Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৩ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

প্রিয়জন হারানোর শোক যখন শক্তি

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৬ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০১ এএম


শুক্রবার সন্ধ্যায় বাবার মৃত্যুর খবর পেলেন মানদিপ সিং, পরদিনই তিনি মাঠে নেমে গেলেন আইপিএলের ম্যাচ খেলতে। কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের এই ব্যাটসম্যানের এই পেশাদারীত্ব ছুঁয়ে গেছে অনেককেই। প্রশংসা করেছেন শচিন টেন্ডুলকার পর্যন্ত। অনেক দিন থেকেই রোগে ভুগছিলেন মানদিপের বাবা। চন্ডিগড়ের একটি হাসপাতালে তিনি মারা যান শুক্রবার। দুবাইয়ে পরদিন সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিপক্ষে পাঞ্জাবের ইনিংস শুরু করেন মানদিপ। ১৪ বলে ১৭ রান করেন তিনি। তার বাবার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে হাতে কালো ফিতা পরে মাঠে নামে পাঞ্জাবের ক্রিকেটাররা। ম্যাচটি জিতেও নেয় প্রীতি জিনতার দল। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৭ উইকেটে ১২৬ রান তোলে পাঞ্জাব। ছোট রান তাড়া করতে নেমে আর্শদ্বীপ সিং আর ক্রিস জর্ডানের বলে মাত্র ১১৪ রানেই গুটিয়ে যায় হায়দরাবাদ।

প্রিয়জনকে হারানোর শোক সামলে মাঠে নামার ঘটনা ছিল দিনের প্রথম ম্যাচেও। শ্বশুরের মৃত্যুর খবর জেনে মাঠে নেমে কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে ৫৩ বলে ৮১ রানের ইনিংস খেলেন নিতিশ রানা। ইনিংসটি তিনি উৎসর্গ করেন প্রয়াত শ্বশুরকে। ইনিংসটি বিফলে যায়নি তারও। এই ঝড়ো ব্যাটিংরে পুঁজিতে ৬ উইকেটে ১৯৬ রান তোলে কলকাতা। জবাবে শেষ পর্যন্ত ১৩৫ রান তুলতে পারে দিল্লি ক্যাপিটালস।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই দুই ক্রিকেটারের প্রশংসা করেন অনেকেই। টেন্ডুলকারের টুইটে উঠে এলো দুজনের কথাই, ‘প্রিয়জনকে হারানো সবসময়ই কষ্টের। সেটি আরও বেশি যন্ত্রণার যখন শেষ বিদায়ও বলা যায় না। মানদিপ ও নিতিশের পরিবারের জন্য প্রার্থনা যেন শোক সামলে উঠতে পারে। ওদেরকে কুর্নিশ মাঠে নামার জন্য।’

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: শক্তি

১৬ জানুয়ারি, ২০২০
১৫ জানুয়ারি, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন