Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৩ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

সালাম নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যকারী ঢাবির সেই শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৭ পিএম

‘মুসলিমদের আসসালামু আলাইকুম এবং আল্লাহ হাফেজ বলার মাধ্যমে জঙ্গিবাদ বিস্তার ঘটাচ্ছে’ এমন বক্তব্যের জন্য ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাধতত্ত্ব বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক জিয়া রহমানের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়েছে।

আজ রোববার সকালে বাংলাদেশ সাইবার ট্রাইব্যুনালে মামলাটি দায়েরের আবেদন করেন মাসিক আল বাইয়্যিনাত ও দৈনিক আল ইহসানের সম্পাদক মুহম্মদ মাহবুব আলম। বিচারক আসসামছ জগলুল হোসেনের আদালতে এ মামলা দায়ের করা হয়।

বাদীপক্ষের আইনজীবী মুহাম্মদ হুজ্জাতুল ইসলাম খান আলফেসানী এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি জানান, মামলার আবেদন জমা দেওয়া হয়েছে। কিছুক্ষণের মধ্যে এ বিষয়ে শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, ‘আসসালামু আলাইকুম’ বলা ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে গর্হিত, নিন্দনীয়, জঘন্য ব্যাখ্যা করেন অধ্যাপক জিয়া রহমান। এসবকে জঙ্গিবাদের সঙ্গে সম্পৃক্ত করেন তিনি।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি ‘ডিবিসি নিউজ’ টেলিভিশন চ্যানেলের ‘উপসংহার’ নামক টক শোতে ‘ধর্মের অপব্যাখ্যায় জঙ্গিবাদ’বিষয়ক আলোচনায় মুসলিমদের শুদ্ধ উচ্চারণে ‘আসসালামু আলাইকুম’ বলা ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে গর্হিত, নিন্দনীয়, জঘন্য ব্যাখ্যা করেন অধ্যাপক জিয়া রহমান।



 

Show all comments
  • Nadim ahmed ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৩:০০ পিএম says : 0
    Please file cases againt him in every district.
    Total Reply(0) Reply
  • md. Ashraful Islam ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ২:২৮ পিএম says : 0
    অধ্যাপক জিয়া রহমানকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি
    Total Reply(1) Reply
    • Md. Yousuf ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ২:৫৫ পিএম says : 0
      অধ্যাপক জিয়া দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি
  • Afzal ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ২:৩১ পিএম says : 0
    This culprit should be brought to justice. He should be removed from all his present positions. He is not against terrorism or terrorist, he is simply anti Islamic. There are few people like him who is always trying to undermine Islam and Muslim and Islam and hurting the feelings of Muslim ummah. Salam came from Quran and Sunnah of our beloved prophet (s). Salam is for peace. culprits dare to speak against Salam and Allah Hafiz. I would request the administration to take appropriate step against him and also request the Muslims ummah to speak out collectively against these culprits .
    Total Reply(0) Reply
  • AHM Babar Siddiui ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৫:১৪ পিএম says : 0
    এ তো শয়তানের দোসর
    Total Reply(0) Reply
  • AHM Babar Siddiui ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৫:২৪ পিএম says : 0
    এ তো শয়তানের দোসর, কিছু দিন হেসে নাউ, বহুত কানতে হবে
    Total Reply(0) Reply
  • ABU ABDULLAH ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৩:২৩ পিএম says : 0
    এই কমবখত এর কাছে রাম রাম বলা শুভনীয় কাজ এই শয়তান কে দেশ হইতে বের করে দেওয়া হউক
    Total Reply(0) Reply
  • করিম ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৪:৫১ পিএম says : 0
    নাস্তিকেরা জানে যে হাজার বছর সাধনা করেও একজন ওমর খৈয়াম বা একজন ইবনে খালদুন হওয়া যাবে না।তাই সংক্ষেপে ইসলাম কে অবমাননা করলে রাতারাতি বিখ্যাত হওয়া যায়। তাই নাস্তিক জিয়া সেই পথই বেচে নিলেন। কিন্তু পরকালে কঠিন আজাব এদের জনয অপেক্ষামান।
    Total Reply(0) Reply
  • Ahmed Nazir ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৭:৩৫ পিএম says : 0
    Salam ki orthe bebohar hoi ta na janle kono hindu ba khristan theke proffessor namdhari ta jene nite paren
    Total Reply(0) Reply
  • Khalil Rahman ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৮:১৭ পিএম says : 0
    মানুষ রুপের ছাগলটাকে ঘাস খাওয়ানো হউক
    Total Reply(0) Reply
  • DIDARUL ALAM ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ৮:৩৬ পিএম says : 0
    অধ্যাপক জিয়া রহমানকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি
    Total Reply(0) Reply
  • হাসান ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ১০:০৩ পিএম says : 0
    Islam means peace. Basically real and actual peace can be achieved only through the practice of Islamic principles. And the Westerns and others have directly or indirectly adopted their peace formulas' basics from Islam. It's well known to everyone who have deeply studied the bases of Western peace initiatives and formulas. So any move against Islam is move against real and actual peace, and move in favour of promotion of chaos, crimes and corruptions on earth and in the respective land directly or indirectly or one way or other. Therefore, they should be and must be brought to justice.
    Total Reply(0) Reply
  • জাকারিয়া, ইরাক ২৬ অক্টোবর, ২০২০, ৮:৩৮ এএম says : 0
    এই শয়তান শিক্ষক কে চাকুরী থেকে বহিস্কার করা হক এবং বিচারের আওতায় এনে তার জিহ্বা কেটে দেওয়া হক। নাস্তিক মুরতাদ গুলো কে যে কোন মা পেটে ধরছিল???
    Total Reply(0) Reply
  • জাকারিয়া, ইরাক ২৬ অক্টোবর, ২০২০, ১২:২৯ পিএম says : 0
    এই শয়তান শিক্ষক কে চাকুরী থেকে বহিস্কার করা হক এবং বিচারের আওতায় এনে তার জিহ্বা কেটে দেওয়া হক। নাস্তিক মুরতাদ গুলো কে যে কোন মা পেটে ধরছিল???
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ