Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ০৯ মাঘ ১৪২৭, ০৯ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

সাত নেতার অস্তিত্ব নিয়ে জল্পনা-কল্পনা

খুলনা নতুন আ.লীগ কমিটি

আবু হেনা মুক্তি : | প্রকাশের সময় : ৫ ডিসেম্বর, ২০২০, ১২:০০ এএম

খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগের নয়া কমিটিতে এক সময়কার রাজপথ কাঁপানো ৭ নেতার অস্তিত্ব নিয়ে জল্পনা-কল্পনা শুরু হয়েছে। সিনিয়র তিন এবং তরুণ চার নেতা ও তাদের সমর্থকেরা রয়েছে দু:শ্চিন্তায়। আলোচিত এই ৭ নেতা এবার খুলনা মহানগর আ.লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটিতে থাকতে পারবে কিনা তা নিয়ে চলছে ব্যাপক আলোচনা সমালোচনা। আবার বিএনপি-জামায়াতের প্রভাবশালী চার কাউন্সিলর থাকছেন এই নয়া কমিটিতে, এমন গুঞ্জন গোটা শহরময়। দলের সাথে সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, খুব শিগগিরি খুলনা মহানগর কমিটি আত্মপ্রকাশ করবে।

আলোচিত সিনিয়র নেতারা হলেন মহানগর আ.লীগের সদ্য বিদায়ী সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক এমপি আলহাজ মিজানুর রহমান মিজান, মহানগর আ.লীগের সাবেক সহ-সভাপতি ও প্যানেল মেয়র আজমল আহমেদ তপন এবং সদ্য বিদায়ী যুবলীগের মহানগর সভাপতি এড. আনিসুর রহমান পপলু।

জনশ্রুতি রয়েছে খুলনা থেকে যে তালিকা দেয়া হয়েছে তাতে এই তিন নেতার নাম নেই। আলহাজ মিজান যুবলীগের কর্মী থেকে ৮০’র দশকে তার উত্থান। যুবলীগ খুলনা মহানগর শাখার আহবায়ক পরে সভাপতি পর্যায়ক্রামে মহানগর আ.লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক, দু’দফায় সাধারণ সম্পাদকের পদে থেকে ২০১৪ তে নির্বাচনে মিজান খুলনা সদর আসনে এমপি নির্বাচিত হন। ২০০৮ সালে তিনি বিএনপি প্রার্থীর কাছে ১৯শ’ ভোটে ব্যবধানে পরাজিত হন।

৩৫ বছর ধরে সরাসরি দলে নানা পদে সক্রিয় থাকা আজমল আহমেদ তপন বর্তমানে ২৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর, সাবেক সদর থানার সভাপতি, খুলনা চেম্বারের সহ-সভাপতি ও আবহনী ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

এড. আনিসুর রহমান পপলু যুবলীগের দীর্ঘদিনের সভাপতি, খুলনা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও সভাপতি ছিলেন। সিটি মেয়র অনুসারী পপলু শহরের অতি পরিচিত মুখ। বিভিন্ন আন্দোলন সংগ্রামের সময় রাজপথে তার ভূমিকা ছিল চোখে পড়ার মত।

এছাড়া আলোচিত চার তরুণ নেতার মধ্যে রয়েছে খুলনা আ.লীগের সাবেক প্রচার সম্পাদক ২৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর জেড এ মাহমুদ ডন, নগর শাখার সাবেক উপ-দপ্তর সম্পাদক হাফেজ শামীম, মহানগর যুবলীগের বিদায়ী সিনিয়র যুগ্মআহবায়ক মনিরুজ্জামান সাগর ও সাবেক ছাত্র নেতা জাহাঙ্গীর আলম। এই চার তরুণ নেতা শহরের অতি পরিচিত মুখ ও রাজনৈতিক অঙ্গনে তাদের ভূমিকা রয়েছে। দলের বিভিন্ন প্রোগ্রামে তারা সব সময় ছিল সরব।
অপরদিকে খুলনা বিএনপি’র সাবেক নেতা বর্তমান কাউন্সিলর শেখ গাউসুল আজম, কাউন্সিলর শেখ হাফিজুর রহমান, সাবেক ভারপ্রাপ্ত মেয়র কাউন্সিলর আনিসুর রহমান বিশ্বাস ও জামায়ত ইসলামী ঘরোনার কাউন্সিলর মোহাম্মাদ শানু মোল্লা এবার আ.লীগের নগর কমিটিতে স্থান পাচ্ছেন বলে শহরময় গুঞ্জন উঠেছে। এই চার প্রভাবশালী কাউন্সিলর ইতোমধ্যে ক্ষমতাসীন দলে যোগদান করেছে।

সূত্র বলছে এবারের কমিটিতে চমক থাকবে। নবীন-প্রবীন সম্বন্বয়ে কমিটি গঠন করা হবে। তবে দীর্ঘ দিনের ত্যাগী সিনিয়র ও তরুন নেতারা কেউ কেউ বাদ পড়তে পারেন বলে আশংকা প্রকাশ করছে তাদের অনুসারীরা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সাত-নেতার-অস্তিত্ব
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ