Inqilab Logo

বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৫ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

হ্যাটট্রিক বিশ্বকাপে চোখ গেইলের

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩ মার্চ, ২০২১, ১২:০০ এএম

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তাকে সবশেষ দেখা গেছে ২০১৯ সালের আগস্টে। তারও প্রায় ছয় মাস আগে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে খেলেছেন টি-টোয়েন্টি। প্রায় দুই বছর পর ক্ষুদ্র ফরম্যাটের এই মহাতারকা আবারও ফিরলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে। ফিরলেন সেই পছন্দের ২০ ওভারের ক্রিকেটেই। ঘরের মাঠে বাংলাদেশ সময় আগামীকাল ভোর থেকে শুরু হতে যাওয়া শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে আবারও মাঠ মাতাতে প্রস্তুত ফ্রাঞ্চাইজি ক্রিকেটে এই ফেরীওয়ালা।
এরই মধ্যে ক্যারিয়ার শোকেসে জ্বলজ্বলে দু-দুটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শিরোপা। তবে এখনও যেন অতৃপ্ত গেইল। আরেকটি বিশ্বকাপ জয়ের সুধা পান করতে চান টি-টোয়েন্টির এই কিংবদন্তি। সেই তাড়না থেকেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে তিনি শুরু করতে যাচ্ছেন ক্যারিয়ারের আরেকটি নতুন অধ্যায়।
লম্বা বিরতিতে তার আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের শেষ দেখে ফেলা লোকের অভাব ছিল না। কিন্তু বয়স ৪১ পেরিয়ে আবার তিনি ফিরেছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে। লঙ্কানদের বিপক্ষে আগামীকাল ভোর থেকে শুরু সিরিজে তাকে দেখা যাবে। তার আগে গতকাল অ্যান্টিগায় সংবাদ সম্মেলনে গেইল জানিয়ে দিলেন তার নতুন শুরুর পেছনে তাড়নার উৎস। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ সামনে রেখে শুরু করেছেন প্রস্তুতি। তবে তার নজর কেবল এই সিরিজেই নেই। অক্টোবর-নভেম্বরে ভারতে হতে যাওয়া আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপটা জিততে মরিয়া ‘ইউনিভার্স বস’।
ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের ৮ ক্রিকেটারের মধ্যে গেইল একজন যিনি ২০১২ ও ২০১৬ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনাল জিতেছেন। ২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এমনটা করতে পারলে তিনটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জেতার অনন্য এক রেকর্ড ঝুলিতে জমা হবে তার। ২০১৯ ওয়ানডে বিশ্বকাপের পর আগাস্ট মাসে ঘরের মাঠে ভারতের বিপক্ষে খেলেছিলেন গেইল। এরপর নানান ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে তাকে ব্যস্ত দেখা গেলেও উইন্ডিজের হয়ে দেখা যায়নি। লম্বা সময় পর ফেরা এই বিস্ফোরক ব্যাটসম্যানের ভাবনা ঘুরছে এখন কেবল দলকে ঘিরেই, ‘আমি জানি ফেরার পর কিছুটা নজর আমার দিকে আসবে। কিন্তু সত্যি আমি এটা চাই না। আমরা দলের দৃষ্টিভঙ্গিতে পুরোটা দেখছি। (কাইরন) পোলার্ড খুব শক্ত অধিনায়ক। আমাদের দলে দারুণ মানসম্মত কিছু খেলোয়াড় আছে। আমি সিরিজটা জিততে চাই। ভালো শুরু এনে দিতে চাই। ফিরতে পারা দারুণ ব্যাপার। আশা করি আমি পারফর্ম করব, দলকে সহায়তা দিয়ে জেতার মতো জায়গায় নিয়ে যাব।’
সামনে শ্রীলঙ্কা সিরিজ। কিন্তু গেইল এই সিরিজকে দেখছেন বিশ্বকাপের পথে একটা পদক্ষেপ হিসেবে, তার মাথায় একটাই লক্ষ্য, ‘সিরিজ জেতাটা উদযাপন করতে চাই কিন্তু বড় বিষয় হলো সামনে। আমি ঝুলিতে তিনটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ পেতে চায়। আমার মাথায় এই লক্ষ্যটাই আছে যে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপটা আবার জিতব। সামনে বেশ কিছু খেলা আছে। এসব সিরিজ থেকে যতটুকু পারি সাফল্য আনতে হবে। বিশ্বকাপের এখনো যদিও কিছুটা দেরি আছে। এই সময়ের মধ্যে ঝিলিক দেওয়া মানে বিশ্বকাপের সময় ঝিলিক দেওয়া। কাজেই আমাদের শক্তিটা ধরে রাখতে হবে, ফিট থাকতে হবে। আমরা কী করতে সক্ষম সেটা দেখাতে তৈরি থাকতে হবে।’
নতুন এই অধ্যায়ে নতুন একটি অভিজ্ঞতাও হতে পারে গেইলের। ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের পুরোটাই তিনি ব্যাট করেছেন ওপেনিংয়ে। এবার তাকে একটু নিচে দেখা যেতে পারে। গত আইপিএল, এবারের পিএসএলে বিধ্বংসী এই ব্যাটসম্যান ঝড় তুলেছেন তিন নম্বরে ব্যাট করে। ক্যারিবিয়ানদের হয়েও এমন কিছু করতে তার আপত্তি নেই। সব পজিশনেই সেরা হতে পারার বিশ্বাস তার আছে, ‘এটা কোনো সমস্যা নয়। স্পিন আমি ভালো খেলি। ওপেনার যেহেতু, ফাস্ট বোলিং যে কারও মতোই ভালো খেলি। ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে যে ভ‚মিকাই দেওয়া হোক, পালন করতে প্রস্তুত আছি। এটা নিয়ে এখনও আলোচনা হয়নি আমাদের। ওপেনিং করানো না হলে ৩ নম্বর, ৫ নম্বর, যে কোনো জায়গায় খেলতে প্রস্তুত আমি। তখনও আমি বিশ্বের সেরা ৫ নম্বর হব, বিশ্বের সেরা ৩ নম্বর হব।’

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গেইল

২০ সেপ্টেম্বর, ২০২১
২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১
২০ মার্চ, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন