Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ৪ বৈশাখ ১৪২৮, ০৪ রমজান ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

আমেরিকায় তৃতীয় টিকায় ছাড়পত্র

বিশ্বে সমতা বিধানের আহ্বান ডব্লিউএইচও’র

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:০০ এএম

করোনার তৃতীয় টিকাকে ছাড়পত্র দিল আমেরিকা। জনসন অ্যান্ড জনসনের তৈরি টিকাকে তারা বাজারে নিয়ে আসার অনুমতি দিল। তবে বিশ্বের গরিব দেশগুলিতে যাতে এই টিকা সুলভে পাওয়া যায় সেদিকেও তারা জোর দেবে বলে জানা গেছে। একটি বার্তায় জো বাইডেন জানিয়েছেন, করোনার বিরুদ্ধে লড়াইতে তারা আরো এগিয়ে যেতে চান। ফলে বেশ কয়েকটি টিকা যদি বাজারে থাকে তবে টিকা সহজলভ্য হবে বলে মনে করেন তিনি।

প্রসঙ্গত, করোনার জেরে ইতিমধ্যেই মার্কিন মুলুকে প্রাণ হারিয়েছেন ৫ লাখ ১০ হাজার মানুষ। দীর্ঘমেয়াদি হিসাবে করোনার এই লড়াইকে দেখছে আমেরিকা। তাই তারা কোনো ঢিলেমি দিতে চায় না।

মহামারিকে শিকড় থেকে তুলে দিতে জানে আমেরিকা। আর তারা সেটাই করবে, জানান বাইডেন। মার্কিন এ নীতিকে সমর্থন করেছে ডব্লিউএইচও। তাদের কর্তা ট্রেডস গ্যাব্রিয়াস বলেছেন, বিশ্বের শক্তিশালী এবং বিত্তশালী দেশগুলি যদি টিকা আবিষ্কারে উন্নতি না করে তবে গরিব দেশগুলি কিভাবে মুক্তি লাভ করবে। প্রতিটি বিত্তশালী দেশের উচিত অন্য খাতে খরচ কমিয়ে স্বাস্থ্যখাতে খরচ বাড়ানো। তারা দীর্ঘদিন ধরে ধনী দেশগুলোকে ভ্যাকসিন সমানভাবে ভাগ করে নেয়া নিশ্চিত করার আহ্বান জানিয়ে আসছে। বিশ্ব সংস্থাটি কোভাক্সের অন্যতম সহযাত্রী বিশ্ব সংস্থা এ বছর দরিদ্র ও মধ্যম আয়ের দেশগুলিতে ১শ’ ৩০ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন সরবরাহের লক্ষ্যে কাজ করেছে। তবে এখনও অবধি কোভ্যাক্সের যাত্রা ছিল ধীর গতির।

ডবিøউএইচও মহাপরিচালক বলেন, ‘আমরা ভ্যাকসিনের ন্যায্যতা ছাড়া কোভিডকে পরাস্ত করতে পারি না। ভ্যাকসিনের ইক্যুইটি ব্যতীত আমাদের বিশ্ব পর্যাপ্ত পরিমাণে পুনরুদ্ধার করতে পারবে না, এটি পরিষ্কার, আমরা দুর্দান্ত অগ্রগতি করেছি। তবে সেই অগ্রগতি নাজুক। আমাদের কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন সরবরাহ ও বিতরণ ত্বরান্বিত করা দরকার এবং কিছু দেশ যদি এমন নির্মাতাদের কাছে যোগাযোগ অব্যাহত রাখে যারা কোভ্যাক্স গণনা করছে’।

এসব পদক্ষেপ কোভ্যাক্সকে দুর্বল করে এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের এবং জীবনরক্ষার ভ্যাকসিনগুলির জন্য বিশ্বজুড়ে দুর্বল মানুষকে বঞ্চিত করে’।

করোনাখাতে আমেরিকা ইতিমধ্যেই আরো ১ দশমিক ৯ ট্রিলিয়ন অর্থ বরাদ্দ করেছে। তবে এখানেই থেমে থাকলে হবে না, বিশ্বের গরিব দেশগুলি যাতে সুলভে প্রচুর টিকা পায় সেদিকে নজর রাখাও সকলের দায়িত্ব বলে জানিয়েছে হু। ব্রাজিলে ইতিমধ্যেই ফের নতুন করে মাথাচাড়া দিতে শুরু করেছে করোনার নতুন স্ট্রেন। সেখানে তাই দ্রুত টিকা পৌঁছানোতে জোর দিয়েছে হু। তবে আমেরিকার তৃতীয় এই টিকা বাজারে এলে তা সুলভ মূল্যে পাওয়া যাবে বলেই মনে করে বাইডেন প্রশাসন। সূত্র : সিবিএস সান ফ্রান্সিসকো, ওয়াশিংটন পোস্ট।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ