Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৮, ০১ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ০৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

ফ্রান্সে আইএসের হামলার প্রচেষ্টা নস্যাৎ : তিন মহিলা গ্রেফতার

৩৯, ২৩ ও ১৯ বছর বয়সী ওই তিন নারী চরমপন্থি ও ধর্মান্ধ : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ক্যাজনভ

প্রকাশের সময় : ১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : ফ্রান্সে আইএসের সম্ভাব্য একটি হামলার প্রচেষ্টা নস্যাৎ করে দেওয়া হয়েছে। শুক্রবার এথেন্স সফররত ফরাসি প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওঁলাদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এ সময় সন্দেহভাজন তিন মহিলাকে গ্রেফতার করা হয়। অভিযান চলাকালে ওই তিন নারীর একজনকে গুলি করা হয়। এ সময় ছুরিকাঘাতে এক পুলিশ কর্মকর্তা আহত হন। টেলিভিশনে এক বিবৃতিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ক্যাজনভ বলেন, ৩৯, ২৩ ও ১৯ বছর বয়সী ওই তিন নারী চরমপন্থি ও ধর্মান্ধ। খুব সম্ভবত তাৎক্ষণিকভাবে তারা কোনো নৃশংস কাজের প্রস্তুতি নিচ্ছিল। ফরাসি প্রেসিডেন্ট বলেছেন, তার দেশ সম্ভাব্য একটি সন্ত্রাসী হামলা বানচাল করে দিয়েছে। একইসঙ্গে সন্ত্রাসীদের একটি চক্রও ধ্বংস করে দেওয়া হয়েছে। ফ্রান্সের একজন প্রসিকিউটর দাবি করেছেন, আইএস জঙ্গিরা ওই হামলা চালানোর ষড়যন্ত্র করেছিল। ফ্রাঁসোয়া ওঁলাদ আরো বলেন, গত বৃহস্পতিবার গ্যাস সিলিন্ডারবাহী সন্দেহভাজন একটি গাড়ি শনাক্তের পর সম্ভাব্য ওই হামলা নস্যাৎ করে দেওয়া হয়। ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বেরনাদ ক্যাজনভ জানিয়েছেন, গত বৃহস্পতিবার রাতে দক্ষিণ প্যারিসের একটি শহরতলিতে ছয়টি গ্যাস সিলিন্ডার বহনকারী একটি গাড়িতে তল্লাশি চালানো হয়। এ সময় সন্দেহভাজন তিন নারীকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের বয়স যথাক্রমে ৩৯, ২৩ ও ১৯ বছর। তারা শিগগিরই নতুন করে সহিংস হামলার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। প্রসিকিউটর ফ্রাঁসোয় মলিনস বলেন, আইএস এই হামলা চালাতে চেয়েছিল। যে তিন নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে, তাদের ব্যবহার করতে চেয়েছিল জঙ্গিরা।

অপর এক খবরে বলা হয়, প্যারিসের আইন কর্মকর্তা ফ্রাঙ্কোয়িস মোলিনস জানিয়েছেন, আইএস এই নারীদের যোদ্ধায় পরিণত করতে চেয়েছিল। প্যারিসে একটি গাড়ি ভর্তি গ্যাস সিলিন্ডার পাওয়ার পর জঙ্গি হামলার পরিকল্পনাকারী সন্দেহে তিনজন নারীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। প্যারিসের নটরডেম ক্যাথেড্রালের কাছে পরিত্যক্ত অবস্থায় ছিল গ্যাস সিলিন্ডার বোঝাই ওই গাড়ি। গ্রেফতার করার সময় ওই নারীদের একজন এক পুলিশ কর্মকর্তাকে ছুরিকাঘাত করে। বাধ্য হয়ে পুলিশ তাকে গুলি করে এবং সে আহত হয়। গ্রেফতার তিন নারীদের একজন ২৩ বছর বয়সী সারা এইচ পৃথকভাবে দুই ফরাসি জিহাদির সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন। দুজনেই মারা গেছেন। ওই দুই জিহাদি চলতি বছর হামলা চালিয়েছিলেন। গ্রেফতার অপর এক নারী ১৯ বছর বয়সী ইনেস মাদানি এক চিঠিতে আইএসের প্রতি তার আনুগত্য প্রকাশ করেছিলেন বলে জানা গেছে। আইন কর্মকর্তা মোলিনস জানিয়েছেন, মাদানি সিরিয়া যাওয়ার জন্য বেশ কয়েক দফা চেষ্টা করেছিলেন। গ্রেফতারকৃত তৃতীয় নারী ৩৯ বছর বয়সী আমল এস। তার ১৫ বছর বয়সী এক মেয়ে রয়েছে। ওই মেয়েও উগ্রপন্থায় বিশ্বাসী হয়ে উঠেছে। তাকেও কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে আইন কর্মকর্তা জানিয়েছেন। গত শনিবার সাতটি গ্যাস সিলিন্ডার বোঝাই ওই গাড়িটি পাওয়া যায়, সাতটির মধ্যে ছয়টি সিলিন্ডারই গ্যাসে পূর্ণ ছিল। গাড়িটিতে তিনটি জার ভর্তি ডিজেলও পাওয়া গেছে। তবে সেখানে কোনও বিস্ফোরক পদার্থ পাওয়া যায়নি। কর্মকর্তাদের আশঙ্কা, সন্ত্রাসীরা গ্যাস সিলিন্ডার বোঝাই গাড়িটি উড়িয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করেছিল। আল-জাজিরা, রয়টার্স, বিবিসি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ