Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ১৫ মে ২০২১, ০১ জৈষ্ঠ্য ১৪২৮, ০২ শাওয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

কুরআনের ২৬ আয়াত বাতিলের সেই রিট খারিজ, সামাজিক মাধ্যমে স্বস্তি

আবদুল মোমিন | প্রকাশের সময় : ১৫ এপ্রিল, ২০২১, ৪:৩৭ এএম

পবিত্র কোরআনুল কারীম থেকে ২৬টি আয়াত অপসারণ চেয়ে সম্প্রতি ভারতের আদালতে দায়ের করা সেই বহুল সমালোচিত রিট আবেদনটি বাতিল করায় ব্যাপক সন্তোষ প্রকাশ করেছেন নেট দুনিয়ার বাসিন্দারা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অনেকেই দেশটির আদালতের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে পোস্ট দিয়েছেন।

ভারতের উত্তরপ্রদেশের শিয়া ওয়াকফ বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যান সৈয়দ ওয়াসিম রিজভীর দায়ের করা ওই রিট আবেদনটি বাতিল করে দিয়েছেন দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। একইসঙ্গে পিটিশন দাখিল করার ব্যয় হিসাবে তাকে ৫০ হাজার রুপি ক্ষতিপূরণ দিতে নির্দেশ দিয়েছেন। আদালতের এমন রায়ের পরই স্বস্তি দেখা গিয়েছে সামাজিক মাধ্যমে।

আজ সোমবার বিচারপতি আরএফ নরিমনের নেতৃত্বাধীন বেঞ্চ এ আদেশ দেন। এদিন আদালতে রিট আবেদনটিকে ‘বাজে’ বলে আখ্যায়িত করেন বিচারক।

ফেসবুকে হাসেম হাসেম লিখেছেন, ‘‘ইন্ডিয়ান সুপ্রিম কোর্ট বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দিয়েছে। আবেগের বশবর্তী হয়ে উল্টাপাল্টা রায় দিলে ইন্ডিয়াকে এর জন্য কঠিন মাসুল দিতে হতো। কারণ পবিত্র কুরান হলো আল্লাহতালার বাণী, এতে কাটাছেঁড়া করার ক্ষমতা কোন মানব সন্তানের নেই।ইসলাম হলো বর্তমান বিশ্বের দ্বিতীয় সংখ্যাগরিষ্ঠ ধর্ম,যে ধর্মের অনুসারীর সংখ্যা ২ বিলিয়নের উপরে। ইন্ডিয়া যদি ভুলবশত এই ধর্মগ্রন্থের কোন অপব্যাখ্যা দেওয়ার চেষ্টা করে, তাহলে সারাবিশ্বের ২০০ কোটি মুসলমানদের রোষানলে পড়বে ইন্ডিয়া। আর রোষানলের আগুন এতোটাই ভয়াবহ হবে,যে আগুনে ইন্ডিয়া পুড়ে ছাড়খার হয়ে যাবে।’’

ফিরোজ আলমের মন্তব্য, ‘‘সুপ্রিম কোর্ট নিষিদ্ধ করলেই কি নিষিদ্ধ হত? কেয়ামত পর্যন্ত কুরআন অপরিবর্তিত থাকবে ৷ কুরআন মানব রচিত কিতাব নয় কুরআন আল্লাহর কিতাব ৷ কুরআনকে পরিপূর্ণ ভাবেই আল্লাহ নাযিল করেছেন।’’

আবু কালাম লিখেছেন, ‘‘যুগে যুগে আল কোরআন এর উপর যত আঘাত এসেছে আল্লাহ পাক নিজ হাতে তার কোরআনকে হেফাজত করেছেন। কারন কোরআন সংরক্ষণ করার দায়িত্ব আল্লাহ পাক নিজে নিয়েছেন। তাই পৃথিবীতে এমন কোন শক্তি নেই কোরআনের একটা অক্ষর পরিবর্তন করতে পারবেন।’’

মোঃ জাহাঙ্গীর আলম লিখেছেন, ‘‘সন্ত্রাস, জঙ্গীবাদকে ইসলাম কখনই সমর্থন করেনা। যারা কুরআনের আয়াতের অপব্যাখ্যা করছে, তাদেরকে দ্রুত আইনের আওতায় এনে বিচার করতে হবে। কুরআনের আয়াতে ভুল নাই। কুরআনের আয়াতের যারা অপব্যাখ্যা করছে তাদের মগজেই গোবর আছে...।’’

উমর ফারুক লিখেছেন, ‘‘দুনিয়ার মালিক আল্লাহ চ্যালেন্জ করে বলেছেন।আমার কুরআনকে কোন অপশক্তি একবিন্দু পরিবর্তন করতে পারবে না।আল্লাহর সেই চ্যালেন্জ কেউ গ্রহন করে সফল হতে পারে নাই।লক্ষ কোটি শিশু যুবক বৃদ্ধ আল্লাহর এই পবিত্র কুরআনকে বুকে ধারন করে আছে।যা পৃথিবীতে আর অন্য কোন ধর্মীয় গ্রন্থের ক্ষেত্রে নজির নেয়।এটাই কুরআনের অলৌকিকতা।’’



 

Show all comments
  • Mahroof Khan ১৫ এপ্রিল, ২০২১, ৯:৫২ এএম says : 0
    সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের শুধু আলহামদুলিল্লাহ ঝড়
    Total Reply(0) Reply
  • Abrar Khan ১৫ এপ্রিল, ২০২১, ৯:৫২ এএম says : 0
    আমি তো খুশি
    Total Reply(0) Reply
  • Rijvi Alive ১৫ এপ্রিল, ২০২১, ৬:৫১ এএম says : 0
    We want rigorous punishment for that Shia culprit.
    Total Reply(0) Reply
  • ।।শওকত আকবর।। ১৫ এপ্রিল, ২০২১, ৭:৩৮ এএম says : 0
    কোরানের ২৬ আয়াত ?না!না!একটি জের জবর পেশ ও পৃথির কোন আদাতর সাধ্যনাই।যুগে যগে কিছু বির্তকিতরা এ ভাবে উদ্ভট মন্তব্য করে নিজেকে পরিচিত করেছে মাত্র।কান শুনে রাখুন একটি অখ্খর যদি পরির্তন রায়ের আদেশ হতো।কোরান পিপাষুরা ঘরে বসে থাকতো না দাঁত ভাংগা জবাব দিতো।
    Total Reply(0) Reply
  • fastboy ১৫ এপ্রিল, ২০২১, ৮:০১ এএম says : 0
    Y-E-S ,Y-E-S,‘ইন্ডিয়ান সুপ্রিম কোর্ট বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দিয়েছে। আবেগের বশবর্তী হয়ে উল্টাপাল্টা রায় দিলে ইন্ডিয়াকে এর জন্য কঠিন মাসুল দিতে হতো। কারণ পবিত্র কুরান হলো আল্লাহতালার বাণী, এতে কাটাছেঁড়া করার ক্ষমতা কোন মানব সন্তানের নেই।ইসলাম হলো বর্তমান বিশ্বের দ্বিতীয় সংখ্যাগরিষ্ঠ ধর্ম,যে ধর্মের অনুসারীর সংখ্যা ২ বিলিয়নের উপরে। ইন্ডিয়া যদি ভুলবশত এই ধর্মগ্রন্থের কোন অপব্যাখ্যা দেওয়ার চেষ্টা করে, তাহলে সারাবিশ্বের ২০০ কোটি মুসলমানদের রোষানলে পড়বে ইন্ডিয়া। আর রোষানলের আগুন এতোটাই ভয়াবহ হবে,যে আগুনে ইন্ডিয়া পুড়ে ছাড়খার হয়ে যাবে।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ