Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০১ ব্শৈাখ ১৪২৮, ০১ রমজান ১৪৪২ হিজরী

পুলিশের বিপক্ষে শেখ রাসেলের গোলউৎসব

আবাহনীর কষ্টের জয়

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৪ মার্চ, ২০২১, ৮:৫৪ পিএম

ঘরোয়া ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) পুলিশ এফসি’র বিপক্ষে বৃহস্পতিবার গোলউৎসবে মেতেছিল শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র। এদিন বিকালে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে প্রথম লেগে নিজেদের শেষ ম্যাচে শেখ রাসেল ৫-০ ব্যবধানে বিধ্বস্ত করে পুলিশকে। বিজয়ী দলের পক্ষে স্থানীয় মিডফিল্ডার মোহাম্মদ আবদুল্লাহ দু’টি এবং নাইজেরিয়ান মিডফিল্ডার ওবি মোনেকে, ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড লোপেজ রদ্রিগুয়েজ ও তাজিকিস্তানের ডিফেন্ডার সিওভোস অ্যাশরোরেভ একটি করে গোল করেন। অন্যদিকে উত্তর বারিধারার বিপক্ষে কষ্টের জয়ে প্রথম লেগ শেষ করেছে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড।

এক ম্যাচ পরেই ঘুরে দাঁড়িয়েছে শেখ রাসেল। আগের ম্যাচে তারা অপেক্ষাকৃত দূর্বল উত্তর বারিধারার কাছে ২-১ গোলে হারলেও বৃহস্পতিবার পুলিশকে বিধ্বস্ত করেই ফের জয়ের ধারায় ফিরেছে। ম্যাচের শুরু থেকেই পুলিশের রক্ষণভাগকে চাপে রেখে খেলতে থাকে রাসেল।

ফলে তারা সাফল্যও পায় খুব তাড়াতাড়ি। ম্যাচের মাত্র ৬ মিনিটেই প্রথম গোলের দেখা পায় শেখ রাসেল। এসময় নোলকের উড়ন্ত থ্রো পুলিশের বক্সে জটলার মধ্যে পড়লে হেডে গোল ওবি মোনেকে (১-০)। ম্যাচের ২৮ মিনিটে ওবি মোনেকের বাড়ানো বল ধরে দুরন্ত গতিতে এগিয়ে গিয়ে শটে দ্বিতীয় গোল করেন লোপেজ রদ্রিগুয়েজ (২-০)। দুই গোল হজম করে যেন ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়ে পুলিশ। তারা কোনো প্রতিরোধই গড়ে তুলতে পারেনি। ফলে আরও তিনবার উল্লাসে মাতেন রাসেল ফুটবলাররা। ৩৬ মিনিটে বাঁ প্রান্ত দিয়ে খালেকুজ্জামানের ক্রসে বক্সের মধ্য থেকে ডান পায়ের ভলিতে গোল করে রাসেলকে বড় জয় পেতে সাহায্য করেন আবদুল্লাহ (৩-০)। এই ব্যবধানে এগিয়ে থেকে বিরতিতে গেলেও গোলক্ষুধা নিয়েই দ্বিতীয়ার্ধে মাঠে শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র। এই অর্ধে পুলিশ দল গোল শোধের শত চেষ্টা করলেও ব্যর্থ হয়। উল্টো আরও দু’গোল হজম করে তারা। ম্যাচের ৬৯ মিনিটে আব্দুল্লাহর জোড়ালো শটের বল পুলিশের গোলরক্ষক সাইফুল ইসলাম খানের হাতে লেগে জালে জড়ালে ব্যবধান দাঁড়ায় ৪-০। ৮৪ মিনিটে লোপেজের মাইনাসে তাজিকিস্তানের ডিফেন্ডার সিওভোস অ্যাশরোরেভ শটে গোল করলে বড় জয় নিশ্চিত হয় শেখ রাসেলের (৫-০)। শেষে এই ব্যবধানে জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে তারা।

ম্যাচ জিতে ১২ খেলায় ছয় জয়, দুই ড্র ও চার হারে ২০ পয়েন্ট নিয়ে তালিকায় চারে উঠে এলো রাসেল। সমান ম্যাচে তিনটি করে জয় ও ড্র’তে এবং ছয় হারে ১২ পয়েন্ট পেয়ে অষ্টম স্থানে থেকে প্রথম লেগ শেষ করলো পুলিশ।

একই ভেন্যুতে রাতে অনুষ্ঠিত ম্যাচে ঢাকা আবাহনী বিদেশি আর আত্মঘাতি গোলের উপর ভর করে ২-১ ব্যবধানে হারায় উত্তর বারিধারা ক্লাবকে। আগের ম্যাচে বসুন্ধরা কিংসের কাছে বড় ব্যবধানে হারলেও বৃহস্পতিবার জয়ের লক্ষ্যেই মাঠে নেমেছিল আবাহনী। কিন্তু ম্যাচের ২৪ মিনিট পর্যন্ত আবাহনীকে আটকে রাখে বারিধারা। তবে তারা গোল হজম করে নিজেদের দোষেই। দ্রতগতিতে বক্সের মধ্যে ঢুকে পড়া জুয়েল রানাকে ফাউল করেন বারিধারার সোহেল। রেফারি পেনাল্টির বাঁশি বাজালে স্পট কিক থেকে গোল করেন ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড ফ্রান্সিসকো দ্য সিলভা (১-০)। ৫৫ মিনিটে আবাহনীকে দ্বিতীয় গোল উপহার দেয় বারিধারাই। এসময় হাইতিয়ান ফরোয়ার্ড কারভেন্স বেলফোর্টের মাটি কামড়ানো শট ফেরাতে গিয়ে নিজেদের জালেই বল ঠেলে দেন বারিধারার উজবেকিস্তানের ডিফেন্ডার সাইদোস্তন ফজিলভ (২-০)। তবে ম্যাচের অন্তিম মূহুর্তে বারিধারার হয়ে এক গোল শোধ দেন মিসরের ডিফেন্ডার মোহাম্মদ সৈয়দ (১-২)। শেষ পর্যন্ত ২-১ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে ঢাকা আবাহনী। এই জয়ে ১২ ম্যাচে ২৫ পয়েন্ট নিয়ে তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে থেকে প্রথম লেগ শেষ করলো আবাহনী। সমান ম্যাচে ৯ পয়েন্ট পাওয়া বারিধারার অবস্থান দশে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফুটবল


আরও
আরও পড়ুন