Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ০২ মার্চ ২০২১, ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭, ১৭ রজব ১৪৪২ হিজরী

দুনিয়া ও আখেরাতে মঙ্গল চাইলে ইসলামের সুশীতল ছায়াতলে আসতে হবে -চরমোনাই পীর

চাঁদপুরে তিন দিনব্যাপী মাহফিলের আখেরি মোনাজাতে দেশবাসী ও মুসলিম উম্মার জন্য দোয়া

স্টাফ রিপোর্টার, চাঁদপুর থেকে | প্রকাশের সময় : ১৮ জানুয়ারি, ২০২১, ২:৫৮ পিএম

চরমোনাইর মাহফিলের নমুনায় চাঁদপুরে তিন দিনব্যাপী মাহফিলের আখেরী মুনাজাতে কনকনে শীতের মধ্যেও মানুষের ঢল নেমেছে। আখেরি মোনাজাতে দেশবাসী ও মুসলিম উম্মার জন্য বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত করা হয়।

সোমবার সকালে ফজরের নামাজের পর জিকির ও বয়ান শেষ করে দেশবাসী ও মুসলিম উম্মার মঙ্গল কামনায় বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত করা হয়।

কনকনে শীতের মধ্যেও মাহফিল ময়দানে থাকা মুসল্লিদের সাথে আখেরি মোনাজাতে অংশগ্রহণ করতে সকাল থেকে বিভিন্ন এলাকার লোকজন আসতে শুরু করে। মাহফিল ময়দানে ফজরের নামাজ আদায়ের পর বয়ান ও জিকির শেষ করে পীর সাহেব চরমোনাই মুসলিম উম্মার মঙ্গল কামনায় বিশেষ মুনাজাত করেন। দোয়া ও মোনাজাতে মুসল্লিদের কান্নায় ভেঙে পড়েন। আখেরি মোনাজাত শেষে জিকিরের ধ্বনিতে সারা এলাকা মুখরিত হয়ে যায়। ধীরে ধীরে মুসল্লীরা যার যার গন্তব্যস্থলে ছুটতে শুরু করে।

আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই।

তিনি মুনাজাত পূর্ব সংক্ষিপ্ত নসিহতে মুসল্লিও দেশবাসীর উদ্দেশ্যে বলেন, দুনিয়া ও আখেরাতে মঙ্গল চাইলে ইসলামের সুশীতল ছায়াতলে আসতে হবে। একমাত্র ইসলামই পারে সকল সমস্যার সমাধান করতে। তিনি বলেন, আজকে আমাদের সমাজের মানুষগুলো মৃত্যুর কথা ভুলে গেছে। মনে হয় যেন এদের মৃত্যুবরণ করা লাগবে না। তাই যেভাবে খুশি সেভাবে চলাফেরা করছে। কোরআন হাদিস ও সৃষ্টিকর্তার হুকুমের তোয়াক্কা নেই। মানুষের চরিত্র গুলো আজ পশু পাখির চরিত্রের নেয় হয়ে গিয়েছে। আজকে আমরা আল্লাহকে ভুলে গিয়েছি। মৃত্যুর কথা বলে গিয়েছি।

তিনি বলেন, মৃত্যুর কথা বেশি বেশি স্মরণ করে আল্লাহর হুকুম আহকামগুলো মেনে চলতে হবে। তাহলে আমাদের ব্যক্তিজীবনে রাষ্ট্রীয় জীবনে শান্তি ফিরে আসবে। তিনি দেশবাসীকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আসুন আমরা সকল ভেদাভেদ ভুলে মুসলমানরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে আল্লাহ ও আল্লাহর রাসূলের কোরআন সুন্নাহর উপর আমল করি। আল্লাহর আইন বাস্তবায়নে সকলে মিলে কাজ করি। তাহলে দেশের একটি মানুষ এর ধারা কোন অন্যায় কাজ সংঘটিত হবে না। প্রত্যেকটা মানুষ শান্তিতে বসবাস করতে পারবে।

মাহফিল বাস্তবায়ন কমিটির আহ্বায়ক মাওলানা জুবায়ের আহমেদ ও সদস্য সচিব শেখ মোহাম্মদ জয়নাল আবেদীন বলেন, মহান আল্লাহর দরবারে শুকরিয়া আদায় করছি সুশৃংখল সুস্থ-সুন্দর ভাবে আমরা আমাদের আয়োজনকে সম্পন্ন করেছি। আমাদের মাহফিল সুন্দর ভাবে সফল করতে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও এলাকাবাসী সার্বিকভাবে আমাদেরকে সহযোগিতা করেছেন, তাদের প্রতি আমরা কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। মাহফিল সফল করতে পুলিশ প্রশাসন, জেলা প্রশাসন, চাঁদপুর পৌরসভা, সাংবাদিক ও বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ আন্তরিকভাবে সহযোগিতা করেছেন, তাদেরকেও আমরা কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চরমোনাই পীর


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ