Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ০৯ মাঘ ১৪২৭, ০৯ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

কারাবাখে তুর্কি সেনা মোতায়েনের দাবিতে বাকুতে বিক্ষোভ

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ নভেম্বর, ২০২০, ১০:৩২ এএম

গত সপ্তাহে আজারবাইজানের প্রেসিডেন্ট ইলহাম আলিয়েভ বলেন, তুরস্ক শান্তিচুক্তির অন্যতম অংশীদার হিসেবে এসব অঞ্চলে শান্তিরক্ষী বাহিনী পাঠাতে পারবে।

এদিকে সদ্য দখলমুক্ত নাগার্নো-কারাবাখে রাশিয়ান সেনা মোতায়নের বিরোধিতা করে আজারবাইজানের রাজধানী বাকুতে বিক্ষোভ হয়েছে।

বিক্ষোভকারীরা “রাশিয়া চলে যাও, তুরস্ক থাকো!” শ্লোগান দিয়ে আজারবাইজান সরকারকে রাশিয়ান শান্তিরক্ষীদের সরিয়ে দিয়ে তাদের স্থলে তুরস্কের সেনাবাহিনী মোতায়নের আহ্বান জানিয়েছে।

এসময় বিক্ষোভকারীদের হাতে তুরস্ক, প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান ও তুর্কি সেনাবাহিনীর পক্ষে প্ল্যাকার্ড এবং পোস্টার দেখা গেছে।

এদিকে মঙ্গলবার তুরস্কের পাল্টামেন্টে শান্তিরক্ষী বাহিনী পাঠানোর ব্যাপারে বিল পাস হয়েছে।

বিলে যুদ্ধবিরতি বাস্তবায়ন পর্যবেক্ষণ করতে আঙ্কারা ও মস্কোর মধ্যে চুক্তির অংশ হিসেবে এক বছরের জন্য তুর্কি সেনারা এসব অঞ্চলে অবস্থান করার কথা উল্লেখ করা হয়।

বর্তমানে নাগার্নো-কারাবাখ অঞ্চলে দুই হাজারের মতো রাশিয়ান সেনা অবস্থান করছে।

মঙ্গলবার তুরস্কের প্রতিরক্ষামন্ত্রী হুলুসি আকার বলেছেন, তুর্কি ও রাশিয়ান কর্মকর্তারা এখনো এই চুক্তি বাস্তবায়নের লক্ষে কাজ করছেন।

নাগার্নো-কারাবাখ নিয়ে আজারবাইজান ও আর্মেনিয়ার মধ্যে ১৯৯১ সাল থেকে উত্তেজনা চলে আসছে। সর্বশেষ ২৭ সেপ্টেম্বর দুই দেশের মধ্যে যুদ্ধ শুরু হয়েছিল, যেটি ১০ নভেম্বর স্বাক্ষরিত একটি শান্তি চুক্তির মাধ্যমে শেষ হয়েছে।

সূত্র : ডেইলি সাবাহ



 

Show all comments
  • মানারাত ১৯ নভেম্বর, ২০২০, ১১:৫৪ এএম says : 0
    বিক্ষোভকারীদের সাথে আমি একমত।
    Total Reply(0) Reply
  • মেহের আলী ১৯ নভেম্বর, ২০২০, ১১:৫৮ এএম says : 0
    বিক্ষোভ চালিয়ে যান, তুর্কি সেনা মোতায়েন করলে ভালো হয়।
    Total Reply(0) Reply
  • কাজী হাফিজ ১৯ নভেম্বর, ২০২০, ১১:৫৮ এএম says : 0
    রাশিয়ার সৈন্য ফিরিয়ে দিয়ে তুর্কি সেনা নাামতে হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • Kamrul jaman sekh ২১ নভেম্বর, ২০২০, ১:৩১ এএম says : 0
    রাশিয়ার সেনাবাহিনী কারাবাখে আছে থাকবে,রাশিয়া যদি মনে করেন তুর্কি সেনাবাহিনী থাকলে আমাদের কোন আপত্তি নেই, তবেই থাকবে,
    Total Reply(0) Reply
  • Kamrul jaman sekh ২১ নভেম্বর, ২০২০, ১:৩১ এএম says : 0
    রাশিয়ার সেনাবাহিনী কারাবাখে আছে থাকবে,রাশিয়া যদি মনে করেন তুর্কি সেনাবাহিনী থাকলে আমাদের কোন আপত্তি নেই, তবেই থাকবে,
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আর্মেনিয়া-আজারবাইজান


আরও
আরও পড়ুন