Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৩ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

কাশ্মীরের পর্যবেক্ষণে জাতিসংঘের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান ভারতের

প্রকাশের সময় : ১৬ আগস্ট, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : জম্মু-কাশ্মীরে চলমান সহিংস পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে জাতিসংঘের মানবাধিকার কমিশন ইউএনএইচসিআরের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছে ভারত। গতকাল (সোমবার) টাইমস অব ইন্ডিয়া এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। ইউএনএইচসিআরের আবেদন প্রত্যাখ্যানের ব্যাখ্যায় ভারতের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এরই মধ্যে অভ্যন্তরীণ মানবাধিকার প্যানেল জম্মু-কাশ্মীরে কাজ শুরু করেছে। পার্লামেন্ট এবং সুপ্রিমকোর্টের মতো প্রতিষ্ঠানগুলোও সামগ্রিক বিষয় নিয়ে আলোচনা করেছে। তাই এখন কাশ্মীরে ইউএনএইচসিআর টিমের পরিদর্শনের কোনো প্রয়োজন নেই। গত ৮ জুলাই সেনা ও পুলিশের বিশেষ বাহিনীর যৌথ অভিযানে হিজবুল কমান্ডার বুরহান ওয়ানি নিহত হয়। স্বাধীনতাকামী নেতা বুরহানের নিহতের খবর ছড়িয়ে পড়লে কাশ্মীর জুড়ে উত্তেজনা বাড়তে থাকে। চলমান সংঘর্ষে এ পর্যন্ত নিহতের সংখ্যা অর্ধশত ছাড়িয়েছে। কাশ্মীরের পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে সম্প্রতি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ ইউএনএইচসিআরের প্রধান জেইদ রা’দ আল হুসেইনের কাছে চিঠি লেখেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে ইউএনএইচসিআরের পক্ষে কাশ্মীরের মানবাধিকার পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণের জন্য ভারত সরকারের অনুমতি চেয়ে চিঠি লেখা হয়। চিঠিটি পাওয়ার পর সর্বদলীয় বৈঠকে বিষয়টি উপস্থাপন করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। বৈঠকে নেতারা ইউএনএইচসিআরের এ প্রস্তাব প্রত্যাখ্যানের পক্ষে রায় দেন। সিপিএমের সাধারণ সম্পাদক সিতারাম ইয়েচুরি ইউএনএইচসিআরের পরিবর্তে কাশ্মীরে সরকারের নিজস্ব মানবাধিকার কর্মীদের
পাঠানোর পরামর্শ দিয়েছেন। টাইমস অব ইন্ডিয়া।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কাশ্মীরের পর্যবেক্ষণে জাতিসংঘের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান ভারতের
আরও পড়ুন