Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে দুর্গার প্রতিমা ভাঙচুর, পূনঃ নির্মাণে অনুদান

ফরিদপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২১ অক্টোবর, ২০২০, ৫:৫২ পিএম

দূর্গাপূজার শুরুর আগেই ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে একটি মন্ডপের দূর্গা প্রতিমা ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার রাতে উপজেলার সাতৈর ইউনিয়নের কুন্ডু রামদিয়া গ্রামের কর্মকারপাড়ায় এ ঘটনাটি ঘটে। পুলিশ এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

এ ঘটনায় বুধবার মন্দির কমিটির সাধারণ সম্পাদক মিনাল কর্মকার বাদি হয়ে নয়ন শেখ (১৮) নামের এক তরুণকে প্রধান আসামি করে অজ্ঞাত আরো ৪/৫ জনের নামে মামলা করেছেন। মামলা নম্বর ১১।
বুধবার দুপুরে প্রতিমা পূনঃ নির্মাণের জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঝোটন চন্দ পরিষদের তহবিল থেকে ১০ হাজার টাকা ও উপজেলা পূজা উদর্যাপন পরিষদের সভাপতি শ্যামল সাহা ৫ হাজার টাকা মন্দির কমিটিকে অনুদান দিয়েছেন।
পুলিশ ও সরেজমিনে সূত্রে জানা গেছে, প্রতি বছরের ন্যায় এবছরও কুন্ডু রামদিয়া কর্মকারপাড়া সার্বজনীন মন্দিরে টিনের বেড়া দিয়ে একটি অস্থায়ী দূর্গা মন্ডপ নির্মাণ করে পূজার আয়োজন করে।
রাতেই বোয়ালমারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ঝোটন চন্দ, মধুখালী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো.আনিসুজ্জামান, থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আমিনুর রহমান, ইউপি চেয়ারম্যান মজিবর রহমানসহ উপজেলা পূজা উদর্যাপন কমিটির নেতৃবৃন্দ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
এ ব্যাপারে উপজেলা মন্দির কমিটির সাধারণ সম্পাদক মৃণাল কর্মকার জানান, মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে স্থানীয় কয়েকজন তরুণকে এ এলাকায় ঘুরতে দেখি। কিছুক্ষণ পরেই মন্দিরের মা দূর্গার মাথা ও সরস্বতি প্রতিমার হাত ভেঙ্গে ফেলা হয়। ঘটনার সাথে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেন তিনি।
এ ব্যাপারে বোয়ালমারী থানা অফিসার ইনচার্জ মো.আমিনুর রহমান জানান, খবর পেয়েই ওই রাতেই পুলিশ রামদিয়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে প্রতিমা ভাঙচুরের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে কুন্ডু রামদিয়া গ্রামের গাউজ শেখের ছেলে নয়ন শেখ (২০) ও ছিরু মৃধা ছেলে রাজু মৃধা (২৬) নামে দুইজনকে আটক করে। তিনি বলেন, এ ঘটনায় ওই মন্দির কমিটির সাধারণ সম্পাদক মৃণাল কর্মকার বাদি হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: অনুদান


আরও
আরও পড়ুন