Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি ২০২১, ০৫ মাঘ ১৪২৭, ০৫ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

গর্বিত ব্রিটেন, মান নিয়ে সন্দেহে যুক্তরাষ্ট্র

ভ্যাকসিন নিয়ে তর্ক-বিতর্ক

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৬ ডিসেম্বর, ২০২০, ১২:০১ এএম

ব্রিটেন কীভাবে করোনাভাইরাস ভ্যাকসিন অনুমোদনের ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে গেল, এনিয়ে তর্ক বিতর্ক জমে উঠেছে ব্রিটিশ এবং আমেরিকান কর্মকর্তাদের মধ্যে। বৃহস্পতিবার এসব ধনী দেশ ভ্যাকসিনের প্রথম চালানের বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ নিয়ে মানদন্ড এবং রাজনীতি উভয়ই দিক থেকেই প্রকাশ্য বিতর্কে জড়িয়ে পড়ে যখন ব্রিটেনের শিক্ষাসচিব গ্যাভিন উইলিয়ামসন মন্তব্য করেন যে, ব্রিটেন প্রথম সম্পূর্ণ পরীক্ষিত করোনভাইরাস ভ্যাকসিন অনুমোদনের প্রতিযোগিতায় জিতেছে কারণ এর নীতিনির্ধারকরা উচ্চমানের ছিল। তিনি বলেন, ‘আমরা অবশ্যই সর্বোত্তম মেডিকেল রেগুলেটর পেয়েছি। ফরাসিদের চেয়ে অনেক ভাল। বেলজিয়ানদের চেয়ে অনেক ভাল। আমেরিকানদের চেয়ে অনেক ভালো।’

তবে ব্রিটেনের ভ্যাকসিনের ব্যাপারে যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় অ্যালার্জি এবং সংক্রামক রোগ ইনস্টিটিউটের পরিচালক ড. অ্যা›থনি এস ফাউচিকে কিছুটা সন্দেহপ্রবন বলেই মনে হয়েছে। তিনি উইলিয়ামসের মন্তব্যের জবাবে বলেছেন যে, ব্রিটিশ কর্তৃপক্ষ দ্রুত পদক্ষেপ নিতে পেরেছে কারণ তারা ভ্যাকসিন পরীক্ষার তথ্যগুলি যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ প্রশাসনের মতো সাবধানতার সাথে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেনি। ফাউচি বলেন, ‘আমাদের এফ.ডি.এ. এর মানদন্ড নিয়ামক পদ্ধতির একটি গোল্ডেন স্ট্যান্ডার্ড রয়েছে যা ব্রিটেন সাবধানতার সাথে অনুসরণ করেনি এবং তারা কয়েক দিনের জন্য এগিয়ে গেছে।’

পরে অবশ্য ড. ফাউচি ব্রিটিশ টেলিভিশনে উপস্থিত হয়ে বলেছেন যে, তিনি ক্ষমা চাইতে চান। তিনি বিবিসিকে বলেন, ‘ব্রিটেন যেভাবে কাজ করেছে তাতে কেউ রায় দিচ্ছে না। আমরা কিছুটা ভিন্নভাবে কাজ করি, এই যা- না ভাল, না মন্দ, শুধু ভিন্নরকমভাবে। ফাউচি বলেন যে, তার নিজের দেশে মহামারিটির রাজনীতিকরণের ফলে তাদের প্রতি জনগণের আস্থা হারানোর সম্ভবনা পরিহার করতে তারা ব্রিটিশদের চেয়ে কিছুটা বেশি সতর্কতা অবলম্বন করেছেন। তিনি বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্রে নিরাপদ যোগ্যতা এবং কার্যকারিতার ওপর আস্থা নষ্ট করে দেয়ার মতো যথেষ্ট পরিমাণে অস্থিরতা বিরাজমান রয়েছে।’

মহামারির বিষয়ে ড. ফাউচি বিশ্বের অন্যতম বিখ্যাত মুখ এবং বৃহস্পতিবার আমেরিকানরা বুঝেছে যে, ভ্যাকসিনের অনুমোদনের ক্ষেত্রে খুব শিগগিরই কোনও পরিবর্তন হওয়ার সম্ভাবনা নেই এবং প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত জোসেফ আর বাইডেন জুনিয়র ঘোষণা করেছেন যে, ফাউচি নতুন মার্কিন প্রশাসনে কেন্দ্রীয় ভূমিকা পালন করবেন। সূত্র : দ্য নিউইয়র্ক টাইম্স।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ব্রিটেন

৭ জানুয়ারি, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ