Inqilab Logo

শনিবার, ২২ জানুয়ারী ২০২২, ০৮ মাঘ ১৪২৮, ১৮ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

রামগঞ্জ পৌরসভায় কাউন্সিলর সমর্থকদের সংঘর্ষে আহত ২৫

লক্ষ্মীপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৩০ জানুয়ারি, ২০২১, ৬:০৬ পিএম

শীত ও করোনার ঝুঁকি উপেক্ষা করে ব্যাপক ভোটার উপস্থিতির মধ্যদিয়ে রামগঞ্জ পৌর নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। আজ শনিবার (৩০ জানুয়ারি) সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোট চলে। বিচ্ছিন্নভাবে দুই/তিনটি কেন্দ্রে সহিংসতা ও জবরদস্তির ঘটনা ঘটলেও সার্বিকভাবে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে নির্বাচন শেষ হয়। রামগঞ্জ পৌরসভার তিনটি ভোট কেন্দ্রে দুই কাউন্সিলর সমর্থকদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এসময় কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকরা রামগঞ্জ-চাটখিল সোনাইমুড়ি সড়কে গাছ ফেলে অবরোধ করে বিক্ষোভ করে। শনিবার দুপুরে পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের কাজিরখিল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্র দখলকে কেন্দ্র করে দুই কাউন্সিলর প্রার্থী আনোয়ার হোসেন জিতু দেওয়ান ও মামুনুর রশিদের সমর্থকদের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এছাড়া ১ নম্বর ওয়ার্ড সোনাপুর ওয়ার্ডের সোনাপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটারদের নিকট থেকে ব্যালট কেড়ে নেয়ার কারনে কামরুল হাসান ফয়সাল মাল ও ডালিম প্রতীকের শাখাওয়াত হোসেন রাজু সমর্থকদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা। পরে বিজিবি সদস্যরা গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এসময় আহত হয়েছে কমপক্ষে ২৫জন। আহতদের রামগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে শতাধিক রাউন্ড গুলি ছুঁড়ে পুলিশ। এর কিছুক্ষন পর টামটা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রেও দুই কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। দফায় দফায় হামলা করা হয় গাজর প্রতীকের প্রার্থী মামুন ভূইয়া সমর্থকদের উপর।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পৌরসভা নির্বাচন


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ