Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার ১৬ জুলাই ২০১৯, ০১ শ্রাবণ ১৪২৬, ১২ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

সাভারে যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা

প্রকাশের সময় : ৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার, সাভার থেকে : সাভারে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে এক যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। এঘটনায় গুরুতর আহত ওই যুবলীগ নেতাকে উদ্ধার করে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
রোববার সন্ধ্যায় সাভারের বিরুলিয়া ইউনিয়নের ছোট কালিয়াকৈর গ্রামে আহতের নিজ বাড়ির সামনে এ হামলার ঘটনা ঘটে।
আহত যুবলীগ নেতার নাম মোঃ হানিফ মিয়া (৫৫)। সে বিরুলিয়া ইউনিয়নের ছোট কালিয়াকৈর এলাকার মৃত হাশেম আলীর ছেলে। এবং ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি এবং বর্তমানে উপজেলা যুবলীগের সদস্য।
এদিকে খবর পেয়ে সাভার মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেও হামলার সাথে জড়িত কাউকে আটক করতে পারেনি।
হানিফ মিয়ার মেয়ে মায়া আক্তার জানান, সন্ধা ৭টার দিকে আমার বাবা মসজিদ থেকে নামাজ পড়ে বাসায় আসছিলেন। বাসার কাছে পৌঁছার সাথে সাথে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা সন্ত্রাসী মহসীন মিয়া, আব্দুল মালেক, মোতালেব ও কুটিসহ বেশ কয়েকজন আমার বাবাকে এলোপাথারি কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করে। একপর্যায়ে আমার বাবাকে মৃত ভেবে ফেলে রেখে পালিয়ে যায় হামলাকারীরা।
হানিফ মিয়ার ছেলে মাসুদ মিয়া জানান, এক একর সম্পতি নিয়ে আমার চাচা মোতালেবের সাথে দীর্ঘদিন ধরে মামলা চলে আসছিল। শনিবার ওই মামলায় আমরা রায় পেলে মোতালেব ক্ষিপ্ত হয়ে ভাড়াটে সন্ত্রাসী দিয়ে আমার বাবাকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে।
এব্যাপারে সাভার মডেল থানার সহকারী পুলিশ সুপার মাহাবুবুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সন্ত্রাসী হামলার খবর শুনে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। এঘটনায় একটি মামলা দায়ের করে খুব শীঘ্রই সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারে অভিযান পরিচালনা করা হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন