Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮ আশ্বিন ১৪২৮, ১৫ সফর ১৪৪৩ হিজরী

হংকংয়ের বাসিন্দাদের জন্য রোববার থেকে ব্রিটেনের বিশেষ ভিসা চালু

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৯ জানুয়ারি, ২০২১, ৮:৩৬ পিএম

চীনের বিশেষায়িত অঞ্চল হংকংয়ের বাসিন্দাদের আগামী রোববার (৩১ জানুয়ারি) থেকে বিশেষ ভিসা দিতে যাচ্ছে ব্রিটেন। সাবেক ঔপনিবেশিক অঞ্চলটিতে ব্রিটেনের পাসপোর্টধারীরা ও তাদের স্বজনরা স্মার্টফোনে অ্যাপ ব্যবহার করে ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবেন। খবর বিবিসি।

এই ভিসার আওতায় হংকং থেকে তিন লাখের বেশি মানুষ ব্রিটেনে যাওয়ার সুযোগ রয়েছে। হংকংয়ে বসবাসরত ব্রিটেন পাসপোর্টধারীদের জন্য যুক্তরাজ্যে থাকার নতুন পথ তৈরি হলো বলে মন্তব্য করেছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। বরিস জানান, ব্রিটেনের সাবেক ঔপনিবেশের ইতিহাস ও বন্ধুত্বের গভীর সম্পর্কের বিষয়টি সম্মানিত করেছে এই পদক্ষেপ। তারা এখন থেকে আমাদের দেশে থাকা ও কাজ দুটোই করতে পারবে।

গত বছর জুলাইয়ে চীন হংকংয়ে নতুন নিরাপত্তা আইন চালুর পর এই ভিসা প্রক্রিয়ার ঘোষণা দিয়েছিল যুক্তরাজ্য। এরপর চীন তাদের ঘরোয়া বিষয়ে যুক্তরাজ্যকে হস্তক্ষেপ না করার ব্যাপারে সতর্ক করে দেয়।

ব্রিটিশ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের হিসাবমতে, গত জুলাই থেকে হংকংয়ের প্রায় ৭ হাজার মানুষ যুক্তরাজ্যে গিয়ে বসবাসের সুযোগ পেয়েছে। তবে তাদের ক্ষেত্রে নতুন ভিসা ব্যবস্থা চালু ছিল না।
বিবিসি জানায়, বিশেষ ভিসায় যারা আবেদন করবেন এবং ভিসা নিশ্চিত করতে পারবেন, তারা পাঁচ বছর পর সেখানে স্থায়ীভাবে বসবাস এবং ১২ বছর পর ব্রিটিশ নাগরিকত্বের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

যদিও হংকংয়ের ২৯ লাখ নাগরিক ও তাদের ২৩ লাখ স্বজন যুক্তরাজ্যে যাওয়ার যোগ্য বলে বিবেচিত, তারপরও ব্রিটিশ সরকার মনে করে, প্রায় তিন লাখ মানুষ প্রথম পাঁচ বছরে নতুন এই সুযোগ লুফে নেবে।

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী জনসন বলেছেন, “নতুন এই ভিসা ব্যবস্থার মধ্য দিয়ে হংকংয়ের বিএনও (ব্রিটিশ ন্যাশনাল ওভারসিজ) পাসপোর্টধারীদের যুক্তরাজ্যে বাস করা, কাজ করা এবং বসতিস্থাপনের সুযোগ দিতে পেরে আমি গর্বিত।”

তবে যুক্তরাজ্যের এই পদেক্ষপকে আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘন ও চীনের অভ্যন্তরীণ ইস্যুতে হস্তক্ষেপ না করার আহ্বান জানিয়েছে বেইজিং। একই সঙ্গে হংকংয়ের বাসিন্দাদের ভিসা ও নাগরিকত্ব না দেওয়ার অনুরোধ জানানো হয়েছে।

গত বছরে তুমুল প্রতিবাদের মুখে হংকং বিতর্কিত নিরাপত্তা আইন পাস করে চীন। এতে বিশেষায়িত অঞ্চলটির ওপর ক্ষমতা প্রয়োগের সুযোগের পথ তৈরি হয় শি জিনপিং সরকারের। তখনই এর প্রতিবাদ জানায় যুক্তরাজ্য।

১৫০ বছর ঔপনিবেশিক শাসনে থাকার পর লিজ চুক্তির মেয়াদ শেষে ১৯৯৭ সালের ১ জুলাই হংকংকে চীনের কাছে ফেরত দেয় যুক্তরাজ্য। তখন থেকে অঞ্চলটি এক দেশ, দুই নীতি পদ্ধতির আওতায় স্বায়ত্তশাসনের মর্যাদা ভোগ করে আসছে। বিশেষ প্রশাসনিক অঞ্চল হিসেবে বিবেচিত হংকংকে ২০৪৭ সাল পর্যন্ত স্বায়ত্তশাসনের নিশ্চয়তা দিয়েছে চীন। এই সময়ে প্রতিরক্ষা ও পররাষ্ট্রনীতি ছাড়া অন্য সব বিষয়ে স্বায়ত্তশাসন ভোগ করতে পারবে অঞ্চলটি। সূত্র : বিবিসি



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যুক্তরাজ্য-হংকং
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ