Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ২ বৈশাখ ১৪২৮, ০২ রমজান ১৪৪২ হিজরী

টিকাবিরোধী স্লোগান বিক্ষোভ

অস্ট্রেলিয়ায় গণটিকাদান কর্মসূচি শুরু হচ্ছে আজ

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:০১ এএম

অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসনকে কোভিড-১৯-এর টিকা দেওয়ার মধ্য দিয়ে দেশটিতে রোববার টিকাদান কর্মস‚চির কার্যক্রম শুরু হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ায় আজ সোমবার থেকে গণটিকাদান কর্মস‚চি শুরু হতে যাচ্ছে। সংবাদমাধ্যম বিবিসি এ খবর জানিয়েছে। অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী ফাইজার-বায়োএনটেকের তৈরি করোনার ভ্যাকসিন নিয়েছেন। তার টিকা নেওয়ার প্রক্রিয়াটি টেলিভিশনে সরাসরি সমপ্রচারও করা হয়েছে। বলা হচ্ছে, টিকাবিরোধী মনোভাব ও ভয়ভীতি দ‚র করে আস্থা ফেরাতেই অস্ট্রেলিয়ায় সোমবার থেকে শুরু হতে যাওয়া টিকাদান কর্মস‚চি শুরুর আগের দিন আজ টিকা নিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন। এদিকে, বিশ্বের বিভিন্ন দেশে গণহারে করোনার টিকাদান কর্মস‚চির মধ্যেই ভ্যাকসিন না দেয়ার দাবিতে বিক্ষোভ করেছে অস্ট্রেলিয়াবাসী। শনিবার দিনভর দেশটির মেলবোর্ন, সিডনিসহ প্রধান শহরগুলোতে সরকারের বাধ্যতামূলক টিকা গ্রহণের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ জানাতে রাস্তায় জড়ো হন হাজারো মানুষ। এ সময় ‘আমার শরীর, আমার সিদ্ধান্ত’ স্লোগান তুলে সরকারের টিকা কর্মস‚চির বিরুদ্ধে নিজেদের অবস্থান ব্যক্ত করেন বিক্ষোভকারীরা। করোনা মোকাবিলায় সরকারের ভ্যাকসিন নীতির সমালোচনা করে বিক্ষোভ হয়েছে ফ্রান্সেও। একই দিন রাজধানী প্যারিসে আয়োজিত এ বিক্ষোভে অংশ নেন অন্তত ২০০ ফরাসি। এ সময় কোভিড নিয়ন্ত্রণে লকডাউনসহ অন্যান্য বিধিনিষেধের প্রতিবাদ জানিয়ে অবিলম্বে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা ফিরিয়ে আনতে সরকারের প্রতি আহবানও জানান বিক্ষোভকারীরা। একজন বলেন, ভ্যাকসিন নিয়ে সরকারের কাছ থেকে আমরা আরও স্বচ্ছতা আশা করি। আমি ভ্যাকসিনের বিরুদ্ধে নই, তবে আমি মনে করি, কেবল এই এক ভ্যাকসিন দিয়ে করোনা মোকাবিলা সম্ভব নয়। আন্দোলনে অংশ নেয়া অন্যজন বলেন, বিশ্বব্যাপী এখন অনেক করোনার টিকা রয়েছে। তবে এর একটিও গবেষণার ক্ষেত্রে তার স্বাভাবিক প্রক্রিয়া অনুসরণ করেনি। যেখানে একটি কার্যকর টিকা আবিষ্কারে ১০ থেকে ১২ বছর লেগে যায়, সেখানে কী করে এক বছরেরও কম সময়ে টিকা বাজারে আসে তা আমার কাছে বোধগম্য না। এ ছাড়া সাইপ্রাসে করোনা প্রতিরোধে ব্যর্থতার অভিযোগ এনে দেশটির সরকারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করেছেন সাধারণ মানুষ। এ সময়ম কোভিড নিয়ন্ত্রণে সরকারের দেয়া বিধিনিষেধ ও জনসমাগমে নিষেধাজ্ঞার বিরোধিতা করে সরকারের বিরুদ্ধে দুর্নীতিরও অভিযোগ আনেন বিক্ষোভকারীরা। স্কট মরিসনের পাশাপাশি দেশটির প্রধান নার্স অধ্যাপক অ্যালিসন ম্যাকমিলান করোনার টিকা নিয়েছেন। একই দিনে করোনার টিকা নিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধান মেডিকেল অফিসার পল কেলিও। যদিও অস্ট্রেলিয়ার রাজপথের চিত্র বলছে করোনার টিকায় আস্থা নেই অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকদের একাংশের। অস্ট্রেলিয়ার নিউ সাউথ ওয়েলস অঙ্গরাজ্যের রাজধানী সিডনিতে জড়ো হয়ে হাজারো অসি টিকাদান কর্মস‚চির প্রতি অনাস্থা জানিয়েছেন। করোনাভাইরাস মিডিয়ার তৈরি বলেও অভিযোগ তাঁদের। এ ছাড়া গান গেয়ে আর নেচে প্রতিবাদ জানিয়েছেন কুইন্সল্যান্ডের রাজধানী ব্রিজবেনের অসিরাও। ভ্যাকসিনকে তারা বিষের সঙ্গে তুলনা করেছেন। ভিক্টোরিয়া অঙ্গরাজ্যের রাজধানী মেলবোর্নে টিকাদানবিরোধী সমাবেশ রুখতে মোতায়েন করা হয়েছিল অশ্বারোহী পুলিশ। কয়েকজন বিক্ষোভকারীকে পুলিশ আটকও করেছে। বিবিসি, রয়টার্স।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: টিকা


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ