলেন, চিকিৎসা একটি মহান পেশা। একজন অসুস্থ মানুষের সেবা করে একজন চিকিৎসক মূলত মানবতার সেবা করেন। সুতরাং আপনি যখন ডাক্তার হবেন, আপনার প্রথম ও প্রধান কাজ হবে মানবতার সেবা করা। আশা করি যে কোনো পরিস্থিতিতে আপনারা আপনাদের দায়িত্ব ভুলে যাবেন না। করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় সরকারের প্রচেষ্টার সঙ্গে চিকিৎসকসহ সকল স্বাস্থ্যকর্মীদের শ্রম ও ত্যাগের কথা তুলে ধরেন।

শেখ হাসিনা বলেন, আমাদের প্রচেষ্টা এবং চিকিৎসকসহ স্বাস্থ্যকর্মীদের কঠোর পরিশ্রমই পারে বাংলাদেশে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে। আমাদের সৌভাগ্য বাংলাদেশে করোনা সংক্রমণ এবং মৃত্যুহার দুটোই কম। আশা করি আগামী দিনগুলোতে এই মহামারির আরও বিস্তার রোধ করতে আমরা সক্ষম হবো। কোভিড-১৯ মোকাবিলায় জরুরিভিত্তিতে ২ হাজার চিকিৎসক এবং ৫ হাজার নার্সসহ মেডিক্যাল টেকনোলজিস্ট নিয়োগসহ সরকারের নেওয়া বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। করোনা মহামারি মোকাবিলায় দায়িত্ব পালনকালে অ্যানাস্থেসিওলজিস্টসহ উল্লেখ্যযোগ্য চিকিৎসক করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী তাদের ত্যাগের কথা স্মরণ করেন এবং তাদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা ও স্বজন হারানো পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশের স্বাস্থ্যসেবা উন্নত করতে আমার সরকার সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়েছে। স্বাস্থ্যসেবা পাওয়া মানুষের মৌলিক অধিকার। তাই আমরা শয্যা সংখ্যা বাড়িয়ে, ডাক্তার ও অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োগসহ আধুনিক যন্ত্রপাতি সংযোজনসহ চিকিৎসারসেবা সম্প্রসারণ করেছি। গত কয়েক বছরে আমরা দেশে বেশ কয়েকটি নতুন বিশেষায়িত হাসপাতাল স্থাপন করেছি। আমাদের শক্তিশালী বেসরকারি সেক্টরও চিকিৎসাসেবা প্রদানে এগিয়ে এসেছে। গ্রামের মানুষকে প্রাথমিক চিকিৎসাসেবা প্রদানে আমরা প্রায় ১৮ হাজার কমিউনিটি ক্লিনিক ও ইউনিয়ন স্বাস্থ্যকেন্দ্র করেছি। সেখানে ৩০ প্রকার ওষুধ বিনামূল্যে সরবরাহ করছে সরকার।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, সার্জারির আগে, চলাকালীন সময়ে ও পরে রোগীদের পেরিওপারেটিভ যত্মের সঙ্গে অ্যানাস্থেসিওলজির বিষয়ে সর্বত্রই বিশেষ মনোযোগ বাড়ছে। এর কারণ এর আওতায় এনেস্থেসিয়া, নিবিড় যত্মের ওষুধ, ক্রিটিক্যাল জরুরি ওষুধ ও ব্যথার ওষুধ। বাংলাদেশেও এর ব্যতিক্রম নয়। আমরা তাদের অবদানকে যথাযথভাবে স্বীকৃতি দেব। সংকটাপন্ন রোগীদের ম্যানেজমেন্টের পাশাপাশি অ্যানাস্থেসিওলজিস্টরা অপারেশন থিয়েটারে খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন। কোভিড-১৯ মহামারিতে আমাদের অ্যানাস্থেসিওলজিস্টসরা আইসিইউতে এবং আইসিইউর বাইরের কোভিড-১৯ রোগী ম্যানেজমেন্টে দুর্দান্ত কাজ করে চলছেন। গুরুতর রোগীদের সেবায় সর্বশেষ জ্ঞান ও প্রযুক্তি দিয়ে নিজেদের প্রস্তুত রাখতে অ্যানাস্থেসিওলজিস্টসদের প্রতি অনুরোধ জানান তিনি। বাংলাদেশে অ্যানাস্থেসিওলজিস্টস সোসাইটির ভূমিকার প্রশংসা করেন।

শেখ হাসিনা বলেন, বাংলাদেশে অ্যানাস্থেসিওলজিস্টস সোসাইটি কোভিড আইসিইউ ম্যানেজমেন্টে জাতীয় নির্দেশিকা প্রস্তুত করতে সহায়তা করেছে। তারা সারাদেশে আইসিইউ সেবা কার্যক্রম সম্প্রসারণ এবং করোনা রোগী ম্যানেজমেন্টে আইসিইউ ডাক্তার এবং স্টাফদের প্রশিক্ষণ দিয়েছে।



 

Show all comments
  • Maruf Mondal ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৪৯ এএম says : 1
    মমতাময়ী মা। আমার শ্রদ্ধাভাজন ব্যক্তি। মা আপনাকে আল্লাহতাআলা সুস্থতা রাখুক সব সময় আমিন।
    Total Reply(0) Reply
  • Mizan Rahman ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫০ এএম says : 0
    শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণ ঘোষণা এখন সময়ের দাবি।বঙ্গবন্ধুর শিক্ষা দর্শন বাসতবায়ন করতে হলে অবিলম্বে শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণ ঘোষণা করুন।
    Total Reply(0) Reply
  • Delowar Hasan ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫০ এএম says : 0
    মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনার দৃষ্টি কামনা করি কারো ইচ্ছের বিরুদ্ধে গিয়ে জোর পূর্বক ভাবে শারীরিক সম্পর্ক করা হলে সেটাকে ধর্ষিত বলা হয় এবং আসামিকে আইনের আওতায় এনে ধর্ষনের সর্বোচ্চ শাস্তি প্রদান করার জোর দাবী জানাই! কিন্তু যারা প্রেমের সম্পর্ক থাকাকালীন দু'জনের ইচ্ছেতেই শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলেন এবং পরবর্তীতে সম্পর্ক নষ্ট হয়ে যাওয়ার পর ধর্ষন মামলার আসামি বানিয়ে মামলা করেন আমি তাদের বিপক্ষে? কেনো না বিয়ের প্রলোভন দেখানোর দ্বায়ে শারীরিক সম্পর্ক করা ছেলেটিকে যদি ধর্ষন মামলার আসামি হয়ে জেলে যেতে হয়। তাহলে বিয়ের লোভে পড়ে শারীরিক সম্পর্ক করা মেয়েটিকেও তো শাস্তির আওতায় আনা উচিত? আইন তো নারী/পুরুষ উভয়ের জন্যই সমান.....
    Total Reply(0) Reply
  • Abdur Rahman ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫১ এএম says : 1
    আপনার মত সবাই হলে দেশটা অনেক অাগে পরিবর্তন হয়ে যেত!
    Total Reply(0) Reply
  • Ataur Hossain ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫১ এএম says : 1
    সুন্দর বাস্তব বলেছেন আপা আল্লাহ ভরসা
    Total Reply(0) Reply
  • মোহাম্মদ আলী ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫১ এএম says : 1
    যতদিন জননেত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার হাতে দেশ, পথ হারাবেনা বাংলাদেশ
    Total Reply(0) Reply
  • Rashidul Islam ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫২ এএম says : 1
    বাংলার মানুষের আস্থা ও ভালবাসার ঠিকানা, বাংলাদেশের উন্নয়নের রূপকার প্রিয় মমতাময়ী নেত্রী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনাকে আল্লাহপাক সুস্থ ও নেক হায়াত দান করেন।
    Total Reply(0) Reply
  • Abdur Razzak ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫২ এএম says : 0
    ক্ষুধা ও দারিদ্র মুক্ত বাংলাদেশ নির্মানে অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন জাতির জনকের কন্যা। আপনার সুদক্ষ ও দূরদর্শী নেতৃত্বে এগিয়ে যাচ্ছে দেশ। ধন্যবাদ ১৬ কোটি বাঙালির সফল রাষ্ট্র নায়ক।
    Total Reply(0) Reply
  • Shariful Islam Pinu ১৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৫৩ এএম says : 1
    We Are Proud Of Our Honorable Prime Minister....Joy Bangla joy Bongobondhu
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: প্রধানমন্ত্রী

২১ অক্টোবর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন