Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১, ০৭ মাঘ ১৪২৭, ০৭ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

চবি ছাত্রলীগ সভাপতির বহিষ্কার দাবি

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২২ নভেম্বর, ২০২০, ১১:১২ এএম

নারী কেলেঙ্কারি, মাদক ব্যবসা ও ক্যাম্পাসে ছাত্রীদের উত্যক্ত করার অভিযোগ তুলে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল হক রুবেলকে বহিষ্কারের দাবি জানিয়েছন বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের ২৯১ ছাত্রনেতা।
শনিবার রাতে এক বিবৃতিতে এ দাবি জানান তারা।
এতে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের ২৯১ ছাত্রনেতার নাম রয়েছে। এতে বলা হয়, সম্প্রতি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি নারী কেলেঙ্কারিতে জড়িত হন।
যা বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে। এছাড়া তার বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসা ও ক্যাম্পাসে ছাত্রীদের উত্যক্ত করারও অভিযোগ আছে।
এসব কারণে চবি ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল হক রুবেল শুধু বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগকে কলঙ্কিত করেননি, উপমহাদেশের ঐতিহ্যবাহী ছাত্রসংগঠন ছাত্রলীগকেও কলঙ্কিত করেছেন। এ কারণে তারা সভাপতি রেজাউল হক রুবেলকে বহিষ্কারের দাবি জানান।
বিবৃতিদাতাদের মধ্যে অন্যতম হলেন
ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ইলিয়াস হোসেন, সাবেক অর্থ সম্পাদক এস এম জাহেদুল আওয়াল, সাবেক শিক্ষা ও পাঠচক্র বিষয়ক সম্পাদক আমির সোহেল, উপ-সাহিত্য বিষয়ক সম্পাদক ইমাম উদ্দীন ফয়সাল পারভেজ, ছাত্রলীগ নেতা প্রদীপ চক্রবর্তী দুর্জয়, এইচ এম ইশতিয়াক, মোরশেদুল ইসলাম, মোহাম্মদ পারভেজ, মাহফুজুর রহমান প্রমুখ।

বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ নেতা প্রদীপ চক্রবর্তী দুর্জয় সাংবাদিকদের বলেন, রেজাউল হক রুবেলের বিরুদ্ধে কমিটি হওয়ার আগে থেকেই নানান অভিযোগ রয়েছে। এরমধ্যে অন্যতম মাদক ব্যবসা, ছাত্রী উত্যক্ত ও গাছ কাটা। সম্প্রতি তার নারী কেলেঙ্কারিও ফাঁস হয়েছে। গতকাল তার অনুসারী এক কর্মী অপহরণ মামলায় গ্রেফতারও হয়েছেন। তাই তাকে অবিলম্বে বহিষ্কারের দাবি জানাই।

সাবেক উপ-সাহিত্য বিষয়ক সম্পাদক ইমাম উদ্দীন ফয়সাল পারভেজ বলেন, রেজাউল হক রুবেলের কারণে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ কলঙ্কিত। তাকে বহিষ্কার করে প্রাণের সংগঠনকে রক্ষা করতে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের কাছে আবেদন জানাই।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বহিষ্কার দাবি
আরও পড়ুন