Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ০২ মার্চ ২০২১, ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭, ১৭ রজব ১৪৪২ হিজরী

বসুন্ধরা কিংস ও ঢাকা আবাহনী জিতেছে

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৯ জানুয়ারি, ২০২১, ৮:২২ পিএম

ঘরোয়া ফুটবলের মর্যাদাপূর্ণ আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) নিজ নিজ ম্যাচে জিতেছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস ও ঢাকা আবাহনী লিমিটেড। মঙ্গলবার বিকালে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে লিগে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে বসুন্ধরা ২-১ গোলে হারায় বাংলাদেশ পুলিশ এফসি’কে। বিজয়ী দলের হয়ে ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড রবসন ডি সিলভা একাই দু’গোল করেন। পুলিশের পক্ষে এক গোল শোধ দেন আইভরিকোস্টের ডিফেন্ডার ল্যান্সিন তোরে। একই মাঠে সন্ধ্যায় অনুষ্ঠিত দিনের অন্য ম্যাচে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড ২-০ গোলে হারায় ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্লাবকে। আবাহনীর পক্ষে ব্রাজিলের ফরোয়ার্ড ফ্রান্সিসকো তোরেস ও হাইতির ফরোয়ার্ড বেলফোর্ট কারভেন্স একটি করে গোল করেন।

বসুন্ধরা ও পুলিশের মধ্যকার দিনের প্রথম ম্যাচে দু’দলই লড়ে সমানতালে। শুরু থেকে আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলে তারা ম্যাচটিকে উপভোগ্য করে তোলে। ম্যাচের শুরু থেকেই আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণে খেলা চললেও অভিজ্ঞতার অভাবে একাধিক গোলের দেখা পায়নি পুলিশ। তবে তাদের রক্ষণভাগ কিছুটা দুর্বলতা থাকায় ঠিকই দু’গোল আদায় করে নেয় বসুন্ধরা। ম্যাচের ১৬ মিনিটে কিংসের আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড রাউল অস্কার বেসেরার শট পুলিশের গোলরক্ষক মো. নেহাল ছুটে এসে ফিরিয়ে দিলেও পুরোপুরি বিপদমুক্ত করতে পারেননি। ফলে ফিরতি বলে কোনাকুনি শটে গোল করে ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড রবসন ডি সিলভা (১-০)। প্রথমে গোল হজম করে কিন্তু হাল ছেড়ে দেয়নি পুলিশ। ঠিকই চ্যাম্পিয়নদের বিপক্ষে রুখে দাঁড়ায় তারা। ফলে প্রথমার্ধেই ম্যাচে সমতা আনে সার্ভিসেস দলটি। ম্যাচের ৪২ মিনিটে কিরগিজস্তানের মিডফিল্ডার মুরোলিমজম আখমেদভের ফ্রি কিকের বলে হেডে লক্ষ্যভেদ করেন পুলিশের আইভরিকোস্টের ডিফেন্ডার ল্যান্সিন তোরে (১-১)। স্বস্তি নিয়েই বিরতি যাওয়ার অপেক্ষায় যখন শ্রীলঙ্কান কোচ পাকির আলীর দল, ঠিক তখনি বসুন্ধরা দ্বিতীয় গোল আদায় করে নেয়। প্রথমার্ধের যোগকরা সময়ে (৪৫+১ মিনিট) মোহাম্মদ ইব্রাহিমের শট পুলিশের গোলরক্ষক নেহাল ফিস্ট করে ফিরিয়ে দিলেও বক্সের বাইরে বল পান বসুন্ধরার ব্রাজিলিয়ান রবসন ডি সিলভা। তার বাঁকানো শট ঠিকই খুঁজে নেয় জাল (২-১)। এগিয়ে থেকেই বিরতিতে যায় বসুন্ধরা। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে তারা একের পর এক চেষ্টা করেও ব্যবধান বাড়াতে পারেনি। অন্যদিকে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ঢাকা আবাহনীর ঘাম ঝরানো পুলিশ দলও সমতায় ফিরতে না পারায় শেষ পর্যন্ত হারের গøানি নিয়েই মাঠ ছাড়ে। দুই ম্যাচে এটা বসুন্ধরার দ্বিতীয় জয়। অন্য দিকে পুলিশের দ্বিতীয় হার।

মঙ্গলবার একই ভেন্যুতে রাতে অনুষ্ঠিত দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্লাবের বিপক্ষে যোগ্যতর দল হিসেবেই জয় পেয়েছে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড। ম্যাচের শুরু থেকে গোলের জন্য মরিয়া হয়ে লড়ে বেশ কয়েকটি সুযোগ সৃষ্টি করে আবাহনী। যা থেকে দু’টিতে সফল হয় তারা। আবাহনী প্রথম গোলটি পায় পেনাল্টি থেকে। ম্যাচের ৩১ মিনিটে নিজেদের বক্সে ব্রাদার্সের নাইজেরিয়ান ডিফেন্ডার মান্ডে ওসেগি অবৈধভাবে বাধা দেন আবাহনীর রুবেল মিয়াকে। রেফারি ভুবন মোহন তরফদার পেনাল্টির বাঁশি দিলে স্পট কিক থেকে গোল করেন ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড ফ্রান্সিসকো তোরেস (১-০)। ধারাবাহিক আক্রমণের মুখে ৪০ মিনিটে ব্যবধান বাড়ায় আবাহনী। এসময় বক্সের ভেতরে রুবেল মিয়া স্কয়ার পাস দেন। তোরেস ডামি করে ছেড়ে দিলে বল পেয়ে ঠান্ডা মাথায় লক্ষ্যভেদ করেন হাইতিয়ান ফরোয়ার্ড বেলফোর্ট (২-০)। দুই ম্যাচে আবাহনীর এটা দ্বিতীয় জয় হলেও সমান ম্যাচে ব্রাদার্সের দ্বিতীয় হার।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফুটবল

২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১
২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন