Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ০৬ মে ২০২১, ২৩ বৈশাখ ১৪২৮, ২৩ রমজান ১৪৪২ হিজরী

সংক্রমণ ও মৃত্যুহার রোধে সামাজিক দূরত্ব ও মাস্ক ব্যবহারে আরো যত্নশীল হতে হবে: ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ

জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক হাবিবুল বাশার সুমনসহ টিকা নিলেন ১৫৯৬

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ এপ্রিল, ২০২১, ৫:৪৪ পিএম

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ বলেছেন, করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যুহার রোধে সামাজিক দূরত্ব ও মাস্কের ব্যবহারে আরো যতœশীল হতে হবে। করোনাভাইরাস থেকে নিজেদেরকে রক্ষা করতে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে ও করোনার ভ্যাকসিন অবশ্যই নিতে হবে। রোববার (১৮ এপ্রিল) বিশ্ববিদ্যালয়ের কমিউনিটি অফথালমোলজি বিভাগের থিসিস পরীক্ষা কার্যক্রম পরিদর্শন কালে এ কথা বলেন। এদিকে তাঁর কার্যালয়ে প্রশাসনিক মিটিং এবং জুম এ্যাপস এর মাধ্যমে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় আয়োজিত বিডিএস কোর্সের ভর্তি পরীক্ষা এবং এমবিবিএস কোর্সে শিক্ষার্থী ভর্তির কর্মপরিকল্পনা সংক্রান্ত সভায় অংশগ্রহণ করেন।

এদিকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের কনভেনশন সেন্টারে এদিন চলমান কঠোর লকডাউনের মাঝেও মোট ১৫৯৬ জন টিকা নিয়েছেন। এর মধ্যে দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছেন ১৫১৪ জন এবং প্রথম ডোজের টিকা নিয়েছেন ৮২ জন। রোববার পর্যন্ত প্রথম ডোজের টিকা নিয়েছেন ৫৩ হাজার ৩ শত ৬০ জন এবং দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছেন ১১ হাজার ৩ শত ৮৯ জন। এই কেন্দ্রে রোববার টিকা নিয়েছেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক হাবিবুল বাশার সুমন, সাবেক ক্রিকেটার জাবেদ ওমর বেলিম গোল্লা, বিচারপতি মো. মইনুল হোসেন চৌধুরী, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স এর পরিচালনা পরিষদের চেয়ারম্যান সাজ্জাদুল হাসান, বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতির সভাপতি বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ প্রফেসর ডা. আবুল বারাকাত ও তাঁর সহধর্মিনী ড. সাহিদা আখতার, বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ জাতীয় পার্টি ( জেপি) এর সাধারণ সম্পাদক শখ শহীদুল ইসলাম ও তাঁর পরিবারের সদস্যবৃন্দ। বেতার ভবনের পিসিআর ল্যাবে ১৭ এপ্রিল পর্যন্ত ১ লাখ ৩২ হাজার ৩ শত ৮৯ জনের কোভিড-১৯ টেস্ট করা হয়েছে। বেতার ভবনের ফিভার ক্লিনিকে ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত ৯০ হাজার ২ শত ৭ জন রোগী চিকিৎসাসেবা নিয়েছেন। অন্যদিকে করোনা ইউনিটে রোববার ১৮ এপ্রিল সকাল ৮টা পর্যন্ত ৮ হাজার ৬৩ জন রোগী সেবা নিয়েছেন। ভর্তি হয়েছেন ৪ হাজার ৫ শত ৯৩ জন। সুস্থ হয়ে বাসায় ফিরেছেন ৩ হাজার ৭ শত ৮৫ জন। বর্তমানে ভর্তি আছেন ২০২ জন রোগী এবং আইসিইউতে ভর্তি আছেন ২০ জন রোগী। গত ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি হয়েছেন ১৬ জন রোগী।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ