Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০, ১২ কার্তিক ১৪২৭, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

দূর্দান্ত জয়ে সিরিজ ড্র পাকিস্তানের

প্রকাশের সময় : ১৫ আগস্ট, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্পোর্টস ডেস্ক : ভিতটা আগেই গড়ে দিয়েছিলেন ইউনিস খান। ক্যারিয়ারের ৬ষ্ঠ ডাবলসে প্রথম ইনিংসে রান পাহাড়ে চড়ে পাকিস্তান (৫৪২)। সেই পথটিকে পরে আরো দুরুহ করে তোলেন ইয়াসির শাহ। এই স্পিনারের ঘূর্ণিতে (৫/৭১) দ্বিতীয় ইনিংসে ২৫৩ রানেই গুটিয়ে যায় স্বাগতিকরা। ইংল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৮১ রানের ইনিংস খেলেন বেয়ারস্টো। কেনিংটন ওভাল টেস্ট জয়ের জন্য পাওয়া মামুলি লক্ষ্য কোন উইকেট না হারিয়েই টপকে যায় পাকিস্তান। ৪০ রানের ছোট পুঁজি নিয়ে খুব একটা লড়াই করার সুযোগ ছিল না ইংল্যান্ডেরও। ৪ ওভার বল করেন ক্রিস ওকস। দুই বল করেই হ্যামস্ট্রিংয়ের চোট নিয়ে মাঠ ছাড়েন স্টিভেন ফিন। অ্যালেস্টার কুক আক্রমণেই আনেননি নতুন বলের দুই বোলার জেমস অ্যান্ডারসন ও স্টুয়ার্ট ব্রডকে। তবে সময়খেপন ছাড়া তা কোন কাজে আসেনি। আজহার আলি ও সামি আসলাম ১৩.১ ওভারেই পাকিস্তানকে এনে দেন কাক্সিক্ষত জয়। দুই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান উপহার দিয়েছেন ১০ উইকেটের জয়। ছক্কা হাঁকিয়ে ম্যাচ শেষ করা আজহার অপরাজিত থাকেন ৩০ রানে। সামি ১২ রানে। এই নিয়ে টেস্টে ১৩টি দশ উইকেটের জয় উদযাপন করলো পাকিস্তান। যার চারটিই ইংল্যান্ডের বিপক্ষে।
ইংল্যান্ডের সঙ্গে টেস্ট সিরিজটি ২-২ সমতা নিয়ে শেষ করেছে সফরকারীরা। ম্যান অব দ্য ম্যাচ হন ইউনুস খান, ম্যান অব দ্য সিরিজের পুরস্কার ওঠে পাকিস্তান অধিনায়ক মিসবাহ-উল-হকের হাতে আর ম্যান অব দ্য সিরিজ হন ইংল্যান্ডের ক্রিস ওকস।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: দূর্দান্ত জয়ে সিরিজ ড্র পাকিস্তানের
আরও পড়ুন