Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১২ আগস্ট ২০২০, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৭, ২১ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

বন্দরে হাইওয়ে পুলিশ কনস্টেবলকে লেগুনা চাপায় হত্যার ব্যর্থ চেষ্টা

প্রকাশের সময় : ৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

না’গঞ্জ থেকে স্টাফ রিপোর্টার: বন্দরে পূর্ব বিরোধের জের ধরে কাঁচপুর হাইওয়ে থানা পুলিশের কনস্টেবল সালেহ আহাম্মদ (২৮)কে লেগুনা চাপায় হত্যার ব্যর্থ চেষ্টা চালিয়েছে নেশাগ্রস্ত লেগুনা চালক আবদুর রহমান। রোববার সকাল সোয়া ৮টায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের মদনপুর বাসস্ট্যান্ড নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে। আহত পুলিশ কনস্টেবলকে মুমূর্ষু অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় ঘাতক লেগুনাটি আটক করলেও চালক-হেলপার পলাতক রয়েছে। কাঁচপুর হাইওয়ে থানার ওসি শরীফুল আলম জানান, লেগুনা চালক পরিকল্পিতভাবে কনস্টেবল সালেহ আহাম্মদকে হত্যার চেষ্টায় চাপা দিয়েছে। এর আগে সিগন্যাল অমান্যের কারণে তাকে শাসানো হয়। ওই শাসানোর জের ধরে রোববার সকাল ৮টায় মাদকাসক্ত লেগুনা চালক কাঁচপুর হতে সোনারগাঁয়ের উদ্দেশ্যে যাওয়ার সময় সোয়া ৮টায় মদনপুর বাসস্ট্যান্ড নামক স্থানে পৌঁছলে হত্যার চেষ্টায় কনস্টেবল সালেহ আহাম্মদকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। এ ঘটনার পর পরই অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা ও আশপাশের লোকজন সালেহ আহাম্মদকে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করে। স্থানীয় পথচারীরা জানায়, মূলতঃ হিমালয় ও শ্রাবণ ট্রান্সপোর্টের গাড়ি এলোপাতাড়ি রাখার কারণে মদনপুর বাসস্ট্যান্ডে সড়কটিতে যানজট লেগেই থাকে। হাইওয়ে পুলিশকে এ কারণে অনেক কষ্টে দায়িত্ব পালন করতে হয়। তারা বিষয়টি পুলিশের ঊর্ধ্বতন মহলের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বন্দরে হাইওয়ে পুলিশ কনস্টেবলকে লেগুনা চাপায় হত্যার ব্যর্থ চেষ্টা
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ