Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ০৬ বৈশাখ ১৪২৮, ০৬ রমজান ১৪৪২ হিজরী

বাংলাদেশ-যুক্তরাজ্য বিনিয়োগ বাড়াতে ১০ ইস্যুতে সম্মত

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:৪১ এএম

যুক্তরাজ্যের সার্ভিস সেক্টরে ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, নার্সসহ দক্ষ বাংলাদেশী পেশাদারদের প্রবেশাধিকারের সুযোগসহ বাণিজ্য ও বিনিয়োগসংক্রান্ত ১০ ইস্যুতে পারস্পরিক সহযোগিতা দিতে একমত হয়েছে দুই দেশ। গতকাল যুক্তরাজ্য ও বাংলাদেশের মধ্যে প্রথমবার অনুষ্ঠিত বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সংলাপে নিজ নিজ দেশের প্রতিনিধিরা এ সম্মতির কথা জানায়। সংলাপে যুক্তরাজ্য সরকারের প্রতিনিধি ছিলেন ঢাকাস্থ হাইকমিশনার রবার্ট চ্যাটারটন ডিকসন এবং বাংলাদেশ সরকারের প্রতিনিধি ছিলেন বাণিজ্য সচিব ড. মো. জাফর উদ্দীন। সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে সংলাপটি অনুষ্ঠিত হয়।


সংলাপে যুক্তরাজ্য-বাংলাদেশের মধ্যে আরা যেসব স্বার্থসংশ্লিষ্ট ইস্যুতে পারস্পরিক সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি রয়েছে সেগুলো হলো এলডিসি থেকে উন্নয়নশীল দেশে বাংলাদেশের উত্তরণে সার্বিক সহযোগিতা, বিদ্যমান বিনিয়োগ উন্নয়ন, বাণিজ্য সহজীকরণ, বিদ্যমান ব্যবসায়িক সুবিধা আরো বাড়ানো, আর্থিক খাত উন্নয়ন, বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের উচ্চ শিক্ষায় যুক্তরাজ্যের সহযোগিতা বৃদ্ধি, করসংক্রান্ত ভার লাঘব এবং মেধাস্বত্বের সুরক্ষা প্রদান। সংলাপ শেষে সহযোগিতা বাড়ানোর কথা জানিয়ে যৌথ বিবৃতি দেয় বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও ব্রিটিশ হাইকমিশন অফিস। এ যৌথ বিবৃতিতে ভবিষ্যতে যুক্তরাজ্য এবং বাংলাদেশের মধ্যে বাণিজ্য অংশীদারিত্ব গড়ে তুলতে জোর দেয়া হয়েছে। একই সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক উন্নয়ন ও সহযোগিতা বাড়াতে যেখানে যে ধরনের পদক্ষেপ দরকার, দুই দেশই তা গ্রহণে প্রস্তুত বলে দাবি করা হয়। ব্রিটিশ হাইকমিশনার বলেন, যুক্তরাজ্য একটি বাণিজ্য ও বিনিয়োগের সম্পর্ক তৈরি করতে বাংলাদেশের সঙ্গে কাজ করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। কারণ বৈদেশিক বিনিয়োগ রাজস্ব আয়, কর্মসংস্থান, দক্ষতা উন্নয়ন ও স্থানান্তরে সহায়ক ভূমিকা রাখে। এটা আমাদের উভয় অর্থনীতির উন্নয়নে সহায়তা করবে। পাশাপাশি এর মাধ্যমে দুই দেশের মধ্যে ব্যবসার একটা অনুকূল পরিবেশ তৈরি হবে, যা বাজারে প্রবেশের বাধা দূর করবে।

বাণিজ্য সচিব ড. জাফর উদ্দীন আশা প্রকাশ করে বলেন, এ সংলাপের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশের পণ্য, পরিষেবা এবং পেশাদারদের যুক্তরাজ্যের বাজারে আরো বেশি প্রবেশের সুযোগ তৈরি হবে। এতে বাংলাদেশে যুক্তরাজ্যের বিনিয়োগ বাড়বে এবং রপ্তানি সম্প্রসারণ হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ