Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৬ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

বিশ্বনাথে রবিউলের খুনিদের গ্রেফতার চায় জনতা

বিশ্বনাথ (সিলেট) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২১ অক্টোবর, ২০২০, ৩:৩৮ পিএম

নিরপরাধ শিশু মাদরাসা ছাত্র রবিউল ইসলাম (১২) খুনিদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে প্রতিবাদ মুখর হয়ে উঠেছে সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলা। সিলেটের আলোচিত রায়হান হত্যার ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই খুন হয় বিশ্বনাথের শিশু রবিউল। রবিউলের খুনিদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবিতে রাজ পথে এখন জনতা। বুধবার দুপুরে বিশ্বনাথ থানা গেইটের সামনে বাসিয়া ব্রীজে উপরে উপজেলার সর্বস্থরের জন সাধারণ এক প্রতিবাদ ও মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করেছে। প্রচন্ড প্রখর রোদ্র অপেক্ষা করে শত শত জনতা শিশু রবিউলে খুনি কেন ধরা পড়ছেনা জানতে চায় তারা। মানববন্ধনে গ্রামের সহজ সরল রবিউলের মার কান্না ও আর্তনাদে ভিন্ন পরিবেশ সৃস্টি করে মানববন্ধন এলাকা। তিনি পুত্র হত্যার বিচার দাবি করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিকট।

প্রবীণ সাংবাদিক ও সাম্যবাদি কবি সাইদুর রহমান সাঈদের সভাপতিত্বে ও সংগঠক আবদুস সালাম জুনেদের পরিচালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, রামপাশা ইউ/পি চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ আলমগীর হোসেন, লতিফিয়া ইরশাদিয়া দাখিল মাদ্রাসার সুপার মাওলানা ইছহাক হোসাইন, ইউপি সদস্য আনিছুজ্জামান খান, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আতিকুর রহমান, যুবলীগ নেতা আবুল কাহার, শালীস ব্যক্তিত্ব অবিরণ চন্দ্র বাবু, সংগঠক সিরাজ মিয়াসহ প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, গত ১৩ অক্টোবর সকালে রামপাশা ইউনিয়নের রহমান নগর (নওধার) গ্রামের কৃষক আকবর ছেলে ও স্থানীয় লতিফিয়া ইরশাদিয়া দাখিল মাদ্রাসার ৩য় শ্রেণির ছাত্র রবিউল ইসলামের লাশ একটি ডুবা থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। রবিউল নিখোঁজ হওয়ার পর থানার একটি ডিজি করা হয়েছিল। সাথে সাথে ঘটনাটি তদন্ত করলে হয়তো রবিউলকে জীবিত উদ্ধ:ার করা সম্ভব হতো। কিন্তু গরিবের কপালে যা হয় তাই হয়েছে। অবুঝ শিশু রবিউল একটি গরু পা কাটার ঘটনা দেখে শালিস বিচারে স্বাক্ষী দেয়ায় তার জীবন প্রদীপ নিবিয়ে দেয় প্রতিপক্ষ। এ ঘটনায় রবিউলের মামা বাদি হয়ে ৭জনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ মাজেদা নামের এক মহিলাকে গ্রেফতার করেছে। কিন্তু ঘটনায় জড়িত খুনিরা আশপাশে ঘুরাফেরা করলেও ধরা পড়েনি। কারন রবিউল ছিল অসহায় পরিবারের সন্তান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মানববন্ধন

১ ডিসেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ