Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২৭ জানুয়ারি ২০২১, ১৩ মাঘ ১৪২৭, ১৩ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

অবৈধ ইহুদি বসতি পরিদর্শনের পরিকল্পনা পম্পেও’র, ফিলিস্তিনে তীব্র বিরোধিতা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ নভেম্বর, ২০২০, ১:০৫ পিএম

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও আসন্ন মধ্যপ্রাচ্য সফরে একটি অবৈধ ইহুদি বসতি পরিদর্শনের যে পরিকল্পনা করেছেন তার তীব্র বিরোধিতা করেছে ফিলিস্তিন। ফিলিস্তিন স্বশাসন কর্তৃপক্ষের প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মাদ শাতাইয়্যাহ এবং ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন- হামাস পম্পেওর পরিকল্পিত ওই সফরের তীব্র বিরোধিতা করেছে। খবর আল জাজিরার।
মাইক পম্পেও আগামী সপ্তাহে জর্দান নদীর পশ্চিম তীরে ফিলিস্তিনি ভূখণ্ড জবরদখল করে নির্মিত ইহুদি বসতি ‘স্যাগোট’ পরিদর্শন করবেন বলে কথা রয়েছে।
শাতাইয়্যাহ শুক্রবার (১৩ নভেম্বর) পশ্চিম তীরের রামাল্লাহ শহরে সফররত বুলগেরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী একাতেরিনা জাখারিয়েভা’র সঙ্গে সাক্ষাতে বলেন, পম্পেওর পরিকল্পিত সফর অনুষ্ঠিত হলে অবৈধ ইহুদি বসতিগুলোকে বৈধতা দেয়া হবে এবং আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘনের একটি ভয়ঙ্কর উদাহরণ তৈরি হবে।
এই পরিকল্পনা বাস্তবায়িত হলে তা হবে কোনো মার্কিন প্রেসিডেন্টের পক্ষ থেকে প্রথমবারের মতো কোনো অবৈধ ইহুদি বসতি পরিদর্শন।
পম্পেও এমন সময় অবৈধ ইহুদি বসতি পরিদর্শনের পরিকল্পনা নিয়েছেন যখন তার প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প নির্বাচনে পরাজিত হয়েছেন এবং শিগগিরই তাদেরকে ক্ষমতা থেকে সরে দাঁড়াতে হবে
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এখন থেকে এক বছর আগে ঘোষণা করেছিলেন, তার প্রশাসন আর পশ্চিম তীরে ইহুদি বসতি নির্মাণকে আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন বলে মনে করে না।
১৯৬৭ সালের আরব-ইসরাইল যুদ্ধে জর্দান নদীর পশ্চিম তীর ও পূর্ব জেরুজালেম আল-কুদস দখল করে নেয় ইহুদিবাদী ইসরাইল। তখন থেকে এ পর্যন্ত দখলীকৃত ওই ভূখণ্ডে অন্তত ২৩০টি অবৈধ ইহুদি বসতি নির্মাণ করেছে তেল আবিব। এস বসতিতে বর্তমানে ছয় লাখের বেশি ইসরাইলি বসবাস করে। সূত্র : আল জাজিরা



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইহুদি

২৩ আগস্ট, ২০১৬

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ