Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

মেসি-ফাতির রেকর্ডে রঙিন বার্সা

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২২ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০১ এএম

আক্রমণাত্মক ফুটবলের পসরা সাজিয়ে ফেরেন্সভারোসকে উড়িয়ে দিয়েছে বার্সেলোনা। প্রত্যাশিত জয়ে রোনাল্ড কোমানের দল উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে করেছে শুভ স‚চনা। নজরকাড়া পারফরম্যান্স উপহার দেওয়ার পাশাপাশি বেশ কিছু রেকর্ডও গড়েছেন কাতালান দলটির তারকারা। সেই তালিকাতে আছেন বার্সা অধিনায়ক লিওনেল মেসি এবং দুই তরুণ ফরোয়ার্ড আনসু ফাতি ও পেদ্রি।
গতপরশু রাতে ‘জি’ গ্রুপের ম্যাচে সহজ প্রতিপক্ষের বিপক্ষে ৫-১ গোলের বড় ব্যবধানে জিতেছে বার্সেলোনা। যদিও জেরার্দ পিকে লাল কার্ড দেখায় শেষের অনেকটা সময় তাদেরকে একজন কম নিয়ে খেলতে হয়। ঘরের মাঠ ক্যাম্প ন্যুতে বার্সার পাঁচটি গোল এসেছে পাঁচজন আলাদা খেলোয়াড়ের কাছ থেকে। একবার করে লক্ষ্যভেদ করেন মেসি, ফাতি, ফিলিপ কৌতিনিহো, পেদ্রি ও উসমান দেম্বেলে। সফরকারীদের হয়ে সান্ত¡নাসূচক গোলটি করেন ইহর খারাতিন।
ম্যাচের ২৭তম মিনিটে মেসির সফল স্পট-কিকে এগিয়ে যায় বার্সেলোনা। ডি-বক্সের মধ্যে তিনি নিজেই ফাউলের শিকার হওয়ায় পেনাল্টির বাঁশি বাজিয়েছিলেন রেফারি। নতুন মৌসুমে এটি তার তৃতীয় গোল এবং তিনটিই এসেছে পেনাল্টি থেকে। এই গোলের মাধ্যমে আরও একবার ফুটবল ইতিহাসের পাতায় ঠাঁই নিয়েছেন বহু রেকর্ডের রূপকার মেসি। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের টানা ১৬ মৌসুমে গোল করার অনন্য কীর্তি এখন তার।
ইউরোপের সেরা ক্লাব আসরে সবমিলিয়ে ১৬ মৌসুমে গোল করার রেকর্ড আছে আরও একজনের। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সাবেক তারকা রায়ান গিগসের। তবে তিনি মেসির মতো টানা ১৬ মৌসুমে গোলদাতাদের তালিকায় নাম ওঠাতে পারেননি। ৩৩ বছর বয়সী মেসি চ্যাম্পিয়ন্স লিগে নিজের প্রথম গোলটি করেছিলেন প্যানাথিনাইকোসের বিপক্ষে। ২০০৫ সালের নভেম্বরে। সেদিন গ্রিসের ক্লাবটির বিপক্ষে বার্সেলোনা জিতেছিল ৫-০ গোলে। তবে সবাইকে ছাপিয়ে অন্য আরেক রেকর্ডে শুধুই মেসির নাম। ভিন্ন ভিন্ন ৩৬টি ক্লাবের বিপক্ষে জালের দেখা পেয়েছেন সময়ের সেরা তারকা।
গিনি-বিসাউয়ে জন্ম নেওয়া স্প্যানিশ উইঙ্গার ফাতির সঙ্গে রেকর্ডের যেন মেলবন্ধন রয়েছে! গত বছর আগস্টে সর্বোচ্চ পর্যায়ের ফুটবলে অভিষেকের পর থেকে ক্লাব ও জাতীয় দল মিলিয়ে অন্তত ছয়টি রেকর্ড গড়া হয়ে গিয়েছিল তার। হাঙ্গেরির ফেরেন্সভারোসের বিপক্ষে আরও একটি রেকর্ডে নাম লিখিয়েছেন তিনি। প্রথম ফুটবলার হিসেবে ১৮ বছর পূর্ণ হওয়ার আগে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ তো বটেই, ইউরোপিয়ান ক্লাব প্রতিযোগিতায় একাধিক গোল করার কীর্তি গড়েছেন তিনি।
ম্যাচের ৪২তম মিনিটে জালের ঠিকানা খুঁজে নেন দারুণ সম্ভাবনাময় ফাতি। ফ্রেঙ্কি ডি ইয়ংয়ের উঁচু করে বাড়ানো বলে অফসাইডের ফাঁদ ভেঙে ডি-বক্সে ঢুকে ভলি মারেন তিনি। বলে-পায়ে ঠিকমতো সংযোগ না ঘটলেও বল পৌঁছায় জালে। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে এটি তার দ্বিতীয় গোল। তার প্রথম গোলটি এসেছিল গত মৌসুমের গ্রুপ পর্বে, ইন্টার মিলানের বিপক্ষে। সান সিরোতে বার্সার ২-১ গোলের জয়ে ব্যবধান তৈরি করে দিয়েছিলেন তিনি।
চলতি অক্টোবর মাসের ৩১ তারিখে ১৮ বছর পূর্ণ হবে ফাতির। এর প্রায় এক মাস পর তার স্বদেশি পেদ্রি পেরিয়ে যাবেন ১৮। আর দ্বিতীয়ার্ধে ফাতির বদলি হিসেবে মাঠ নেমে তিনিও ফেরেন্সভারোসের গোলরক্ষককে পরাস্ত করার সুযোগ পেয়ে হাতছাড়া করেননি। এতে আরেকটি রেকর্ড নিজেদের করে নিয়েছে বার্সেলোনা। একই ম্যাচে দুজন টিনএজারকে (১৮ বছরের কম বয়সী খেলোয়াড়) লক্ষ্যভেদ করতে এই প্রথম দেখল চ্যাম্পিয়ন্স লিগ।
গেল মৌসুমে এই প্রতিযোগিতার শেষটা বার্সার জন্য হয়েছিল দুঃস্বপ্নের মতো। লিসবনে এক লেগের কোয়ার্টার ফাইনালে বায়ার্ন মিউনিখের কাছে ৮-২ গোলে হেরেছিল তারা। সেই বিব্রতকর ফল পেছনে ফেলে এবার মেসি-ফাতিদের শুরুটা হয়েছে চমৎকার। তাই ম্যাচ শেষে স্বস্তিও ঝরেছে কোমানের কণ্ঠে, ‘আমাদের আক্রমণভাগের খেলোয়াড়রা ভালো খেলছে এবং কোচ হিসেবে এটাই সবচেয়ে বড় পাওয়া। আমি মনে করি, আমরা দেখিয়েছি যে, আমাদের লাইনআপের সামনের দিকে দারুণ সব খেলোয়াড় আছে।’
তবে এই ম্যাচেও একটি দুঃসংবাদ আছে বার্সার জন্য। লাল কার্ড পাওয়া অভিজ্ঞ ডিফেন্ডার পিকেকে আগামী ২৮ অক্টোবর গ্রুপ পর্বে দ্বিতীয় ম্যাচে জুভেন্টাসের বিপক্ষে পাবে না পাঁচবারের চ্যাম্পিয়নরা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বার্সা

৪ সেপ্টেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন