Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

শিবপুর ডাক্তারের হাতে লাঞ্ছিত দম্পতি

স্টাফ রিপোর্টার, নরসিংদী : | প্রকাশের সময় : ২২ নভেম্বর, ২০২০, ১২:০০ এএম

৭ মাসের শিশু সন্তানকে চিকিৎসা করাতে গিয়ে ডাক্তারের হাতে লাঞ্ছিত হয়েছেন এক দম্পতি। গতকাল সকালে নরসিংদীর শিবপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ঘটনাটি ঘটেছে। এই কান্ড ঘটিয়েছেন হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. সিরাজ উদ্দিন। লাঞ্ছিত ইলিয়াস ও স্বর্ণা আক্তারের বাড়ি স্থানীয় মাছিমপুরের দত্তেরগাঁও ভিটিপাড়া গ্রামে।

এ ব্যাপারে লাঞ্ছিত দম্পতি তাৎক্ষণিকভাবে ডা. সিরাজ উদ্দিনের বিরুদ্ধে হাসপাতালে কর্তৃপক্ষের কাছে মৌখিক অভিযোগ দায়ের করে। তবে কর্তৃপক্ষ এ ব্যাপারে কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি। ডা. সিরাজ উদ্দিন প্রায় দুই যুগ ধরে এই হাসপাতালে চাকরি করছেন। তার বিরুদ্ধে এর আগেও এ ধরনের বহু অভিযোগ রয়েছে।
লাঞ্ছিত ইলিয়াস সাংবাদিকদের জানান, আমার শিশু সন্তানের চিকিৎসা নিতে এসে শিবপুর সরকারি হাসপাতালের টিকেট নিয়ে সিরাজ উদ্দিন ডাক্তারের কক্ষে জমা দেই। টিকেট জমা দেয়ার সময় রোগীর টিকেট ছিল তিনটা। এক ঘণ্টা অপেক্ষার পরও আমার বাচ্চার সিরিয়াল না আসায় আমি ডাক্তারের কক্ষে গিয়ে দেখি তিনি মোবাইল ফোনে কার সাথে যেন কথা বলছেন। সেসময় কক্ষে দু’জন মহিলাও বসা ছিল। ডাক্তারকে ফোনে কথা বলতে দেখে বলি রোগী দেখানোর জন্য আপনাকে আরো টিকেট এনে দিব? এ কথা বলার সাথে সাথেই ডা. সিরাজ উদ্দিন ক্ষিপ্ত হয়ে আমাকে এলোপাতাড়ি কিল-ঘুষি মারতে থাকে। এতে আমার স্ত্রী বাধা দিলে তাকেও তিনি কিল ঘুষি মারেন। আমাদেরকে চিকিৎসা না দিয়ে জোর করে বের করে দেন।
মারধরের ঘটনা অস্বীকার করে ডা. সিরাজ উদ্দিন বলেন, রোগী দেখতে দেরি হওয়ায় আমার সাথে খারাপ আচরণ করলে উপস্থিত লোকজন তাকে কক্ষ থেকে বের করে দিয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: লাঞ্ছিত-দম্পতি
আরও পড়ুন