Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

গোপালগঞ্জে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৪

গোপালগঞ্জ থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৪ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০১ এএম

গোপালগঞ্জে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিশুসহ ৪ জন নিহত হয়েছে। কাশিয়ানী, মুকসুদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত র্কমর্কতা ও সদর উপজেলার গোপীনাথপুর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক এসব ঘটনা জানিয়েছেন।
গোপালগঞ্জরে কাশিয়ানীতে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের পাশের গাছের সাথে ধাক্কা লেগে শাহিন মোল্লা নামে এক প্রাইভেটকার চালক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় প্রাইভেটকারের দুই যাত্রী আহত হয়েছেন। গতকাল শুক্রবার সকাল ৭টার দিকে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের কাশিয়ানী উপজেলার ধূসর ব্রিজের কাছে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিহত শাহিন মোল্লা ফরিদপুর জেলার ভাঙ্গা উপজেলার আতালিয়া গ্রামের আয়ুব আলী মোল্লার ছেলে। আহত নন্দন দত্ত ও কার্ত্তিক মন্ডলকে গোপালগঞ্জ জেনারলে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
কাশিয়ানী থানার ভারপ্রাপ্ত র্কমর্কতা (ওসি) মো. আজিজুর রহমান জানিয়েছেন, সকালে প্রাইভেটকারে করে ফরিদপুর জেলার ভাঙ্গা থেকে নন্দন দত্ত ও কার্ত্তিক মন্ডল নামে দুই ব্যক্তি খুলনা যাচ্ছিলেন। তাদের প্রাইভেটকারটি ধূসর ব্রিজের কাছে পৌঁছালে চালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশের রেইনট্রির সঙ্গে ধাক্কা লাগে। এতে প্রাইভেটকারটি দুমড়ে মুচড়ে গিয়ে চালকসহ ৩ জন আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে কাশিয়ানী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পর প্রাইভেটকার চালকের মৃত্যু হয়। পরে আহত নন্দন ও কার্ত্তিক গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তিনি আরো জানান, শাহিনের লাশ তার স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
এদিকে, শুক্রবার দুপুরে গোপালগঞ্জ সদর উপজলোর গোপিনাথপুর এলাকায় একটি পিকআপ ভ্যান নিয়ন্ত্রন হারিয়ে রাস্তার পাশের একটি ঘরের মধ্যে ঢুকে পড়ে। এতে ঘরের মধ্যে থাকা দুই ভাই বোন কে চাপা দেয় পিকআপটি। মারাত্মক আহত তাসফিয়া খানম ঘটনাস্থলেই নিহত হয়। এ সময় তার ভাই রাব্বি সিকদার আহত হয়। তাকে গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালেভর্তি করা হয়। পিকআপটি ভাঙ্গা থেকে গোপালগঞ্জ সদরের দিকে আসছিল বলে গোপিনাথপুর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক আবু নাঈম জানিয়েছেন।
অন্যদিকে, গত বৃহস্পতিবার রাতে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের মুকসুদপুর উপজেলার কলেজ মোড়ে মাইক্রোবাস চাপায় খুশি বেগম নামে এক নারী নিহত হয়েছেন। নিহত খুশি বেগমের বাড়ি জেলার মুকসুদপুর উপজেলার প্রভাকরদী গ্রামে।
মুকসুদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত র্কমর্কতা (ওসি) মো. আবু বকর মিয়া জানিয়েছেন, রাতে মুকসুদপুর উপজেলার কলেজ মোড় এলাকায় রাস্তা পারাপার হচ্ছিলেন খুশি বেগম। এ সময় দ্রæতগামী মাইক্রোবাস তাকে চাপা দিলে মারাত্মক আহত হন তিনি। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে মুকসুদপুর উপজেলা হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

 

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সড়ক

৫ ডিসেম্বর, ২০২০
৩ ডিসেম্বর, ২০২০
২ ডিসেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন