Inqilab Logo

শনিবার, ১৩ আগস্ট ২০২২, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯, ১৪ মুহাররম ১৪৪৪

মধ্যবর্তী নির্বাচনের দাবি আ স ম রবের

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০, ১২:০০ এএম

স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীতেই একাদশ সংসদ ভেঙ্গে দিয়ে মধ্যবর্তী নির্বাচনের দাবি জানিয়েছেন জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের সভাপতি (জেএসডি) সভাপতি আ স ম আবদুর রব। গতকাল দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ৩০ ডিসেম্বরকে ‘গণতন্ত্র হত্যা’ দিবস উল্লেখ করে আয়োজিত আলোচনা সভায় এ দাবি জানান তিনি।
আলোচনা সভায় ভার্চুয়ালি উপস্থিত থেকে আ স ম রব বলেন, স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীতেই জনগণের সম্মতিবিহীন একাদশ সংসদ ভেঙ্গে দিয়ে মধ্যবর্তী নির্বাচনের আয়োজন করতে হবে। এটাই হবে দেশবাসীর জন্য সুবর্ণ জয়ন্তীর সুখবর। জনগণের সমর্থন সম্মতি ও রায়ের ভিত্তিতে ১৯৭১ সালে দেশ পরিচালনার দায়িত্ব অর্পণ করা হয়েছিল। সুতরাং স্বাধীনতার ৫০ বছর উদযাপন হবে জনগণের স্বতঃস্ফূর্ত অভিপ্রায়ের মাধ্যমে গঠিত বৈধ সরকার দ্বারা।
তিনি বলেন, জনগণের ভোটাধিকারের মর্যাদা রক্ষার জন্য সশস্ত্র লড়াই সম্পন্ন করতে হয়েছে এবং অগণিত মানুষের প্রাণ বলিদান দিতে হয়েছে। জনগণের অংশগ্রহণমূলক গণতান্ত্রিক শাসনব্যবস্থা ছাড়া কোন শাসন ব্যবস্থাই বৈধতা পেতে পারে না। স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী এবং বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে আমাদের সকলের দায়িত্ব হচ্ছে ৭১ এর মুক্তিযুদ্ধের চেতনাভিত্তিক রাষ্ট্রপরিচালনার লক্ষ্য-উদ্দেশ্যের প্রশ্নে জাতীয় ঐক্যমত্য স্থাপন করা। প্রজাতন্ত্রের মালিকানা হচ্ছে জনগণের। জনগণের ইচ্ছা অভিপ্রায় অনুযায়ী সরকার গঠিত হবে, অন্য কোন পন্থায় নয়। রাষ্ট্রপরিচালনা হবে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় অন্য কারো উদ্ভাবিত নির্দেশনায় নয়। স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী› ও ‹বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী›তে জাতিকে একাত্তরের চেতনায় ঐক্যবদ্ধ করার জন্য পাঁচ দফা প্রস্তাবনা উত্থাপন করেছেন আ স ম রব।
পাঁচ দফা প্রস্তাবনাগুলো হচ্ছে, একাদশ জাতীয় সংসদ ভেঙে দেয়া, জাতীয় ঐক্য মতের ভিত্তিতে ‘জাতীয় সরকার’ গঠন করা, নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন করা, সুষ্ঠু অবাধ নিরপেক্ষ ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করা এবং গণতান্ত্রিক প্রগতিশীল রাজনৈতিক দল, শ্রেণি পেশার সংগঠনসহ ঐক্যবদ্ধভাবে স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী ও বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন করা।
আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, জেএসডির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট ছানোয়ার হোসেন তালুকদার, কার্যকরী সভাপতি সা কা ম আনিছুর রহমান খান কামাল, মোহাম্মদ সিরাজ মিয়া, সহ-সভাপতি মিসেস তানিয়া রব, এডভোকেট কে এম জাবির, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক এস এম আনছার উদ্দিন, এডভোকেট সৈয়দ বেলায়েত হোসেন বেলাল, সাংগঠনিক সম্পাদক মোশারফ হোসেন, এস এম সামছুল আলম নিক্সন, এম এ ইউসুফ, দপ্তর সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আবুল মোবারক, প্রচার সম্পাদক মোশাররফ হোসেন, প্রশাসনিক যোগাযোগ বিষয়ক সম্পাদক হাজী মোঃ আখতার হোসেন ভূঁইয়া, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার ফারাহ খান প্রমুখ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আ স ম রব


আরও
আরও পড়ুন