Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ০২ মার্চ ২০২১, ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭, ১৭ রজব ১৪৪২ হিজরী

সাজগোজ করতে মার্কিন নারী সেনাদেরকে অনুমতি

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ জানুয়ারি, ২০২১, ৫:৩৭ পিএম

মার্কিন সেনাবাহিনীতে কর্মরত নারীদের জন্য সৌন্দর্য চর্চার নীতি শিথিল করা হয়েছে। এর ফলে তারা এখন থেকে চুল স্টাইল করতে ও নখে রঙ লাগাতে পারবেন।

নতুন নিয়মে নারীদের চুলের জন্য নির্ধারিত ন্যূনতম দৈর্ঘ্য বাতিল করা হয়েছে। আরও শৈলীর জন্য তাদেরকে চুলে বেণী বা খোঁপা করারও অনুমতি দেয়া হয়েছে। এছাড়া নারীরা কানের দুল পড়তে এবং ঠোটে লিপস্টিক লাগাতে পারবেন। তার নখও বড় রাখতে ও তাতে রঙ লাগাতে পারবেন। পুরুষরাও চাইলে নখে স্বচ্ছ নেইলপোলিশ লাগাতে পারবেন।

যুক্তরাষ্ট্রের নারী সেনারা আগে পুরো ন্যাড়া হতে পারতেন না, কিছুটা চুল রাখা বাধ্যতামূলক ছিল। এখন এ বিষয়েও পুরো স্বাধীনতা দেওয়া হয়েছে। তবে কানের দুল এখনও মাঠের পরিবেশে, যুদ্ধরত এলাকা বা এমন জায়গাগুলোতে অনুমোদিত নয় যেখানে সাধারণ স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করা সম্ভব নয়। মার্কিন সেনাবাহিনী তাদের সেনা ইউনিফর্ম ও প্রতিক পরিধান ও উপস্থিতি সম্পর্কিত নীতিমালা ৬৭০-১ এ এই বড় সংশোধনীগুলো ঘোষণা করেছে যা, আগামী ২৪ ফেব্রুয়ারি থেকে কার্যকর হবে। সেনাবাহিনীতে বর্ণবৈষম্য দূর করার প্রচেষ্টা হিসেবে এ পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

এতদিন যুক্তরাষ্ট্রের নারী সেনাদের চুল লম্বা থাকলে গোল করে (বান টাই) বেঁধে রাখতে হতো। এভাবে চুল বাঁধলে হেলমেট পরতে সমস্যা হয় বলে অভিযোগ করেছেন অনেকে। নতুন নিয়মে, নারী সেনারা লম্বা চুল পনিটেইল বা ব্রেইড করেও প্রশিক্ষণ ও অন্য কাজে অংশ নিতে পারবেন। এই আদেশে আফ্রিকান-আমেরিকান নারী সেনারা যে খুশি, তা বলাই বাহুল্য। তারা নিজস্ব ঐতিহ্য অনুসারে চুল ব্রেইড করার অনুমতির দাবি জানাচ্ছিলেন বহুদিন ধরে। এখন মার্কিন নারী সেনারা চাইলে একসঙ্গে দুটো স্টাইলেও (যেমন- ব্রেইড ও টুইস্ট) চুল সাজাতে পারবেন। সূত্র: ফক্স নিউজ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যুক্তরাষ্ট্র


আরও
আরও পড়ুন