Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ০৪ মাঘ ১৪২৭, ০৪ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

কলাপাড়ায় পৌর নির্বাচনী মাঠ সরগরম হয়ে উঠছে

কাউন্সিলর ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ১৭ জনের মনোনয়ন পত্র দাখিল

কলাপাড়া (পটুয়াখালী) সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৪ জানুয়ারি, ২০২১, ৭:৩০ পিএম

পটুয়াখালীর কলাপাড়া পৌর সভা নির্বাচনী মাঠ সরগরম হয়ে উঠেতে শুরু করেছে। তৃতীয় ধাপে ইভিএম পদ্ধতিতে আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারী ভোট গ্রহণ হবে। নির্বাচন কমিশনের ঘোষণা অনুযায়ী আগামী ১৭ জানুয়ারী প্রার্থীদের মনোনয়ন পত্র দাখিলের শেষ সময়। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত সাধারণ কাউন্সিলর পদে ১২ জন এবং সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর হিসেবে ৫ জন উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো.আবদুর রশিদের কাছে মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছেন।

উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৪১ জন ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ১০ জন ফরম সংগ্রহ করেছেন। এর মধ্যে পৌর শহরের প্রাণ কেন্দ্র দুই নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বীটা করার জন্য মো. হুমায়ূন কবির, চার নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য এ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন সোহাগ, সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য শুভ্রা চক্রবর্তী, মোসাঃ মনোয়ারা বেগম সহ ১৭ জন মনোনয়ন পত্র দাখিল করেন। মনোনয়ন পত্র দাখিলের মাধ্যমে পৌর শহরের অলিতে গলিতে এবং চায়ের আড্ডায় জমে উঠেছে যোগ্য প্রার্থীদের নিয়ে আলোচনা পর্যালোচনা। তবে মেয়র পদে এখন পর্যন্ত আওয়ামী লীগ, বিএনপি কিংবা স্বতন্ত্র প্রার্থীর কেউই মনোনয়ন পত্র দাখিল করেননি বলে জানা গেছে।

আওয়ামী লীগ দলীয় সূত্রে জানা গেছে, পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি ও বর্তমান মেয়র বিপুল চন্দ্র হাওলাদারকে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ এর দলীয় প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে।

এদিকে বিএনপি থেকে উপজেলা বিএনপিসাধারণ সম্পাদক ও সাবেক পৌর মেয়র আলহাজ্ব হুমায়ুন শিকদার দলীয় প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে বলে স্থানীয় বিএনপি’র সূত্রে জানা গেছে।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো.আবদুর রশিদ বলেন, মেয়র পদে বিপুল চন্দ্র হাওলাদার, আলহাজ্ব হুমায়ুন শিকদার, কামরুজ্জামান ও দিদারুদ্দিন আহম্মেদ মাসুম ফরম সংগ্রহ করলেও তারা এখন পর্যন্ত দাখিল করেনি। তবে এ বছর কলাপাড়া পৌর শহরের ৯টি ওয়ার্ডের ১২ হাজার ৮৯১ জন ভোটার আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারী তাদের ভোটাধিকার ইভিএম পদ্ধতিতে প্রয়োগ করবেন বলে তিনি সাংবাদিকদের জানিয়েছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পটুয়াখালী


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ