Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১২ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

প্রচারের শেষ সপ্তাহে মরিয়া ট্রাম্প-বাইডেন

আগাম ভোটের রেকর্ড

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০০ এএম

আগামী ৩ নভেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে ট্রাম্প ও বাইডেন ভোটারদের মন জয় করতে উঠেপড়ে লেগেছেন। এদিকে, করোনাভাইরাসের তান্ডব সত্তে¡ও ইতিমধ্যে রেকর্ড সংখ্যক ভোট পড়তে যাচ্ছে বলে জানা গেছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আর মোটামুটি এক সপ্তাহ বাকি। ৩ নভেম্বরের আগে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও তার প্রতিদ্ব›দ্বী জো বাইডেন গতকাল থেকে আরও জোরালো প্রচার শুরু করছেন। এরই মধ্যে ডাকযোগে বিপুল সংখ্যক ভোট পড়লেও বিশেষ করে মনস্থির করে উঠতে পারেন নি, এমন ভোটারদের মন জয় করতে জোরালো চেষ্টা করছেন দুই প্রার্থী। ডাকযোগে ভোটের প্রবণতা সার্বিক ভোটদানের উপর দেখা গেলে গত একশো’ বছরে সবচেয়ে বেশি মানুষ তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন বলে পূর্বাভাষ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

যে সব রাজ্যে সাফল্যের উপর নির্বাচনে জয় নির্ভর করবে, সেগুলিকে বাড়তি গুরুত্ব দিচ্ছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। গতকাল তিনি পেনসিলভেনিয়া রাজ্যে প্রচার চালান। চলতি সপ্তাহে মিশিগান, উইসকনসিন, নেব্রাস্কা, অ্যারিজোনা ও নেভাদা রাজ্যও সফর করবেন। অন্যদিকে বাইডেন ডেলাওয়্যার রাজ্যে নিজের ঘাঁটি আগলে সেখান থেকেই প্রচারে মনোযোগ দিচ্ছেন। আজ তিনি জর্জিয়ায় প্রচার চালাবেন। দক্ষিণের রক্ষণশীল রাজ্যগুলিতে সমর্থন আদায় করতে তিনি বিশেষ উদ্যোগ নিচ্ছেন। জনমত সমীক্ষায় দেশজুড়ে এগিয়ে থাকলেও ফ্লোরিডা ও পেনসিলভ্যানিয়ার মতো ‘সুইং স্টেট’-কেও তিনি অবহেলা করছেন না। আজ মঙ্গলবার তিনি অরল্যান্ডো শহরে সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার সঙ্গে এক জনসভায় ভাষণ দেবেন।

এদিকে বিশ্বের অন্য অনেক প্রান্তের মতো অ্যামেরিকায়ও করোনা ভাইরাস মহামারি মারাত্মক আকার ধারণ করছে। প্রায় প্রতিদিনই সংক্রমণের রেকর্ড ভেঙে অনেক মানুষ আক্রান্ত হচ্ছেন। শনিবার প্রায় ৯০ হাজার মানুষ সংক্রমণের শিকার হয়েছেন। এখন পর্যন্ত প্রায় দুই লাখ ২৫ হাজার মানুষ করোনা ভাইরাসের কারণে মারা গেছেন। দপ্তরের একাধিক ব্যক্তি করোনায় আক্রান্ত হওয়া সত্তে¡ও ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স প্রচার অভিযান চালিয়ে যাচ্ছেন। হোয়াইট হাউসের চিফ অফ স্টাফ মার্ক মেডোস রোববার বলেন, ট্রাম্প প্রশাসন মহামারি নিয়ন্ত্রণ করবে না। তার বদলে ভ্যাকসিন ও ওষুধের উপর বেশি জোর দেয়া হচ্ছে।

ট্রাম্প ভাইরাস মোকাবিলায় অগ্রগতির দাবি করলেও ডোমোক্র্যাটিক দলের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বাইডেন তার বিরুদ্ধে করোনার কাছে আত্মসমর্পণের অভিযোগ করেছেন। তিনি বলেন, ট্রাম্প শিবির আমেরিকার মানুষের সুরক্ষার মৌলিক দায়িত্বও ত্যাগ করেছে। বাইডেন এ প্রসঙ্গে মেডোস-এর মন্তব্যের উল্লেখ করেন। তার মতে, ট্রাম্প প্রশাসন শুরু থেকেই হাল ছেড়ে দিয়ে এই বিপদ উপেক্ষা করে এসেছে। তাদের আশা ছিল, করোনা ভাইরাস নিজে থেকে চলে যাবে। অথচ বাস্তবে তেমনটা ঘটে নি। ক্ষমতায় এলে বাইডেন দেশের সব মানুষের জন্য বিনামূল্যে করোনা ভাইরাসের টিকার ব্যবস্থার প্রতিশ্রæতি দিয়েছেন। ট্রাম্প শিবিরও বাইডেনকে অশীতিপর হিসেবে তুলে ধরে তার শারীরিক দুর্বলতার একটা চিত্র তুলে ধরছে। ৭৭ বছর বয়সি বাইডেন প্রচারের ধকল সহ্য করতে না পেরে গত বৃহস্পতিবারের বিতর্কের আগে পাঁচ দিন বিরতি নিয়েছিলেন বলে ট্রাম্প টিম দাবি করছে।

অন্যদিকে, করোনা-কালে ভোটর আগেই ভোট দিতে আগ্রহ দেখা যাচ্ছে আমেরিকার ভোটারদের মধ্যে। শনিবার রাত পর্যন্ত পাওয়া তথ্য অনুযায়ী পাঁচ কোটি ৩০ লাখ মানুষ ভোট দিয়ে দিয়েছেন। এর মধ্যে ফ্লোরিডা এবং টেক্সাসের ভোটারের সংখ্যা সব চেয়ে বেশি। পোস্টে অথবা কেন্দ্রে গিয়ে অধিকাংশ মানুষ আগাম ভোট দিয়ে এসেছেন। বিশেষজ্ঞদের বক্তব্য, যত দিন যাচ্ছে, আগাম ভোট দেওয়ার প্রবণতা তত বাড়ছে। গত দুই দশকে আগাম ভোটের পরিমাণ প্রায় পাঁচ গুণ বেড়েছে। তবে করোনা-কালে আগাম ভোটের সংখ্যা রেকর্ড বৃদ্ধি পেয়েছে। ভোটের এখনো এক সপ্তাহ বাকি, এখনই ২০১৬ সালের আগাম ভোটের রেকর্ড ছাড়িয়ে গিয়েছে।

আগাম ভোট এবং পোস্টাল ব্যালট নিয়ে অবশ্য বহু দিন থেকেই বিতর্ক শুরু করেছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। তার বক্তব্য, এর ফলে কারচুপির যথেষ্ট সম্ভাবনা আছে। প্রথম প্রেসিডেনশিয়াল বিতর্কেও এ প্রসঙ্গে বিতর্কিত মন্তব্য করেছিলেন ট্রাম্প। এমনকী, দাবি করেছিলেন, আগাম ভোট এবং পোস্টাল ভোট বেশি পড়লে ভোটের ফলাফল নাও মানতে পারেন তিনি। যদিও তিনি নিজেই আগাম ভোট দিয়ে এসেছেন। আগাম ভোটের পরিসংখ্যান দেখে মার্কিন নির্বাচন বিশেষজ্ঞদের একাংশের বক্তব্য, এ বছর রেকর্ড সংখ্যক ভোট পড়তে পারে। বিভিন্ন রাজ্যে যে পরিমাণ আগাম ভোট পড়ছে, তা ২০১৬ সালের মোট ভোটের ৩০-৪০ শতাংশ পর্যন্ত পৌঁছে গিয়েছে। সূত্র : রয়টার্স, স্কাই নিউজ।



 

Show all comments
  • Bithi Akhter ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ২:১৩ এএম says : 0
    এই নির্বাচনে কে জয়ী হবে তা তো সবাই জেনে গিয়েছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Ashek Alahi ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ২:১৪ এএম says : 0
    ট্রাম্প একটা মেন্টাল
    Total Reply(0) Reply
  • Zillur Rahaman ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ২:১৫ এএম says : 0
    শেষ হোক ট্রাম্প যুগের, সুচনা হোক জো বাইডেন যুগের। অবসান হোক ট্রাম্পের বর্ণবাদসহ নানা হুমকি ধামকি। তবে একটা কথা মনে রাখা দরকার আমরা যাই বা যার পক্ষেই বলিনা কেন, ওদের খুটি কিন্ত ওদের পররাষ্ট্র নীতি। এর বাইরে এরা একচুলও চলে না। ইহুদি প্রীতি ও স্বার্থ ওদের মূল কুটনীতি।
    Total Reply(0) Reply
  • Gautam Roy ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ২:১৫ এএম says : 0
    বাংলাদেশে যদি বর্তমান আর বিরোধী প্রার্থীর মধ্যে এমন আলোচনা হত তাহলে কিযে অবস্থার সৃষ্টি হত। এখানে যেমন ট্রাম্পের কথা বার্তা হাস্যকর মনে হচ্ছে কিন্তু তার সমর্থকগোষ্ঠী কিন্তু বিশাল। কারণ সব দেশেই ক্ষেত জনগণে ভরা।
    Total Reply(0) Reply
  • Hasib Khan ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ২:১৫ এএম says : 0
    আমি মনেকরি ট্রাম্প মন্দের ভালো। অনন্ত তার কলারে পূর্বসূরি বুশ/ওবামার চেয়ে রক্তের দাগ কম। বুশের শাসনামলে আফগানিস্তান ও ইরাকে যুদ্ধ বাজিয়ে দেশ দুটিকে ধ্বংস করেছে তেমনি ওবামা করেছে লিবিয়া ও সিরিয়াকে। ট্রাম্পের আমলে এরকম যুদ্ধ হয়নি বরং ইরাক ও সিরিয়া থেকে সৈন্য প্রত্যাহার করেছে। তবে ট্রাম্পের আমলেও ইরানের এক জেনারেলকে মেরেছে যা যুদ্ধ পরিস্থিতি তৈরি করছে। এজন্য তাকে ভালো বলবো না (লংকা যেই যায় হনুমান হয়) তবুও মন্দের ভালো।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মার্কিন


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ