Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৩ জুন ২০২১, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮, ০১ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

প্রেমিক-প্রেমিকাকে যাত্রী হিসাবে পরিবহন করায় অটো চালকের উপর নির্যাতন

দিনাজপুর অফিস | প্রকাশের সময় : ২১ মার্চ, ২০২১, ২:২০ পিএম

যাত্রী হিসাবে যুবক-যুবতিতে পরিবহন করার খেসারত দিচ্ছে নিরহ এক অটো চালক। কারন ঐ যুবক-যুবতি পালিয়ে বিয়ে করায় মেয়ের স্বজনেরা অটো চালককে দায়ী করে নির্যাতন চালায়। নির্যাতনের শিকার অটো চালক এখন দিনাজপুর সদর হাসপাতালে আশংকাজনক অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন। ঘটনাটি ঘটেছে দিনাজপুর শহরের দপ্তরিপাড়া এলাকায়। এ ব্যাপারে দিনাজপুর কোতয়ালী থানায় একটি অভিযোগও দায়ের করা হয়েছে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ২০ মার্চ শনিবার সকালে দপ্তরীপাড়া এলাকার হিরন ফকিরের মেয়ে মীম ও ইদ্রিস আলীর পুত্র নাঈম পরস্পরের সাথে ভালোবাসার সম্পর্কের কারনে একসাথে পালিয়ে যায়। তারা ওই এলাকার অটো চালক রনির অটোবাইকে উঠে যায়। ফলে তাদের পালিয়ে যাওয়াতে রনির সংশ্লিষ্টতা আছে মর্মে অভিযোগ করে রণির উপর মানবিক নির্যাতন চালায় মেয়ের স্বজনেরা। তারা অটো চালক রনিকে একটি ঘরে নিয়ে দরজা বন্ধ করে লোহার রডসহ বিভিন্ন দেশীয় অস্ত্র দিয়ে আক্রমন করে। নির্যাতনে জ্ঞান হারিয়ে ফেললে। তারা একে একে পালিয়ে যায়। এলাকাবাসীর তাতে সন্দেহ হলে রনির বাড়িতে খবর দেয়। রনির বাড়ীর লোকজনসহ এলাকাবাসী রনিকে উদ্ধারের জন্য হিরন ফকিরের বাড়ীতে গেলে তারা সবাই বাড়ী থেকে পালিয়ে যায়। পরে রনিকে উদ্ধার করে দিনাজপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ব্যাপারে ২০ মার্চ সন্ধ্যায় দিনাজপুর কোতয়ালী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন অটো চালক রনির শ্বশুর মোঃ আব্দুল ওরফে চাল্লু।



 

Show all comments
  • Jack Ali ২১ মার্চ, ২০২১, ৪:৩৩ পিএম says : 0
    If our country rule by Qur'an then no body dare to fall in love before marriage. Their punishment according to Qur'an both men and women will be whipped 100 times and some believer will witness it, now we have media like TV, and they will both expelled for one year. All the Crime is happening is due to lack of Quranic rule. Those who rule, all the crimes are happening it will be on their shoulder, when they die, they will see trillion trillion sins in their book.
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: নির্যাতন


আরও
আরও পড়ুন