Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০১ ব্শৈাখ ১৪২৮, ০১ রমজান ১৪৪২ হিজরী

কোহলির আরেকটি শূন্যের লজ্জা

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৬ মার্চ, ২০২১, ১২:০২ এএম

বিরাট কোহলি। সময়ের অন্যতম সেরা এই ব্যাটসম্যান রানের বৃষ্টি ঝরিয়ে কিংবা সেঞ্চুরির ভেলায় ভেসে রেকর্ডের ডালি সাজিয়েছেন। এত এত প্রাপ্তির মাঝে কখনও কখনও কিন্তু লজ্জার রেকর্ডও পাশে বসে! এই যেমন ইংল্যান্ডের বিপক্ষে চলমান আহমেদাবাদ টেস্টে ‘ডাক’ মারার লজ্জায় ডুবলেন। রানের খাতা খোলার আগে প্যাভিলিয়নে ফিরে ভারতের অধিনায়ক হিসেবে টেস্টে সবচেয়ে বেশি ‘ডাক’ মেরে আউট হওয়ার অপ্রত্যাশিত রেকর্ডে মহেন্দ্র সিং ধোনিকে ছুঁয়ে ফেললেন কোহলি। তবে শক্তিশালী অবস্থানে আছে তার দল।

১৩ চার ও ২ ছক্কায় ১১৮ বলে ১০১ রান করে রুটের হাতে ক্যাচ দিয়ে অ্যান্ডারসনের বলে আউট হন পন্ত। তবে ভারতের লিড বাড়ানোর আশার আলো হয়ে এখনো টিকে আছেন ওয়াশিংটন সুন্দর। ৩৪ বলে ১১ রান করে অপরাজিত থাকা অক্ষর প্যাটেলকে নিয়ে আজ তৃতীয় দিন শুরু করবেন তিনি। ৮ চারে ১১৭ বলে ৬০ রান করে অপরাজিত আছেন সুন্দর। ইংল্যান্ডের হয়ে অ্যান্ডারসন তিন, বেন স্টোকস ও জেক লিচ নিয়েছেন দুইটি করে উইকেট। দেড়শ রান তোলার আগেই ছয় উইকেট হারিয়ে যখন ভারত লিড নিতে পারবে কিনা, এমন শঙ্কাও উঁকি দিচ্ছিল।
অন্যদিকে ভারতীয় অধিনায়ক অনেকদিন ধরেই ধারাবাহিক হতে পারছেন না। ভালোর ইঙ্গিত দিয়ে পরের ম্যাচ কিংবা ইনিংসে আবার হতাশ করছেন তিনি। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে চলমান চতুর্থ টেস্টে আরেকবার ব্যর্থতার সাগরে ডুবলেন কোহলি। বেন স্টোকসের বলে উইকেটকিপার বেন ফকসের গ্লাভসে ধরা পড়েন শূন্য রানে। এতে টেস্ট অধিনায়ক হিসেবে অষ্টমবারের মতো রানের খাতা খোলার আগে আউট হলেন কোহলি। এতদিন ভারতের অধিনায়ক হিসেবে আটবার শূন্য রানে আউট হয়ে লজ্জার রেকর্ডটা এককভাবে ছিল ধোনির, এবার তার পাশে বসলেন ৩২ বছর বয়সী ব্যাটসম্যান।

চলতি সিরিজে এবার দিয়ে দ্বিতীয়বার ‘ডাক’ মারলেন কোহলি। এর আগে দ্বিতীয় টেস্টে মঈন আলীর বলে শূন্য করে আউট হয়েছিলেন ভারতীয় অধিনায়ক। ২০১৪ সালের পর প্রথমবার নির্দিষ্ট কোনও সিরিজে দুইবার এমন লজ্জায় পড়তে হলো তাকে। সব মিলিয়ে টেস্টে ১২বার শূন্য রানে আউট হলেন কোহলি। যা আবার ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পঞ্চম ঘটনা। পরিসংখ্যান বলছে, ইংলিশদের বিপক্ষে সবশেষ ৭ ইনিংসের তিনটিতেই খালি হাতে ফিরতে হয়েছে সময়ের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যানকে।

সব মিলিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে কোহলির ‘ডাক’ এখন ২৭টি, ভারতের হয়ে যা দশম সর্বোচ্চ। সবচেয়ে বেশি ৪৩টি শূন্য জহির খানের। অন্যান্য উল্লেখযোগ্যদের মধ্যে শচিন টেন্ডুলকারের শূন্য ৩৪টি, বিরেন্দর শেবাগের ৩১টি, সৌরভ ও কপিলের ২৯টি, যুবরাজ সিং ২৬টি, সুরেশ রায়না ২৫টি, রাহুল দ্রাবিড়ের ২০টি।

বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অভিষেক আসরে কোহলির এটি চতুর্থ শূন্য। জাসপ্রিত বুমরাহর সঙ্গে ভারতের হয়ে যৌথভাবে তালিকার শীর্ষে আছেন তিনি। পাঁচটি করে শূন্য নিয়ে সামগ্রিকভাবে এক নম্বরে আছেন পাঁচজন। তারা হলেন শান মাসুদ, শাহিন আফ্রিদি, আইনরিখ নরকিয়া, প্যাট কামিন্স ও কুশল মেন্ডিস।


আহমেদাবাদ টেস্ট
সংক্ষিপ্ত স্কোর
ইংল্যান্ড ১ম ইনিংস : ২০৫। ভারত ১ম ইনিংস : (আগের দিন ২৪/১) ৯৪ ওভারে ২৯৪/৭ (রোহিত ৪৯, পুজারা ১৭, কোহলি ০, রাহানে ২৭, পান্ত ১০১, অশ্বিন ১৩, সুন্দর ৬০*, অক্ষর ১১*; অ্যান্ডারসন ৩/৪০, স্টোকস ২/৭৩, লিচ ২/৬৬, রুট ১৪-১-৪৬-০)।
দ্বিতীয় দিন শেষে



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কোহলি

১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২১
২৯ ডিসেম্বর, ২০২০
২০ ডিসেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন