Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ১৫ মে ২০২১, ০১ জৈষ্ঠ্য ১৪২৮, ০২ শাওয়াল ১৪৪২ হিজরী

অনিশ্চয়তার মুখে ঘরোয়া ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর!

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৫ এপ্রিল, ২০২১, ৭:৪৭ পিএম

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের কারণে গত বছরের মতো এবারও অনিশ্চয়তার মুখে পড়েছে ঘরোয়া ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল)! প্রথম লেগ নিরাপদে শেষ হলেও দ্বিতীয় লেগের খেলা ৯ এপ্রিল মাঠে গড়ানোর কথা ছিল। কিন্তু দেশ বর্তমানে লকডাউনের আওতায় থাকায় বিপিএলের দ্বিতীয় লেগ শুরু করতে পারেনি বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। লকডাউন বাড়লে ফের পেছাবে লিগের খেলা। তবে লিগ সমাপ্তি টানার ইঙ্গিতই দিলেন বাফুফে সিনিয়র সহসভাপতি ও পেশাদার লিগ কমিটির চেয়ারম্যান আবদুস সালাম মুর্শেদী। বৃহস্পতিবার তিনি বলেন, ‘গত বছর আমরা লিগ শেষ করতে পারিনি করোনার কারণে। এ বছরও যদি লিগ শেষ না হয় তাহলে সমস্যা হবে ক্লাবগুলোর। কারণ ফি বছর তারা অনেক অর্থ লগ্নি করে থাকে। তাই দু’তিন দিনের মধ্যে ক্লাব কর্মকর্তাদের সঙ্গে ভার্চুয়াল সভায় বসবো আমরা। দেখি তারা লিগ নিয়ে কি মতামত দেয়।’

করোনার প্রাদুর্ভাবে দেশের চারটি ফুটবল লিগ বন্ধ রয়েছে। এগুলো হচ্ছে- বিপিএল ও বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়নশিপ লিগের দ্বিতীয় লেগ, তৃতীয় বিভাগ ও নারী ফুটবল লিগ। লকডাউনের কারণেই লিগগুলো খেলা আটকে গেছে। সম্প্রতি এক বিজ্ঞপ্তিতে বাফুফে জানিয়েছে, লকডাউন পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে সাত দিন সময় দিয়ে এই চারটি লিগের খেলা ফের শুরু করবে তারা। সালাম মুর্শেদী আরও বলেন, ‘লিগ ফের শুরুর বিষয়ে দু’তিনটি বিষয় বিবেচনা করবো আমরা। ফুটবলাররা যাতে ফিট হয়ে লিগ খেলতে পারে। আরেকটি বিষয়- ক্লাবগুলো যাতে সমস্যায় না পড়ে। খেলোয়াড় ও ক্লাবের স্বার্থ বিবেচনা করেই আমরা সুবিধা মতো সময়ে লিগ শেষ করতে চাই।’

এদিকে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় বিপিএলের দ্বিতীয় লেগে ঢাকার বাইরের ভেন্যু কি বাতিল হবে, নাকি কেবল একটি ভেন্যু বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামেই খেলা হবে? এই সিদ্ধান্তও ক্লাব কর্তাদের সঙ্গে ভার্চুয়াল সভায় হবে বলে বাফুফের সূত্র জানিয়েছে। চলমান পরিস্থিতির পাশাপাশি আন্তর্জাতিক ফুটবলে বাংলাদেশের ব্যস্ত সূচি রয়েছে মে ও জুন মাসে। ১৪ মে এএফসি কাপের চূড়ান্ত পর্ব শুরু হওয়ার কথা। যেখানে খেলবে বিপিএলের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস। ৩১ মে থেকে ১৫ জুন কাতারে জাতীয় দলের বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপ বাছাই পর্বের ম্যাচ রয়েছে। এ কারণেও এতেও বিপিএলে লম্বা ছেদ পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সবকিছু বিবেচনায় বলা যায়, এবারও ঘরোয়া ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর বিপিএল মাঝপথে বাতিল হতে পারে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফুটবল


আরও
আরও পড়ুন